ভারতের দ্রুতগতির ট্রেনের ছবি পোস্ট করে উপহাস পেলেন মন্ত্রী
jugantor
ভারতের দ্রুতগতির ট্রেনের ছবি পোস্ট করে উপহাস পেলেন মন্ত্রী

  যুগান্তর ডেস্ক  

১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১২:০৮:৪৪  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারতের দ্রুতগতির ট্রেনের ছবি পোস্ট করে উপহাস পেলেন মন্ত্রী

ভারতে প্রথমবারের মতো স্থানীয়ভাবে নির্মিত দ্রুতগতির ট্রেনের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করে উপহাসের শিকার হয়েছেন দেশটির রেলপথ মন্ত্রী পিউস গোয়েল।

কারণ টুইটারে যে ট্রেনের ভিডিও পোস্ট করেছেন, তার গতি স্বাভাবিক ট্রেনের চেয়ে দ্বিগুণ মাত্র বেশি হবে।-খবর গার্ডিয়ানের

রোববার নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক ও টুইটার পোস্টে নতুন বান্দি ভারত এক্সপ্রেস ট্রেনের ভিডিও পোস্ট করেন। ভুয়া খবরের খোলস খুলে দিতে কাজ করা ওয়েবসাইট এএলটিনিউজ ডটইনের তদন্তে দেখা গেছে, ভিডিওটি বানানো ও ভুয়া।

ফেসবুকে ট্রেন শনাক্তকারী বেশ কয়েকটি পেজ পিউস গোয়েলের পোস্টের নিচে লিখেছেন, ভিডিওর ফুটেজটি গত ডিসেম্বরে ধারন করা হয়েছে এবং এর গতি সচরাচর ট্রেনের দ্বিগুণ হবে।

ভারতের সবচেয়ে দ্রুতগতির ট্রেন শুক্রবার প্রথম যাত্রী নিয়ে যাত্রা শুরু করেছে। সেদিন এটি দিল্লি থেকে বারানসীতে গিয়েছিল।

কিন্তু সত্য প্রকাশের পর সব কিছু অদলবদল হয়ে যায়। প্রশংসার বদলে তিনি খারাপ মন্তব্যই বেশি কুড়িয়েছেন। ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টির খ্যাতিমান সদস্যরাও এ নিয়ে ফের টুইট করেন।

নরেন্দ্র মোদির মন্ত্রিসভায় সর্বোচ্চ পারফরমেন্স দেখানো মন্ত্রীদের একজন হলেন গোয়েল। ২০২০ সাল নাগাদ ২২৭ গিগাওয়াটসের নবায়নযোগ্য জ্বালানি উৎপাদন পরিকল্পনার তত্ত্বাবধানের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে তাকে।

কিন্তু সামাজিক মাধ্যমে তার পোস্টগুলো বিরূপ প্রতিক্রিয়ার দেখা দিয়েছে। ২০১৭ সালের আগস্টে মহাসড়কে এলইডি লাইটের সারির একটি ছবি পোস্ট করেন। এতে সড়ক আলোকিতকরণে ভারতীয় সরকারের সাফল্য তুলে ধরেন তিনি।

কিন্তু এটি ছিল মূলত রাশিয়ার একটি সড়কের ছবি।

ভারতের দ্রুতগতির ট্রেনের ছবি পোস্ট করে উপহাস পেলেন মন্ত্রী

 যুগান্তর ডেস্ক 
১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১২:০৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ভারতের দ্রুতগতির ট্রেনের ছবি পোস্ট করে উপহাস পেলেন মন্ত্রী
ছবি: গার্ডিয়ান

ভারতে প্রথমবারের মতো স্থানীয়ভাবে নির্মিত দ্রুতগতির ট্রেনের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করে উপহাসের শিকার হয়েছেন দেশটির রেলপথ মন্ত্রী পিউস গোয়েল।

কারণ টুইটারে যে ট্রেনের ভিডিও পোস্ট করেছেন, তার গতি স্বাভাবিক ট্রেনের চেয়ে দ্বিগুণ মাত্র বেশি হবে।-খবর গার্ডিয়ানের

রোববার নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক ও টুইটার পোস্টে নতুন বান্দি ভারত এক্সপ্রেস ট্রেনের ভিডিও পোস্ট করেন। ভুয়া খবরের খোলস খুলে দিতে কাজ করা ওয়েবসাইট এএলটিনিউজ ডটইনের তদন্তে দেখা গেছে, ভিডিওটি বানানো ও ভুয়া।

ফেসবুকে ট্রেন শনাক্তকারী বেশ কয়েকটি পেজ পিউস গোয়েলের পোস্টের নিচে লিখেছেন, ভিডিওর ফুটেজটি গত ডিসেম্বরে ধারন করা হয়েছে এবং এর গতি সচরাচর ট্রেনের দ্বিগুণ হবে।

ভারতের সবচেয়ে দ্রুতগতির ট্রেন শুক্রবার প্রথম যাত্রী নিয়ে যাত্রা শুরু করেছে। সেদিন এটি দিল্লি থেকে বারানসীতে গিয়েছিল।

কিন্তু সত্য প্রকাশের পর সব কিছু অদলবদল হয়ে যায়। প্রশংসার বদলে তিনি খারাপ মন্তব্যই বেশি কুড়িয়েছেন। ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টির খ্যাতিমান সদস্যরাও এ নিয়ে ফের টুইট করেন।

নরেন্দ্র মোদির মন্ত্রিসভায় সর্বোচ্চ পারফরমেন্স দেখানো মন্ত্রীদের একজন হলেন গোয়েল। ২০২০ সাল নাগাদ ২২৭ গিগাওয়াটসের নবায়নযোগ্য জ্বালানি উৎপাদন পরিকল্পনার তত্ত্বাবধানের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে তাকে।

কিন্তু সামাজিক মাধ্যমে তার পোস্টগুলো বিরূপ প্রতিক্রিয়ার দেখা দিয়েছে। ২০১৭ সালের আগস্টে মহাসড়কে এলইডি লাইটের সারির একটি ছবি পোস্ট করেন। এতে সড়ক আলোকিতকরণে ভারতীয় সরকারের সাফল্য তুলে ধরেন তিনি।

কিন্তু এটি ছিল মূলত রাশিয়ার একটি সড়কের ছবি।