প্রতিবেশী-বন্ধুত্ব শব্দগুলো মুছতে বসছেন অমিত শাহ: ওয়াইসি

  যুগান্তর ডেস্ক ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৫:১৭ | অনলাইন সংস্করণ

প্রতিবেশী-বন্ধুত্ব শব্দগুলো মুছতে বসছেন অমিত শাহ: ওয়াইসি
ফাইল ছবি

ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের কড়া সমালোচনা করলেন দেশটির সর্বভারতীয় ইত্তেহাদুল মুসলিমিনের (এআইএমআই) নেতা আসাদুদ্দিন ওয়াইসি।

টুইটারে দেয়া এক পোস্টে উগ্র হিন্দুত্ববাদী অমিত শাহের নীতিকে তিনি চাণক্যের সঙ্গে তুলনা করেছেন। ওয়াইসি বলেন, স্বজনপোষণ করতে গিয়ে প্রতিবেশী ও বন্ধুত্ব শব্দগুলোকেই সম্ভবত অভিধান থেকে মুছতে বসেছেন অমিত শাহ।

ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি ও বার্তা সংস্থা এএফপির খবরে এমন তথ্য জানা গেছে।

সুর আরেক ধাপ চড়িয়ে তিনি বলেন, দেশরক্ষার নামে চাণক্যের ভেদনীতি অবলম্বন করছেন বিজেপি সভাপতি। এই নীতি পালন করতে গিয়ে কখন কার সঙ্গে বন্ধুত্ব রাখবেন; আর কখন কার সঙ্গে বন্ধুত্ব ভাঙবেন; সেটা একটি নোটবইয়ে লিখে রাখা উচিত তার।

ভারতীয় এই প্রবীণ রাজনীতিবিদ বলেন, এমনটা না হলে তিনি নিজেই পুরোটা গুলিয়ে ফেলবেন একসময়। নয়া ভেদনীতি নিয়ে তাকে একটি বই লেখারও অনুরোধ করেন তিনি।

এছাড়া শনিবারেই সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের (সিএএ) বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করবেন বলে জানান এআইএমআই নেতা।

টুইটারে লিখেছেন, সর্বোচ্চ আদালতে নয়া আইনের বিরুদ্ধে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করবেন তিনি। ভারতের বহু ভাষা, ধর্মনিরপেক্ষতা এবং সাংবিধানিক গণতন্ত্র বজায় রাখতে লড়াই জারি রাখবে তার দল।

এদিকে আইনটির বিরুদ্ধে উত্তরপূর্ব ভারতে ব্যাপক বিক্ষোভে ছয় জন নিহত হয়েছেন বলে খবরে জানা গেছে।

বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, তাদের মধ্যে তিনজনই পুলিশের গুলিতে নিহত হয়েছেন। বেশ কয়েকটি অঞ্চলে ইন্টারনেট বিচ্ছিন্ন করে দেয়াসহ কারফিউ জারি করা হয়েছে।

আসামের প্রধান শহর গৌহাটিতে উত্তেজনা অব্যাহতভাবে বেড়েই চলছে।

পাকিস্তান, আফগানিস্তান ও বাংলাদেশের মুসলমান ছাড়া অন্য ধর্মের সংখ্যালঘুদের নাগরিকত্ব দিতে গত বুধবার ভারতীয় পার্লামেন্টে আইনটি পাস করা হয়েছে।

ঘটনাপ্রবাহ : ভারতে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল বিতর্ক

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

 
×