যে দেশের পুরুষরা রান্নায় পারদর্শী!

  যুগান্তর ডেস্ক ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ১২:৩৫ | অনলাইন সংস্করণ

কালায়ুর গ্রামের পুরুষদের রান্না করা খাবার।
কালায়ুর গ্রামের পুরুষদের রান্না করা খাবার। ছবি সংগৃহীত

অনেকে মনে করেন রান্না করা আসলে নারীর কাজ। এই ধারণা ভুল প্রমাণ করেছে ভারতের তামিলনাড়ু রাজ্যের রমানাথাপুরাম জেলার কালায়ুর গ্রামের পুরুষরা। এ গ্রামের প্রাপ্তবয়স্ক সব পুরুষ রান্নায় পারদর্শী!

কালায়ুরে ঢুকলেই ভেসে আসে নানান রকমের মসলার সুগন্ধ। এই গ্রামের পুরুষরা যেমন ভোজনরসিক, তেমনি প্রত্যেকে রন্ধনশিল্পী। প্রত্যেক পুরুষই দারুণ রান্না করতে পারেন।

দক্ষিণ ভারতে গ্রামটি ভোজনরসিকদের স্বর্গ হিসেবে পরিচিত। এখানকার খাবারগুলোর স্বাদ অমৃতের মতো!

এই গ্রামের বিশেষত্ব হলো- প্রতিটি বাড়িতে রান্নায় পারদর্শী কেউ না কেউ আছে। সারাভারতের সেরা পুরুষ রন্ধনশিল্পীদের প্রায় ২০০ জনের বসবাস গ্রামটিতে!

প্রায় ৫০০ শতাব্দী আগে এই অঞ্চলের বাসিন্দা ধনী বণিক সম্প্রদায় রান্নার কাজ দেয় নিম্ন বর্ণের ভানিয়ার গোষ্ঠীকে। তারা রান্নাবান্নায় দক্ষ ছিল। ব্রাহ্মণ রন্ধনশিল্পীদের চেয়ে ভানিয়ারদের বানানো খাবারের সুনাম ছিল তুলনামূলক বেশি।

সেই সময় কৃষিকাজ তেমন লাভজনক ছিল না। পুরুষদের অন্য কোনো কাজে দক্ষতা না থাকায় রান্নার প্রতি আগ্রহ জন্মে। এভাবেই তাদের খাবার তৈরিতে পারদর্শী হওয়ার ঐতিহ্য শুরু হয়।

তামিলনাড়ুর কালায়ুর গ্রাম তামিলনাড়ুর চেন্নাই ও মাদুরাই কিংবা অন্ধ্রপ্রদেশের তিরুপতি বেড়াতে গেলে কালায়ুর গ্রামের পুরুষদের রান্না করা খাবারের স্বাদ নিতে পারেন ভ্রমণপিপাসুরা। এ ছাড়া গ্রামটিতে গেলেও সেই সুযোগ হতে পারে।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×