মেয়ের স্কুলে যাওয়া ঠেকাতে গাছে ঝুলিয়ে হত্যাচেষ্টা

  অনলাইন ডেস্ক ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১৮:৫১ | অনলাইন সংস্করণ

School

মেয়ে পড়ালেখা করুক তা চান না বাবা-মা! কিন্তু পড়ালেখা করতেই চায় মেয়ে। তাই মেয়ের স্কুলে যাওয়া ঠেকাতে গলায় ফাঁস দিয়ে গাছে ঝুলিয়ে হত্যার চেষ্টা করেন বাবা-মা। তবে সৌভাগ্যবশত গ্রামের সাধারণ মানুষ টের পেয়ে যাওয়ায় বেঁচে গেছে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী। কলকাতার আলিপুরদুয়ারে চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ঘটেছে। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

বৃহস্পতিবার স্কুলে আসার সময়ে ওই ছাত্রীর বাবা তাকে মারধর করে গাছে ফাঁস লাগিয়ে খুন করার চেষ্টা করে। তার জেঠু ও গ্রামবাসীদের জন্য বেঁচে যায় ওই ছাত্রী। স্কুলে গিয়ে পুরো ঘটনা শিক্ষকদের খুলে বলে সে। শিক্ষকরা এই ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন। এই ঘটনার তদন্তে যান আলিপুরদুয়ার ১ নম্বর ব্লকের বিডিও নরবু চেওয়াং শেরপা। তিনি বলেন, ঘটনাটি অমানবিক। আমি তদন্ত করেছি। পুলিশ এলাকায় গিয়েছে। জেলা শাসককেও পুরো বিষয়টি জানানো হয়েছে। ওই ছাত্রীকে হোমে পাঠানো হবে।

স্কুলের শিক্ষকরা জানান, ওই ছাত্রীটি পড়াশোনায় খুবই ভালো। বাড়িতে সৎমা তাকে দিয়ে কাজ করায়। মেয়ে যাতে পড়াশোনা না করে, তার জন্য প্রতি দিন ছাত্রীটির ওপরে পাশবিক অত্যাচার চালায় সৎমা। বাবাও মদ্যপ অবস্থায় প্রতিনিয়ত মেয়েটির ওপরে অত্যাচার চালায়। কিন্তু এত অত্যাচারের পরেও লুকিয়ে স্কুলে যায় ওই ছাত্রী। শেষ পর্যন্ত গাছে ঝুলিয়ে ছাত্রীটিকে খুন করার চেষ্টা করে বাবা।

এই ঘটনার নিন্দা করে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের প্রতিনিধিরা প্রশাসনের দ্বারস্থ হয়েছেন। ইতিমধ্যেই এই ঘটনায় জেলাজুড়েই তীব্র প্রতিবাদ শুরু হয়েছে। ঘটনায় নড়েচড়ে বসেছে প্রশাসনের উচ্চ কর্মকর্তারা। ওই ছাত্রীর যাতে কোনও ক্ষতি না হয়, তাই ব্লক প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাকে যথাযথ নিরাপত্তাও দেওয়া হচ্ছে।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.