বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি, প্রশংসিত নবদম্পতি
jugantor
বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি, প্রশংসিত নবদম্পতি

  অনলাইন ডেস্ক  

০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:২৮:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি নবদম্পতির
বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি নবদম্পতির। ছবি-সংগৃহীত

পাত্রের বাড়িতে বৌভাত অনুষ্ঠানে খানাপিনা ও আনন্দ আয়োজনের ফাঁকে রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করলেন এক নবদম্পতি। 

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হুগলি জেলার চুঁচুড়ার সিংহীবাগানে রোববার ব্যতিক্রমী এই কর্মসূচির আয়োজন করেন নবদম্পতি দীপঙ্কর রায় ও সুস্মিতা মান্না।

ভারতীয় গণমাধ্যম সংবাদ প্রতিদিনের খবরে বলা হয়েছে, দীপঙ্কর রায় বর্ধমানের কালনা কলেজের ইতিহাসের অধ্যাপক। তিনি এমফিল করার সময় কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসের ছাত্রী সুস্মিতা মান্নার সঙ্গে পরিচয় হয়। 

পড়াশোনার ফাঁকেই সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন তারা। এরপর গত শুক্রবার তারা বিয়ে পিঁড়িতে বসেন। 

জানা গেছে, নিজেদের বিয়েকে স্মরণীয় করে রাখতে রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করেন তারা। অভিনব কর্মসূচি আয়োজন করে নিমন্ত্রিতদের কাছে প্রশংসিত হয়েছেন তারা।

বৌভাত অনুষ্ঠানের সকাল থেকেই নিমন্ত্রিতরা উৎসাহের সঙ্গে রক্তদান কর্মসূচিতে যোগ দেন। দীপঙ্কর-সুস্মিতাও রক্তদান করেন। আর এ কর্মসূচিতে যারা রক্তদান করেছেন দীপঙ্কর-সুস্মিতা তাদের হাতে একটি করে গাছের চারা উপহার হিসেবে দিয়েছেন।

দীপঙ্কর রায় বলেন, ‘অনুষ্ঠান বাড়িতে অনেক সময়ই আমরা প্রয়োজনের তুলনায় অনেক বেশি অর্থ ব্যয় করে থাকি। যদি সমাজের কোনো কাজে লাগতে পারি তার জন্যই এই আয়োজন।’

সুস্মিতা বলেন, ‘বিয়ের অনুষ্ঠান নিয়ে আমাদের মধ্যে আলোচনার সময় দীপঙ্কর তার ইচ্ছার কথা আমাকে জানিয়েছিল। আমি ওর এই সমাজের প্রতি কিছু কর্তব্য পালনের ইচ্ছাকে সম্মান জানিয়েছি।’

বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি, প্রশংসিত নবদম্পতি

 অনলাইন ডেস্ক 
০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:২৮ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি নবদম্পতির
বৌভাত অনুষ্ঠানে রক্তদান কর্মসূচি নবদম্পতির। ছবি-সংগৃহীত

পাত্রের বাড়িতে বৌভাত অনুষ্ঠানে খানাপিনা ও আনন্দ আয়োজনের ফাঁকে রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করলেন এক নবদম্পতি।

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হুগলি জেলার চুঁচুড়ার সিংহীবাগানে রোববার ব্যতিক্রমী এই কর্মসূচির আয়োজন করেন নবদম্পতি দীপঙ্কর রায় ও সুস্মিতা মান্না।

ভারতীয় গণমাধ্যম সংবাদ প্রতিদিনের খবরে বলা হয়েছে, দীপঙ্কর রায় বর্ধমানের কালনা কলেজের ইতিহাসের অধ্যাপক। তিনি এমফিল করার সময় কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসের ছাত্রী সুস্মিতা মান্নার সঙ্গে পরিচয় হয়।

পড়াশোনার ফাঁকেই সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন তারা। এরপর গত শুক্রবার তারা বিয়ে পিঁড়িতে বসেন।

জানা গেছে, নিজেদের বিয়েকে স্মরণীয় করে রাখতে রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করেন তারা। অভিনব কর্মসূচি আয়োজন করে নিমন্ত্রিতদের কাছে প্রশংসিত হয়েছেন তারা।

বৌভাত অনুষ্ঠানের সকাল থেকেই নিমন্ত্রিতরা উৎসাহের সঙ্গে রক্তদান কর্মসূচিতে যোগ দেন। দীপঙ্কর-সুস্মিতাও রক্তদান করেন। আর এ কর্মসূচিতে যারা রক্তদান করেছেন দীপঙ্কর-সুস্মিতা তাদের হাতে একটি করে গাছের চারা উপহার হিসেবে দিয়েছেন।

দীপঙ্কর রায় বলেন, ‘অনুষ্ঠান বাড়িতে অনেক সময়ই আমরা প্রয়োজনের তুলনায় অনেক বেশি অর্থ ব্যয় করে থাকি। যদি সমাজের কোনো কাজে লাগতে পারি তার জন্যই এই আয়োজন।’

সুস্মিতা বলেন, ‘বিয়ের অনুষ্ঠান নিয়ে আমাদের মধ্যে আলোচনার সময় দীপঙ্কর তার ইচ্ছার কথা আমাকে জানিয়েছিল। আমি ওর এই সমাজের প্রতি কিছু কর্তব্য পালনের ইচ্ছাকে সম্মান জানিয়েছি।’