নিজেকে ট্রাম্পকন্যা দাবি এক পাকিস্তানি তরুণীর!

  যুগান্তর ডেস্ক ১০ ডিসেম্বর ২০১৮, ১০:২৪:৪৬ | অনলাইন সংস্করণ

দুর্নাম, অঘটন আর ট্রাম্প যেন সমার্থক। একের পর এক অঘটন জন্ম দেয়া মার্কিন প্রেসিডেন্ট এবার পড়েছেন নতুন ঝামেলায়।

লাহোরের বাসিন্দা আম্মারা মাজহার নামে এক তরুণীর দাবি তিনি নাকি ডোনাল্ড ট্রাম্পের মেয়ে। খবর ডেইলি পাকিস্তানের।

আম্মারা মাজহারের দাবি-তিনি ট্রাম্পের প্রথম স্ত্রী ইভানা ট্রাম্পের গর্ভে জন্ম নেয়া মেয়ে। আমেরিকাতেই জন্মেছেন তিনি এবং ওই দেশেই কেটেছে তার শৈশব।

ওই তরুণী আরও দাবি করেন-তাকে অপহরণ করে পাকিস্তানে নিয়ে আসা হয়েছে। তারপর থেকে লাহোরে রয়েছেন তিনি। নিজের প্রতি সুবিচার পেতে এবং নিজের দেশ আমেরিকায় ফিরে যাওয়ার জন্য আদালতের দ্বারস্থ হয়েছেন আম্মারা মাজহার।

আবেদন করেছেন লাহোর হাইকোর্টে। প্রয়োজনে পাকিস্তানের সুপ্রিমকোর্টেও যাবেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

এখন পর্যন্ত তিনটি বিয়ে করেছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ইভানা ট্রাম্প তার প্রথম স্ত্রী। তার সঙ্গেই সবচেয়ে বেশি সময় দাম্পত্য জীবন কাটিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।

১৯৭৭ সালে বিয়ে হয় ডোনাল্ড ও ইভানা ট্রাম্পের। ১৯৯২ সালে ভেঙে যায় দেড় দশকের দাম্পত্য। ১৯৯৩ সালে মারলা মাপেলস নামে এক নারীকে বিয়ে করেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

১৯৯৯ সালে ট্রাম্পের দ্বিতীয় বিয়েও ভেঙে যায়। ২০০৫ সালে জনপ্রিয় মডেল মেলানিয়াকে বিয়ে করেন ডোনাল্ড। এখনও পর্যন্ত তাকে নিয়েই আছেন।

আম্মারা মাজহারের দাবিকে গুরুত্ব দিয়ে মামলা গ্রহণ করেছেন লাহোর হাইকোর্ট। তবে পাকিস্তানের এক চিকিৎসক ওই তরুণীর দাবি উড়িয়ে দিয়েছেন। তার কথায়-মানসিক ভারসাম্যহীন হওয়ার কারণেই ভুল বকছেন ওই তরুণী।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত