পাক আতঙ্কে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত
jugantor
পাক আতঙ্কে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত

  যুগান্তর ডেস্ক  

১৪ অক্টোবর ২০১৯, ১৫:৩৮:৩৬  |  অনলাইন সংস্করণ

পাক আতঙ্কে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত

পাকিস্তান সমর্থিত কথিত জঙ্গিদের অনুপ্রবেশ ঠেকাতে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত। জম্মু-কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণ রেখায় গত দুই মাস ধরে মোতায়েনকৃত সেনাদের সংখ্যা বাড়িয়েছে দেশটি।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর এক শীর্ষ কর্মকর্তার বরাতে রোববার হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, পাকিস্তান সমর্থিত সন্ত্রাসীরা ৩৭০ ধারা বাতিলকে কেন্দ্র করে বিশৃঙ্খলা তৈরির পাঁয়তারা চালিয়ে যাচ্ছে।

নর্দার্ন আর্মি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট জেনারেল রণবীর সিং জানান, সংবিধানের ৩৭০ ধারা বাতিল ও জম্মু-কাশ্মীরকে দ্বিখণ্ডিত করার পর যে ক্ষোভ জনগণের মধ্যে ছিল তা কমে আসছে। কিন্তু জঙ্গিদের মাধ্যমে সীমান্তের এপারের এলাকা অস্থিতিশীল করতে পাকিস্তান চেষ্টা করছে।

তবে অভিযানের নিরাপত্তার স্বার্থে সেনা মোতায়েনের বিস্তারিত তথ্য না জানালেও নিয়ন্ত্রণ রেখায় কয়েক হাজার অতিরিক্ত সেনা মোতায়েন করেছে ভারত।

এর আগে পাঞ্জাব সীমান্তে পাকিস্তানের একটি ড্রোন ঢুকে পড়ার পর সতর্ক অবস্থান নিয়েছিল ভারতীয় প্রতিরক্ষা বাহিনী। এক সপ্তাহের মধ্যে পাঞ্জাবে অন্তত ৮টি ড্রোন প্রবেশের কথা জানিয়েছিল ভারতীয় কর্তৃপক্ষ। এসব ড্রোনে ৮০ কেজি অস্ত্র পাকিস্তানভিত্তিক খালিস্তানি গোষ্ঠীর কাছে পাঠানো হয়েছে বলে দাবি ভারতের।

পাক আতঙ্কে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত

 যুগান্তর ডেস্ক 
১৪ অক্টোবর ২০১৯, ০৩:৩৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
পাক আতঙ্কে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত
ছবি: সংগৃহীত

পাকিস্তান সমর্থিত কথিত জঙ্গিদের অনুপ্রবেশ ঠেকাতে সীমান্তে সেনা বাড়াচ্ছে ভারত।  জম্মু-কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণ রেখায় গত দুই মাস ধরে মোতায়েনকৃত সেনাদের সংখ্যা বাড়িয়েছে দেশটি।  

ভারতীয় সেনাবাহিনীর এক শীর্ষ কর্মকর্তার বরাতে রোববার হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, পাকিস্তান সমর্থিত সন্ত্রাসীরা ৩৭০ ধারা বাতিলকে কেন্দ্র করে বিশৃঙ্খলা তৈরির পাঁয়তারা চালিয়ে যাচ্ছে। 

নর্দার্ন আর্মি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট জেনারেল রণবীর সিং জানান, সংবিধানের ৩৭০ ধারা বাতিল ও জম্মু-কাশ্মীরকে দ্বিখণ্ডিত করার পর যে ক্ষোভ জনগণের মধ্যে ছিল তা কমে আসছে। কিন্তু জঙ্গিদের মাধ্যমে সীমান্তের এপারের এলাকা অস্থিতিশীল করতে পাকিস্তান চেষ্টা করছে।

তবে অভিযানের নিরাপত্তার স্বার্থে সেনা মোতায়েনের বিস্তারিত তথ্য না জানালেও নিয়ন্ত্রণ রেখায় কয়েক হাজার অতিরিক্ত সেনা মোতায়েন করেছে ভারত।

এর আগে পাঞ্জাব সীমান্তে পাকিস্তানের একটি ড্রোন ঢুকে পড়ার পর সতর্ক অবস্থান নিয়েছিল ভারতীয় প্রতিরক্ষা বাহিনী।  এক সপ্তাহের মধ্যে পাঞ্জাবে অন্তত ৮টি ড্রোন প্রবেশের কথা জানিয়েছিল ভারতীয় কর্তৃপক্ষ। এসব ড্রোনে ৮০ কেজি অস্ত্র পাকিস্তানভিত্তিক খালিস্তানি গোষ্ঠীর কাছে পাঠানো হয়েছে বলে দাবি ভারতের।

 

ঘটনাপ্রবাহ : কাশ্মীর সংকট