এক মুখে দুই কথা! শাবানার সমালোচনায় সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়

  যুগান্তর ডেস্ক ২৫ মে ২০১৯, ১১:৪৭ | অনলাইন সংস্করণ

এক সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাবানা আজমি
এক সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাবানা আজমি। ছবি: সংগৃহীত

ভারতের ১৭তম লোকসভা নির্বাচনে দেশটির ক্ষমতাসীন হিন্দুত্ববাদী দল বিজেপি ৩০৩টি আসন পেয়ে টানা দ্বিতীয় বারের মতো সরকার গঠন করতে যাচ্ছে।

জাতীয় নির্বাচনে ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) এটাই এ যাবতকালের সবচেয়ে ভালো ফল।

এ বিপুল ভোটে জয় পাওয়ায় টুইটারে মোদিকে অভিনন্দন জানাচ্ছেন বলিউড তারকারা।

সেই পালে যুক্ত হয়েছেন এক সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাবানা আজমি। নরেন্দ্র মোদিকে অভিনন্দন জানিয়ে টুইট করেছেন তিনি।

আর এমন টুইটের পরেই বিপাকে পড়েছেন এই অভিনেত্রী।

তাকে নিয়ে নানা কটাক্ষ ও সমালোচনায় মেতে ওঠে ভারতীয় নেটজনতা। ‘কট্টর বিজেপি বিরোধী’ শাবানা আজমী কি এবার দল পাল্টালেন? এমন প্রশ্ন ছুঁড়েছেন কেউ কেউ।

নরেন্দ্র মোদিকে টুইটারে অভিনন্দন জানিয়ে শাবানা আজমি লিখেছেন, ‘এটা ভারতের জনগণের শক্তিশালী জনমত। অভিনন্দন নরেন্দ্র মোদি এবং বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ’।

শাবানা আজমির এমন টুইটের পর তাকে অনেকেই ভারত ছেড়ে পাকিস্তানে চলে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

অনেকেই প্রশ্ন করেন, এক মুখে দুই কথা কেন?

নির্বাচনের কিছুদিন আগে মোদি বিরোধী কথা বলে খবরের শিরোনামে এসেছিলেন শাবানা আজমি।

বিভিন্ন ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ, এবার মোদি জিতলে ভারত ছেড়ে দিবেন বলে মন্তব্য করেন শাবানা আজমি।

যদিও ওই সংবাদের পর এমন কোনো মন্তব্য তিনি করেননি জানিয়ে বিষয়টি অস্বীকার করেছিলেন শাবানা।

সে কারণে বিষয়টি ধামাচাপা পড়ে গেলেও পরে দেখা যায় বেগুসরাইয়ের সিপিআই প্রার্থী কানহাইয়া কুমারের হয়ে প্রচারণা চালাচ্ছেন শাবানা আজমি।

সেখানে চলমান বিজেপি সরকারের বিপক্ষে মন্তব্য করেন তিনি।

তাই শাবানার এমন হঠাৎ সুর পাল্টে মোদিকে অভিনন্দন জানানোর বিষয়টি মেনে নিতে পারছেন না ভারতীয়রা।

শাবানার সেদিনের বক্তব্যের জের টেনেই মোদি জেতায় তাকে ভারত ছেড়ে পাকিস্তানে চলে যেতে বলছেন নেটজনতা।

ঘটনাপ্রবাহ : ভারতের জাতীয় নির্বাচন-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×