বাংলায় এনআরসি হবে না, অমিতকে হুশিয়ারি মমতার

  অনলাইন ডেস্ক ২১ নভেম্বর ২০১৯, ০৯:২১:৪০ | অনলাইন সংস্করণ

জাতীয় নাগরিক নিবন্ধন (এনআরসি) ইস্যুতে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে শাসালেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

তিনি বলেছেন, আর কোথাও যাই হোক না কেন, বাংলা মানবিকতা-সংস্কৃতির জায়গা। এখানে এনআরসি হবে না।

অমিতকে উদ্দেশ্য করে মমতা বলেন, কিছু লোক বদমায়েশি করে এনআরসির কথা বলে আপনাদের উত্ত্যক্ত করছে। একটা কথা মনে রাখবেন, বাইরের আমদানি করা কোনো নেতার কথা বিশ্বাস করবেন না। সে হিন্দুই হোক, মুসলমানই হোক। বিশ্বাস করবেন আমরা যারা মাটিতে থেকে লড়াই করি, তারা আপনাদের পাশে আছি। বাংলায় এনআরসি হবে না।

এর আগে অমিত শাহ বলেন, ভারতের প্রত্যেকটি রাজ্যে জাতীয় নাগরিক তালিকা করা হবে।

বুধবার সংসদের শীতকালীন অধিবেশনের তৃতীয় দিনে অমিত শাহ বলেন, প্রতিবেশী দেশগুলো থেকে ভারতে আসা হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিষ্টান এবং জৈনদের শরণার্থীর মর্যাদা দেবে সরকার। এর সঙ্গে কোনও বিশেষ ধর্মকে নিশানা করার ব্যাপার নেই।

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আগুন যখন লাগে হিন্দু, মুসলিম, শিখ, খ্রিষ্টান, তফসিলি, আদিবাসী কেউ রেহাই পায় না। দাঙ্গা লাগলে সবার ঘরে আগুন লাগে। বলেছিল একটা হিন্দুরও নাম বাদ যাবে না।

‌‌আসামে দেখুন ১৯ লাখের মধ্যে ১৪ লাখ হিন্দু বাঙালির নাম বাদ দেওয়া হয়েছে। মুসলমান, পাহাড়ি, রাজবংশী, বিহারিদের নাম বাদ পড়েছে। তারা সবাই অস্থায়ী জেলে রয়েছেন। বাংলায় এ সব হয় না, হবে না। বাংলা আপনাদের জায়গা, মানবিকতার জায়গা, মানুষের জায়গা, মা-মাটি-মানুষের জায়গা, সভ্যতা, সংস্কৃতির জায়গা।’

ঘটনাপ্রবাহ : আসামে বাঙালি সংকট

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত