হ্যারি কি ফিরে এলেন রাজপ্রাসাদে?

  যুগান্তর ডেস্ক ১৭ জানুয়ারি ২০২০, ১২:২৮:১৩ | অনলাইন সংস্করণ

ফাইল ফটো

রাজপরিবার ছাড়ার সিদ্ধান্তের পর প্রথম প্রকাশ্যে বাকিংহাম প্রাসাদে দেখা গেল ব্রিটেনে প্রিন্স হ্যারিকে। বেশ হাসিখুশি দেখা গেছে তাকে।

হ্যারি-মেগানের রাজপরিবার ছাড়ার সিদ্ধান্তে হতভম্ব ও হতাশ হয়ে ফিরে এসে তাদের রাজকীয় দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানিয়েছিলেন রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ।

তাই অনেকের ধারণা, রানির সেই আহ্বানে সাড়া দিয়েছেন হ্যারি।

যদিও এ সংক্রান্ত কোনো প্রশ্নের উত্তর দেননি রাজকুমার হ্যারি।

মেগান মার্কেল থেকে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য আসেনি।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, ২০২১ সালের রাগবি লিগ বিশ্বকাপের সূচনা করতে বাকিংহাম প্রাসাদে আসেন রাজকুমার হ্যারি। রাগবি ফুটবল লিগের পৃষ্ঠপোষক তিনি।

আজ রানি দ্বিতীয় এলিজ়াবেথের লনে নেমে শিশুদের সঙ্গে রাগবি খেলায় মেতে ওঠেন হ্যারি। বেশ উচ্ছ্বসিত দেখা গেছে তাকে।

যদিও প্রাসাদে পৌঁছনোর আগে গাড়িতে বেশ গম্ভীর ও কঠিন মুখো হয়েছিলেন তিনি।

সে গম্ভীরতার বিষয়টিও সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ করেছিলেন।

রাজপ্রাসাদে আসার কয়েক ঘণ্টা আগে নিজের মানসিক অবস্থা প্রসঙ্গে একটি ভিডিও প্রকাশ করেন হ্যারি।

অবসাদে ভুগতে থাকা পুরুষদের উদ্দেশে হ্যারি লেখেন– ‘কষ্ট চেপে হাসি দেখানো বন্ধ করুন।’

এদিকে শিশুদের ভিড়ে হাসিখুশি হ্যারিকে পেয়ে ব্রিটেনের সংবাদকর্মীরা তাকে ঘিরে ধরেন। আর রানি, যুবরাজ চার্লস, দাদা উইলিয়াম সম্পর্কে নানা প্রশ্ন ছুড়তে থাকেন।

সিনিয়র রয়্যাল হিসেবে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত বাতিল করলেন কিনা সে প্রশ্নও করা হয়।

এতে ফের গম্ভীর হয়ে যান হ্যারি।

সাংবাদিকদের সেসব প্রশ্নের কোনো জবাব না দিয়েই প্রাসাদের দিকে ফিরে যান।

এদিকে বৃহস্পতিবার প্রকাশ্যে দেখা গিয়েছিল মেগানকে। কানাডার ভ্যাঙ্কুভারে একটি সি-প্লেনে উঠতে দেখা যায় তাকে।

জানা গেছে, জানুয়ারির শেষ সপ্তাহের শুরুতে লন্ডন ছেড়ে ছেলে আর্চি ও স্ত্রী মেগানের কাছে কানাডায় ফিরে যাবেন রাজকুমার হ্যারি।

ঘটনাপ্রবাহ : ব্রিটিশ রাজপরিবারে হ্যারি মেগান সংকট

 

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত