আমিরাতের ড্রোন হামলায় লিবিয়ায় অন্তঃসত্ত্বা ও ৯ শিশুসহ নিহত ১১

প্রকাশ : ০২ ডিসেম্বর ২০১৯, ১২:২২ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর ডেস্ক

ছবি: সংগৃহীত

লিবিয়ায় খলিফা হাফতারের দুর্বৃত্ত প্রশাসনকে সমর্থন দিতে সংযুক্ত আরব আমিরাতের ড্রোন থেকে বোমা হামলায় ৯টি শিশু ও অন্তঃসত্ত্বাসহ দুই নারী নিহত হয়েছেন।

স্থানীয় বার্তা সংস্থার বরাতে তুরস্কভিত্তিক ডেইলি সাবাহ এমন খবর দিয়েছে।

আফ্রিকান দেশটির বার্তা সংস্থা সাবাকাত আর-রয়েদ এ’লামিয়ার তথ্যানুসারে, মারজুক হাসপাতালে ৯টি শিশু ও দুই নারীর মরদেহ গ্রহণ করা হয়েছে। নিহত নারীদের একজন ছিলেন অন্তঃসত্ত্বা। আরব আমিরাতের মালিকানাধীন ড্রোনের বোমা হামলায় তারা নিহত হয়েছেন।

উম্মে আল-আরনাব এলাকায় আরব আমিরাতের ড্রোন থেকে বোমা হামলা চালালে এই হতাহতের ঘটনা ঘটেছে।

২০১১ সালে ন্যাটো সমর্থিত বিদ্রোহে প্রেসিডেন্ট মোয়াম্মর আল-গাদ্দাফিকে হত্যা করা হলে লিবিয়ায় অস্থিরতা শুরু হয়। গাদ্দাফি চার দশকের বেশি ক্ষমতায় ছিলেন।

এরপর থেকে লিবিয়ায় রাজনৈতিক বিভাজনে দুটি পক্ষ ক্ষমতা দখলের লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। তার একটি হচ্ছে তবরুকে, অন্যটি ত্রিপলিতে। দুপক্ষেরই ভারী অস্ত্র সজ্জিত মিলিশিয়া গোষ্ঠী রয়েছে।

ক্ষমতা দখলের ক্ষেত্রে ভয়নাকভাবে এগিয়ে রয়েছে বেনগাজিভিত্তিক পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রশাসনের মিত্র হাফতারের সেনাবাহিনী। গাদ্দাফিকে নির্মমভাবে হত্যার পরেই তার এই অগ্রগতি শুরু হয়েছে।

তবে তিনি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সমর্থিত না। কিন্তু উপসাগরীয় দেশগুলোসহ বেশ কয়েকটি দেশ তাকে অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সহায়তা দিয়ে আসছে। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশটিতে ক্ষমতা দখলের ক্ষেত্রে তারা প্রভাব বিস্তার করতে চায়।