কাশ্মীরে কেউ অস্ত্র তুলে নিলে, তাকে নিশ্চিহ্ন করা হবে: ভারতীয় সেনাবাহিনী

  যুগান্তর ডেস্ক ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৪:১০ | অনলাইন সংস্করণ

কাশ্মীরে কেউ অস্ত্র তুলে নিলে, তাকে মুছে ফেলা হবে: ভারতীয় সেনাবাহিনী
কাশ্মীরে বিচ্ছিন্নতাবাদীদের সঙ্গে ভারতীয় সেনাদের বন্দুকযুদ্ধে বাড়িতে আগুন ধরে যায়। ছবি: এএফপি

ভারতীয় সেনাবাহিনীর বলেছে, কাশ্মীরে কেউ হাতে অস্ত্র তুলে নিলে তাকে নিশ্চিহ্ন করে ফেলা হবে, যদি না আত্মসমর্পণ করেন।

কাশ্মীরের মায়েদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে সেনাবাহিনী বলেছে, তাদের মধ্যে যাদের সন্তান হাতে অস্ত্র তুলে নিয়েছেন, তাদের যেন বুঝিয়ে মূলস্রোতে ফিরিয়ে নিয়ে আসেন।-খবর এনডিটিভি অনলাইনের।

বৃহস্পতিবার ভারতনিয়ন্ত্রীত কাশ্মীরে আত্মঘাতি বোমা হামলার একটি আধাসামরিক বাহিনীর ৪৪ জওয়ান নিহত হওয়ার পর এ হুশিয়ারি দেয়া হয়েছে। পাকিস্তানভিত্তিক জইশ-ই-মোহাম্মদ ইতিমধ্যে হামলার দায় স্বীকার করেছে।

কাশ্মীর উপত্যকা থেকে জইশ-ই-মোহাম্মদের পুরো নেতৃত্বকে শেষ করে দেয়া হয়েছে বলেও জানায় ভারতীয় সেনাবাহিনী।

চিন্নার কোরপসের কমান্ডার লেফটেন্যান্ট জেনারেল ক্যানওয়াল জিত সিং বলেন, কাশ্মীরের সব মায়েদের প্রতি আমার অনুরোধ, সন্ত্রাসবাদে যোগ দেয়া আপনার সন্তানকে আত্মসমর্পণের অনুরোধ করুন। তাদের মূলস্রোতে ফিরে আসতে বলুন। কাশ্মীরে যদি কেউ অস্ত্র তুলে নেয়, তাকে মুছে ফেলা হবে, যদি না আত্মসমর্পণ করেন।

আধাসামরিক বাহিনী সিআরপিএফ এবং জম্মু ও কাশ্মীরের পুলিশের এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

এ সেনা কর্মকর্তা বলেন, সরকারের আত্মসমর্পণ নীতির কারণে তরুণরা মূলধারায় ফিরে আসতে পারবেন। কিন্তু এর বাইরে কেউ অস্ত্র তুলে নিলে তাকে শেষ করে দেয়া হবে।

পুলওয়ামায় হামলা পরের ১০০ ঘণ্টায় অন্তত তিন বিদ্রোহীকে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করে দেশটির সেনাবাহিনী।

ঘটনাপ্রবাহ : কাশ্মীর সংকট

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×