স্পেনে দূতাবাসের উদ্যোগে ‘হাসিনা এ ডটার্স টেল’ প্রদর্শন
jugantor
স্পেনে দূতাবাসের উদ্যোগে ‘হাসিনা এ ডটার্স টেল’ প্রদর্শন

  সিদ্দিকুর রাহমান, স্পেন থেকে  

৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:৪৩:৫৯  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিনে মাদ্রিদে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে স্প্যানিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সহযোগী প্রতিষ্ঠান কাসা এশিয়ার প্রেক্ষাগৃহে ২৮ সেপ্টেম্বর ডকুড্রামা ‘হাসিনা এ ডটার্স টেল’ প্রদর্শিত হয়েছে।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জ্যেষ্ঠকন্যা শেখ হাসিনার সংগ্রামমুখর জীবনালেখ্যের ওপর নির্মিত তথ্যচত্রটি। এটি দেখতে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত, কূটনীতিক, শিল্প সমালোচক, শিক্ষক-শিক্ষার্থী, গবেষক, স্পেনের রাজনীতিবিদ ও উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা, স্পেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী, গণমাধ্যমের প্রতিনিধি, প্রবাসী কমিউনিটির বিপুলসংখ্যক সদস্য এবং সাধারণ দর্শক উপস্থিত ছিলেন।

প্রামাণ্যচিত্রটির পটভূমিকার ওপর আলোকপাত করে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্যে স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ সারওয়ার মাহমুদ বলেন, এটি স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি, ইতিহাসের মহানায়ক ও সোনার বাংলার স্বপ্নদ্রষ্টা বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনার হার না মানা সংগ্রামী জীবন ও বাংলাদেশকে এগিয়ে নেওয়ার গল্প। এখানে শেখ হাসিনা কখনো বঙ্গবন্ধুর কন্যা, কখনো জননী, কখনো গণমানুষের ত্রাতা।

রাজনৈতিক প্রজ্ঞা, বিচক্ষণতা, গতিশীল নেতৃত্ব এবং মানবিক মূল্যবোধ দিয়ে শুধু দেশেই নন, সমগ্র বিশ্বে অন্যতম সেরা রাষ্ট্রনায়ক হিসেবে অনন্য মহিমায় অধিষ্ঠিত হয়েছেন শেখ হাসিনা। কয়েক বছর ধরে ফোর্বস প্রকাশিত শীর্ষ ১০০ প্রভাবশালী বিশ্বনেতার তালিকায় ঈর্ষণীয় স্থান অধিকার করেছেন তিনি। মার্কিন সাময়িকী ‘ফরেন পলিসি’ তাকে অভিহিত করেছে বর্তমান দশকের শীর্ষ ১০০ বৈশ্বিক চিন্তাবিদদের অন্যতম হিসেবে।

তথ্যচিত্রটি স্পেনের শিল্পবোদ্ধা ও চলচ্চিত্র সমালোচকদের অকুণ্ঠ প্রশংসা লাভ করার পাশাপাশি সাংস্কৃতিক কূটনৈতিক অঙ্গনে মাদ্রিদের জনমানসকেও অনুরণিত করেছে।

অনুষ্ঠান শেষে প্রধানমন্ত্রীর শুভ জন্মদিন উপলক্ষ্যে একটি কেক কাটা হয় এবং অতিথিদের আপ্যায়িত করা হয়।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন jugantorporobash@gmail.com এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

স্পেনে দূতাবাসের উদ্যোগে ‘হাসিনা এ ডটার্স টেল’ প্রদর্শন

 সিদ্দিকুর রাহমান, স্পেন থেকে 
৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:৪৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিনে মাদ্রিদে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে স্প্যানিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সহযোগী প্রতিষ্ঠান কাসা এশিয়ার প্রেক্ষাগৃহে ২৮ সেপ্টেম্বর ডকুড্রামা ‘হাসিনা এ ডটার্স টেল’ প্রদর্শিত হয়েছে।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জ্যেষ্ঠকন্যা শেখ হাসিনার সংগ্রামমুখর জীবনালেখ্যের ওপর নির্মিত তথ্যচত্রটি। এটি দেখতে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত, কূটনীতিক, শিল্প সমালোচক, শিক্ষক-শিক্ষার্থী, গবেষক, স্পেনের রাজনীতিবিদ ও উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা, স্পেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী, গণমাধ্যমের প্রতিনিধি, প্রবাসী কমিউনিটির বিপুলসংখ্যক সদস্য এবং সাধারণ দর্শক উপস্থিত ছিলেন।

প্রামাণ্যচিত্রটির পটভূমিকার ওপর আলোকপাত করে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্যে স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ সারওয়ার মাহমুদ বলেন, এটি স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি, ইতিহাসের মহানায়ক ও সোনার বাংলার স্বপ্নদ্রষ্টা বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনার হার না মানা সংগ্রামী জীবন ও বাংলাদেশকে এগিয়ে নেওয়ার গল্প। এখানে শেখ হাসিনা কখনো বঙ্গবন্ধুর কন্যা, কখনো জননী, কখনো গণমানুষের ত্রাতা। 

রাজনৈতিক প্রজ্ঞা, বিচক্ষণতা, গতিশীল নেতৃত্ব এবং মানবিক মূল্যবোধ দিয়ে শুধু দেশেই নন, সমগ্র বিশ্বে অন্যতম সেরা রাষ্ট্রনায়ক হিসেবে অনন্য মহিমায় অধিষ্ঠিত হয়েছেন শেখ হাসিনা। কয়েক বছর ধরে ফোর্বস প্রকাশিত শীর্ষ ১০০ প্রভাবশালী বিশ্বনেতার তালিকায় ঈর্ষণীয় স্থান অধিকার করেছেন তিনি। মার্কিন সাময়িকী ‘ফরেন পলিসি’ তাকে অভিহিত করেছে বর্তমান দশকের শীর্ষ ১০০ বৈশ্বিক চিন্তাবিদদের অন্যতম হিসেবে।

তথ্যচিত্রটি স্পেনের শিল্পবোদ্ধা ও চলচ্চিত্র সমালোচকদের অকুণ্ঠ প্রশংসা লাভ করার পাশাপাশি সাংস্কৃতিক কূটনৈতিক অঙ্গনে মাদ্রিদের জনমানসকেও অনুরণিত করেছে।

অনুষ্ঠান শেষে প্রধানমন্ত্রীর শুভ জন্মদিন উপলক্ষ্যে একটি কেক কাটা হয় এবং অতিথিদের আপ্যায়িত করা হয়।

[প্রিয় পাঠক, যুগান্তর অনলাইনে পরবাস বিভাগে আপনিও লিখতে পারেন। প্রবাসে আপনার কমিউনিটির নানান খবর, ভ্রমণ, আড্ডা, গল্প, স্মৃতিচারণসহ যে কোনো বিষয়ে লিখে পাঠাতে পারেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন jugantorporobash@gmail.com এই ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন