Nagad-Fifa-WorldCup
হঠাৎ যে আতঙ্কে কাঁপছে ব্রাজিল শিবির!
jugantor
হঠাৎ যে আতঙ্কে কাঁপছে ব্রাজিল শিবির!

  স্পোর্টস ডেস্ক  

০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১৮:৫০:২৯  |  অনলাইন সংস্করণ

কাতার বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে আগামীকাল মাঠে নামছে ব্রাজিল। প্রথম দুই ম্যাচে জয়ী টুর্নামেন্ট ফেভারিট ব্রাজিল নকআউট পর্ব নিশ্চিত করায় কালকের ম্যাচটি তাদের জন্য ততটা গুরুত্বপূর্ণ না হলেও প্রতিপক্ষ ক্যামেরুন শেষ ষোলো নিশ্চিতে শেষ চেষ্টা করবে।

চোটজর্জর ব্রাজিলের এই ম্যাচে তিন তারকা খেলছেন না। নেইমার এই ম্যাচেও খেলতে পারবেন না। এবার ক্যামেরুনের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে কোভিড আতঙ্কে পড়ছে ব্রাজিল।

সেলেসাওদের একাধিক ফুটবলার জ্বরে আক্রান্ত হওয়ায় হোটেলের বাইরে না যাওয়ার নির্দেশ জারি করা হয়েছে। এর আগে বুধবার বিকালে দোহার আর আরবি স্পোর্টস ক্লাবে ব্রাজিলের অনুশীলনে গণমাধ্যমের প্রবেশের উপরেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়।

গ্রুপপর্বের প্রথম ম্যাচে সার্বিয়ার বিপক্ষে গোড়ালির চোটে পড়েন নেইমার। এ কারণে খেলতে পারেনি সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ। শুক্রবার রাতে ক্যামেরুনের বিপক্ষে তাকে পাচ্ছেন না ব্রাজিলের কোচ তিতে।

এছাড়া ক্রমেই অসুস্থতার তালিকা দীর্ঘ হচ্ছে। জ্বরে আক্রান্ত হয়েছেন আলেক্স সান্দ্রো, অ্যান্টনি, অ্যালিসন বেকার, লুকাস পাকেতা, ভিনিসিয়াস জুনিয়র, রাফিনহাসহ বেশ কয়েকজন ফুটবলার।

কারও হালকা জ্বর এবং গায়ে ব্যথা রয়েছে। আবার কেউ কেউ বমিও করছেন। করোনার সব উপসর্গ থাকায় উদ্বেগ ছড়িয়েছে ব্রাজিল শিবিরে।

কাতারে বিশ্বকাপ চলাকালে করোনার ন্যূনতম বিধিনিষেধ রাখা হয়নি। বাধ্যবাধকতা নেই মাস্ক ব্যবহারে। এমনকি ফুটবলারদের বাধ্যতামূলক কোভিড পরীক্ষার নিয়মও তুলে নিয়েছে ফিফা।

অসুস্থতার কথা স্বীকার করে ব্রাজিলের তরুণ ফুটবলার অ্যান্টনি বলেন, ‘শুরুর দিকে অস্বস্তি হতো। একা আমার নয়, দলের অনেকেরই কাশি হয়েছে। স্টেডিয়াম শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত হওয়ায় এই সমস্যা বলে আমার ধারণা।’

চিন্তিত ব্রাজিল টিম ম্যানেজমেন্টের এক সদস্য বলেন, ‘কাতারে কেউ মাস্ক পরছেন না। কোভিড সংক্রমণ বোধ করতে ন্যূনতম ব্যবস্থাও নেই। এই মুহূর্তে করোনাভাইরাসের দাপট অনেকটা কম ঠিকই, আবার যে আবার যে বাড়বে না, তার নিশ্চয়তা কি আছে?’

এবারের টুর্নামেন্টে সেলেসাওরা এখনো কোন গোল হজম করেনি। সার্বিয়ার সঙ্গে ২-০ গোলের জয়ের প্রথম ম্যাচটিতে টটেনহ্যাম হটস্পারের স্ট্রাইকার রিচার্লিসন জোড়া গোল করেছেন। এরপর সুইজারল্যান্ডের সঙ্গে পরের ম্যাচে ক্যাসেমিরোর একমাত্র গোলে জয় নিশ্চিত হয়।

ক্যামেরুনের সঙ্গে সর্বশেষ ২০১৪ বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বে মুখোমুখি হয়েছিল ব্রাজিল। ঘরের মাঠের ওই ম্যাচে নেইমারের জোড়া গোলে ব্রাজিল ৪-১ ব্যবধানে জয়ী হয়েছিল। দলের হয়ে বাকি গোল দুটি করেছিলেন ফ্রেড ও ফার্নান্দিনহো।

এবার ইনজুরির কারণে নেইমার আর খেলতে পারছেন না। কাল জয়ী হতে পারলে গ্রুপ লিডার হিসেবেই ব্রাজিল পরের রাউন্ডে যাবে। যেখানে তাদের সম্ভাব্য প্রতিপক্ষ গ্রুপ-এইচ রানার্স-আপ ঘানা কিংবা উরুগুয়ে।

Nagad-Fifa-WorldCup

ফুটবল বিশ্বকাপ ২০২২

হঠাৎ যে আতঙ্কে কাঁপছে ব্রাজিল শিবির!

 স্পোর্টস ডেস্ক 
০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৬:৫০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কাতার বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে আগামীকাল মাঠে নামছে ব্রাজিল।  প্রথম দুই ম্যাচে জয়ী টুর্নামেন্ট ফেভারিট ব্রাজিল নকআউট পর্ব নিশ্চিত করায় কালকের ম্যাচটি তাদের জন্য ততটা গুরুত্বপূর্ণ না হলেও প্রতিপক্ষ ক্যামেরুন শেষ ষোলো নিশ্চিতে শেষ চেষ্টা করবে। 

চোটজর্জর ব্রাজিলের এই ম্যাচে তিন তারকা খেলছেন না। নেইমার এই ম্যাচেও খেলতে পারবেন না। এবার ক্যামেরুনের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে কোভিড আতঙ্কে পড়ছে ব্রাজিল।

সেলেসাওদের একাধিক ফুটবলার জ্বরে আক্রান্ত হওয়ায় হোটেলের বাইরে না যাওয়ার নির্দেশ জারি করা হয়েছে। এর আগে বুধবার বিকালে দোহার আর আরবি স্পোর্টস ক্লাবে ব্রাজিলের অনুশীলনে গণমাধ্যমের প্রবেশের উপরেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়।

গ্রুপপর্বের প্রথম ম্যাচে সার্বিয়ার বিপক্ষে গোড়ালির চোটে পড়েন নেইমার। এ কারণে খেলতে পারেনি সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ। শুক্রবার রাতে ক্যামেরুনের বিপক্ষে তাকে পাচ্ছেন না ব্রাজিলের কোচ তিতে। 

এছাড়া ক্রমেই অসুস্থতার তালিকা দীর্ঘ হচ্ছে। জ্বরে আক্রান্ত হয়েছেন আলেক্স সান্দ্রো, অ্যান্টনি, অ্যালিসন বেকার, লুকাস পাকেতা, ভিনিসিয়াস জুনিয়র, রাফিনহাসহ বেশ কয়েকজন ফুটবলার।

কারও হালকা জ্বর এবং গায়ে ব্যথা রয়েছে। আবার কেউ কেউ বমিও করছেন। করোনার সব উপসর্গ থাকায় উদ্বেগ ছড়িয়েছে ব্রাজিল শিবিরে। 

কাতারে বিশ্বকাপ চলাকালে করোনার ন্যূনতম বিধিনিষেধ রাখা হয়নি। বাধ্যবাধকতা নেই মাস্ক ব্যবহারে। এমনকি ফুটবলারদের বাধ্যতামূলক কোভিড পরীক্ষার নিয়মও তুলে নিয়েছে ফিফা।

অসুস্থতার কথা স্বীকার করে ব্রাজিলের তরুণ ফুটবলার অ্যান্টনি বলেন, ‘শুরুর দিকে অস্বস্তি হতো। একা আমার নয়, দলের অনেকেরই কাশি হয়েছে। স্টেডিয়াম শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত হওয়ায় এই সমস্যা বলে আমার ধারণা।’

চিন্তিত ব্রাজিল টিম ম্যানেজমেন্টের এক সদস্য বলেন, ‘কাতারে কেউ মাস্ক পরছেন না। কোভিড সংক্রমণ বোধ করতে ন্যূনতম ব্যবস্থাও নেই। এই মুহূর্তে করোনাভাইরাসের দাপট অনেকটা কম ঠিকই, আবার যে আবার যে বাড়বে না, তার নিশ্চয়তা কি আছে?’ 

এবারের টুর্নামেন্টে সেলেসাওরা এখনো কোন গোল হজম করেনি। সার্বিয়ার সঙ্গে ২-০ গোলের জয়ের প্রথম ম্যাচটিতে টটেনহ্যাম হটস্পারের স্ট্রাইকার রিচার্লিসন জোড়া গোল করেছেন। এরপর সুইজারল্যান্ডের সঙ্গে পরের ম্যাচে ক্যাসেমিরোর একমাত্র গোলে জয় নিশ্চিত হয়। 

ক্যামেরুনের সঙ্গে সর্বশেষ ২০১৪ বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বে মুখোমুখি হয়েছিল ব্রাজিল। ঘরের মাঠের ওই ম্যাচে নেইমারের জোড়া গোলে ব্রাজিল ৪-১ ব্যবধানে জয়ী হয়েছিল। দলের হয়ে বাকি গোল দুটি করেছিলেন ফ্রেড ও ফার্নান্দিনহো। 

এবার ইনজুরির কারণে নেইমার আর খেলতে পারছেন না। কাল জয়ী হতে পারলে গ্রুপ লিডার হিসেবেই ব্রাজিল পরের রাউন্ডে যাবে। যেখানে তাদের সম্ভাব্য প্রতিপক্ষ গ্রুপ-এইচ রানার্স-আপ ঘানা কিংবা উরুগুয়ে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ফুটবল বিশ্বকাপ ২০২২

২৮ ডিসেম্বর, ২০২২