লাইভে সাংবাদিককে মারধর করা পিটিআইয়ের সেই নেতা বহিষ্কার

  অনলাইন ডেস্ক ২৬ জুন ২০১৯, ২০:৫৪ | অনলাইন সংস্করণ

লাইভে সাংবাদিককে মারধর করা পিটিআইয়ের সেই নেতা বহিষ্কার
ছবি: সংগৃহীত

টিভি লাইভে সাংবাদিকের ওপর ক্ষমতাসীন তেহরিক-ই-ইনসাফের (পিটিআই) নেতার হামলার ঘটনায় ব্যবস্থা নিচ্ছে পাকিস্তান সরকার। পাশাপাশি তার দলীয় সদস্য পদও বাতিল করা হয়েছে।

সোমবার রাতে করাচি প্রেসক্লাবের প্রেসিডেন্ট সাংবাদিক ফারানকে মারধর করেন পিটিআই নেতা মাসরুর সাইয়াল। টকশোতে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে ফারানকে ধাক্কা দিয়ে নিচে ফেলে দেন ও তাকে সপাটে চড় ও ঘুষি মারতে থাকেন ওই পিটিআই নেতা।

হামলার ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়ায় ঘটনাটি ইতিমধ্যে নজর কেড়েছে সবার।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিশেষ উপদেষ্টা নাইমুল হক এ ঘটনায় তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে ওই নেতার বিরুদ্ধে শাস্তি গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছেন। খবর ডন ও জিয়ো নিউজ উর্দূর।

টুইটারে দেয়া এক বার্তায় নাইমুল হক বলেন, এ ধরণের আচরণ পাকিস্তান তেহরিকে ইনসাফে অগ্রহণযোগ্য ও বেমানান। মাসরুর সাইয়ালের বিরুদ্ধে খুব শিগগিরই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও পড়ুন: লাইভেই সাংবাদিককে পিটিআই নেতার মারধর, ভিডিও ভাইরাল

সাংবাদিকের ওপর হামলার এ ঘটনা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হওয়ার পর তুমুল সমালোচনার জন্ম দিয়েছে। অনেকেই পিটিআই নেতার আচরণকে ‘লজ্জাজনক’ বলে অভিহিত করেছেন।

অনেকে আবার এ ঘটনা নিয়ে মজা করতেও ছাড়েননি; হাতাহাতির ওপর ফোকাস না রেখে ক্যামেরাম্যান কেন অনুষ্ঠানে ফোকাস করেছে, তা নিয়ে মৃদু সমালোচনাও করেছেন তারা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×