বিক্ষোভকারীদের ওপর দায় চাপাতে দিল্লিতে বাসে আগুন পুলিশের! ভিডিও ভাইরাল
jugantor
বিক্ষোভকারীদের ওপর দায় চাপাতে দিল্লিতে বাসে আগুন পুলিশের! ভিডিও ভাইরাল

  অনলাইন ডেস্ক  

১৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:৪৭:৫৬  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারতে নাগরিকত্ব বিল প্রতিবাদে চলমান আন্দোলন ঠেকানোর নামে বাসে আগুন দেয়ার অভিযোগ উঠেছে দিল্লি পুলিশের বিরুদ্ধে। 

ছবি ও ভিডিওসহ একটি টুইটও করে এই অভিযোগ করেছেন খোদ দিল্লির উপমুখ্যমন্ত্রী মণীশ সিসৌদিয়া। 

এরইমধ্যে সেই ছবি এবং ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। খবর আনন্দবাজার। 

সিসৌদিয়া বলেন, ‘দেখুন এই ছবিগুলো। কারা বাস, গাড়িতে আগুন লাগাচ্ছে। এই ছবিই প্রমাণ করে যে বিজেপি নোংরা রাজনীতি করছে। বিজেপি নেতারা কি এর উত্তর দেবেন?’

তিনি আরও বলেন, ‘দিল্লি পুলিশ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের অধীনে। তারা অমিত শাহকে রিপোর্ট করে। দিল্লিতে বিজেপি বিরোধী আসনে। এবং তারা আম আদমি সরকারের চরম বিরোধী।’

তবে সিসৌদিয়ার এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে দিল্লি পুলিশ। দিল্লি পুলিশের জনসংযোগ কর্মকর্তা এম এস রণধাওয়া বলেন, ‘আগুন বাসের বাইরে জ্বলছিল। পুলিশ সেই আগুন নেভানের চেষ্টা করছিল।’ 

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে রোববার সন্ধ্যায় উত্তাল হয়ে ওঠে দক্ষিণ দিল্লির ফ্রেন্ডস কলোনি এলাকা। পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়। 

সেই সময়ই একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেখানে দেখা যাচ্ছে, কিছু পুলিশ ভাঙচুর হওয়া বাসের মধ্যে পাত্র থেকে কিছু ঢালছেন। ধারণা করা হচ্ছে, পেট্রল জাতীয় কিছু সেখানে ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়েছে। 

দিল্লি পুলিশের এমন কাণ্ডে তীব্র নিন্দা জানিয়েছে সমালোচনা করেছেন নেটিজেনরা।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

বিক্ষোভকারীদের ওপর দায় চাপাতে দিল্লিতে বাসে আগুন পুলিশের! ভিডিও ভাইরাল

 অনলাইন ডেস্ক 
১৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:৪৭ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারতে নাগরিকত্ব বিল প্রতিবাদে চলমান আন্দোলন ঠেকানোর নামে বাসে আগুন দেয়ার অভিযোগ উঠেছে দিল্লি পুলিশের বিরুদ্ধে।

ছবি ও ভিডিওসহ একটি টুইটও করে এই অভিযোগ করেছেন খোদ দিল্লির উপমুখ্যমন্ত্রী মণীশ সিসৌদিয়া।

এরইমধ্যে সেই ছবি এবং ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। খবর আনন্দবাজার।

সিসৌদিয়া বলেন, ‘দেখুন এই ছবিগুলো। কারা বাস, গাড়িতে আগুন লাগাচ্ছে। এই ছবিই প্রমাণ করে যে বিজেপি নোংরা রাজনীতি করছে। বিজেপি নেতারা কি এর উত্তর দেবেন?’

তিনি আরও বলেন, ‘দিল্লি পুলিশ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের অধীনে। তারা অমিত শাহকে রিপোর্ট করে। দিল্লিতে বিজেপি বিরোধী আসনে। এবং তারা আম আদমি সরকারের চরম বিরোধী।’

তবে সিসৌদিয়ার এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে দিল্লি পুলিশ। দিল্লি পুলিশের জনসংযোগ কর্মকর্তা এম এস রণধাওয়া বলেন, ‘আগুন বাসের বাইরে জ্বলছিল। পুলিশ সেই আগুন নেভানের চেষ্টা করছিল।’

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে রোববার সন্ধ্যায় উত্তাল হয়ে ওঠে দক্ষিণ দিল্লির ফ্রেন্ডস কলোনি এলাকা। পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের দফায় দফায় সংঘর্ষ হয়।

সেই সময়ই একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়। সেখানে দেখা যাচ্ছে, কিছু পুলিশ ভাঙচুর হওয়া বাসের মধ্যে পাত্র থেকে কিছু ঢালছেন।ধারণা করা হচ্ছে, পেট্রল জাতীয় কিছু সেখানে ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়েছে।

দিল্লি পুলিশের এমন কাণ্ডে তীব্র নিন্দা জানিয়েছে সমালোচনা করেছেন নেটিজেনরা।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

 

ঘটনাপ্রবাহ : ভারতে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল বিতর্ক