কোনো সময় আত্মহত্যা করতে পারে ফাঁসির ৪ আসামি
jugantor
ভারতে ‘নির্ভয়া’ ধর্ষণ-হত্যা মামলা যে
কোনো সময় আত্মহত্যা করতে পারে ফাঁসির ৪ আসামি

  অনলাইন ডেস্ক  

২৫ জানুয়ারি ২০২০, ১৩:১৯:৩৪  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারতের আলোচিত নির্ভয়া ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত চার আসামি

ভারতের আলোচিত নির্ভয়া ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত চার আসামি যেকোনো সময় আত্মহত্যা করতে পারে বলে আশঙ্কা করছে তিহার জেল কর্তৃপক্ষ।

আর সে কারণে তিহারের অন্য সব বন্দির মধ্যে এখন সবচেয়ে কড়া পাহারায় রয়েছে বিনয় শর্মা, মুকেশ কুমার, পবন গুপ্ত ও অক্ষয় কুমার সিংহ।

ভারতের বৃহত্তম জেল তিহারে বন্দিদের তালিকায় রয়েছে মুম্বাইয়ের আন্ডারওয়ার্ল্ড ডন ছোট রাজন থেকে দিল্লির গ্যাংস্টার নীরজ বাওয়ানা ও বিহারের স্ট্রংম্যান তথা রাজনীতিবিদ মোহাম্মদ শাহাবুদ্দিন।

কিন্তু পাহারার কড়াকড়িতে তাদের সবাইকে ছাপিয়ে গেছে ‘নির্ভয়া’কাণ্ডের চার আসামি।

আগামী ১ ফেব্রুয়ারি এই চারজনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হওয়ার কথা। গত ১৬ জানুয়ারি তাদের তিহারের তিন নম্বর সেলে পাঠানো হয়েছে। এখানেই তাদের ফাঁসিতে ঝোলানো হবে।

এই চারজন আত্মহত্যা করতে পারে বা আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা করতে পারে বলে আশঙ্কা করছে তিহার কর্তৃপক্ষ। এই চারজনের একজনও এ রকম কিছু করে ফেললে তা বিশাল ইস্যু হবে তা জানেন জেল কর্মকর্তারা।

তাই কোনোরকম ঝুঁকি নিতে রাজি নন তারা। ২৪ ঘণ্টা কারারক্ষী ও সিসিটিভির নজরদারিতে রয়েছে চার আসামি।

এর আগে ‘নির্ভয়া’কাণ্ডে আরও এক আসামি রাম সিংহ জেলের শৌচাগারে আত্মহত্যা করেছিলেন। সূত্র: এই সময়।

ভারতে ‘নির্ভয়া’ ধর্ষণ-হত্যা মামলা যে

কোনো সময় আত্মহত্যা করতে পারে ফাঁসির ৪ আসামি

 অনলাইন ডেস্ক 
২৫ জানুয়ারি ২০২০, ০১:১৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ভারতের আলোচিত নির্ভয়া ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত চার আসামি
ভারতের আলোচিত নির্ভয়া ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত চার আসামি। ফাইল ছবি

ভারতের আলোচিত নির্ভয়া ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত চার আসামি যেকোনো সময় আত্মহত্যা করতে পারে বলে আশঙ্কা করছে তিহার জেল কর্তৃপক্ষ।

আর সে কারণে তিহারের অন্য সব বন্দির মধ্যে এখন সবচেয়ে কড়া পাহারায় রয়েছে বিনয় শর্মা, মুকেশ কুমার, পবন গুপ্ত ও অক্ষয় কুমার সিংহ। 

ভারতের বৃহত্তম জেল তিহারে বন্দিদের তালিকায় রয়েছে মুম্বাইয়ের আন্ডারওয়ার্ল্ড ডন ছোট রাজন থেকে দিল্লির গ্যাংস্টার নীরজ বাওয়ানা ও বিহারের স্ট্রংম্যান তথা রাজনীতিবিদ মোহাম্মদ শাহাবুদ্দিন। 

কিন্তু পাহারার কড়াকড়িতে তাদের সবাইকে ছাপিয়ে গেছে ‘নির্ভয়া’কাণ্ডের চার আসামি।

আগামী ১ ফেব্রুয়ারি এই চারজনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হওয়ার কথা। গত ১৬ জানুয়ারি তাদের তিহারের তিন নম্বর সেলে পাঠানো হয়েছে। এখানেই তাদের ফাঁসিতে ঝোলানো হবে।

এই চারজন আত্মহত্যা করতে পারে বা আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা করতে পারে বলে আশঙ্কা করছে তিহার কর্তৃপক্ষ। এই চারজনের একজনও এ রকম কিছু করে ফেললে তা বিশাল ইস্যু হবে তা জানেন জেল কর্মকর্তারা। 

তাই কোনোরকম ঝুঁকি নিতে রাজি নন তারা। ২৪ ঘণ্টা কারারক্ষী ও সিসিটিভির নজরদারিতে রয়েছে চার আসামি। 

এর আগে ‘নির্ভয়া’কাণ্ডে আরও এক আসামি রাম সিংহ জেলের শৌচাগারে আত্মহত্যা করেছিলেন। সূত্র: এই সময়।