এনআরসির বিরোধিতাকারী শিক্ষার্থী ‘বিপজ্জনক বিদ্রোহী’ তকমা বিজেপির, গ্রেফতার করল পুলিশ

  যুগান্তর ডেস্ক ২৯ জানুয়ারি ২০২০, ০০:০৫ | অনলাইন সংস্করণ

তাকে ‘বিপজ্জনক বিদ্রোহী’ তকমা বিজেপির, গ্রেফতার পুলিশের
জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএইচডি গবেষক সিরাজুল ইমাম। ছবি: রয়টার্স

মুসলিমবিদ্বেষী নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিরোধিতায় বিক্ষোভ সংগঠিত করায় এক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করেছে ভারতীয় পুলিশ। এর আগে তার করা বিভিন্ন মন্তব্যকে রাষ্ট্রদ্রোহী বলে আখ্যায়িত করেছে দেশটির ক্ষমতাসীন কট্টর হিন্দুত্ববাদী দল বিজেপি।

রাজধানী নয়াদিল্লিতে ব্যাপক অবস্থান কর্মসূচি আয়োজনে সহায়তা করে দেশজুড়ে পরিচিতি অর্জন করেন সিরাজুল ইমাম নামের ওই শিক্ষার্থী। গত এক মাসেরও বেশি সময় ধরে সারা ভারতে বহু বিক্ষোভ, সমাবেশ ও র‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়েছে এই বৈষম্যপূর্ণ আইনটির বিরুদ্ধে।-খবর রয়টার্সের

ক্ষোভে উত্তাল আসাম অঞ্চলকে সারাদেশ থেকে বিচ্ছিন্ন করার ডাক দিয়ে ভারতীয় জনতা পার্টির জাতীয়তাবাদীদের রোষানলে পড়েছেন ৩১ বছর বয়সী ইতিহাসের এই শিক্ষার্থী। তার এই আহ্বানকে রাষ্ট্রদ্রোহীতার শামিল বলে তুলনা টেনেছেন ক্ষমতাসীনেরা।

গেল সপ্তাহে বিজেপির মুখপাত্র সামবিত পাত্রা তার মন্তব্যকে প্রকাশ্য জিহাদ বলে বর্ণনা করেন। জাতীয় গণমাধ্যম ও ৮ ফেব্রুয়ারিতে নয়াদিল্লিতে নির্বাচনকে সামনে রেখে দলীয় কর্মসূচিতে সিরাজুল ইমামকে বিপজ্জনক বিদ্রোহী বলে চিত্রিত করতে চাচ্ছে মোদি সরকার।

পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য বিহার থেকে আটক হওয়ার কিছুক্ষণ আগে বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে তিনি বলেন, নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভের অংশ হিসেবে তিনি কেবল রেল ও সড়ক যোগাযোগ ব্যাহত করার কথা বলেছিলেন।

জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের এই শিক্ষার্থী বলেন, দিল্লির নির্বাচন সামনে রেখে নেতৃত্বহীন ব্যাপক বিক্ষোভকে উপেক্ষা করতে তার নামে মিথ্যা ছড়াচ্ছে বিজেপি। যেসব শিক্ষিত মুসলমান বিক্ষোভ করছেন, তাদের সুনাম নানাভাবে নষ্ট করতে চাচ্ছেন তারা।

বামপন্থী তৎপরতা ও বিজেপি সরকারের বিরোধিতায় বহু আগ থেকে তার নাম চারদিকে ছড়িয়ে পড়েছিল।

পুলিশ কর্মকর্তা রাজেস দেও বলেন, তিন দিনের তল্লাশির পর বিহারে সিরাজুল ইমামকে পাওয়া গেছে। রাষ্ট্রদ্রোহীতার অভিযোগে বিচারের জন্য তাকে দিল্লি নিয়ে যাওয়া হবে।

এক বিবৃতিতে এই মুসলমান শিক্ষার্থীর আইনজীবী বলেন, তদন্তে তিনি পূর্ণ সহায়তা করছেন।

পার্শ্ববর্তী তিন দেশের অমুসলিম নাগরিকদের দ্রুত নাগরিকত্ব দিতে জাতীয় নাগরিকত্ব আইনটি প্রণয়ন করেছে হিন্দুত্ববাদী মোদি সরকার। যেটাকে মুসলমানদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ও ভারতের ধর্মনিরপেক্ষা সংবিধানের সঙ্গে সাংঘর্ষিক বলে আখ্যায়িত করছেন বিক্ষোভকারীরা।

আধুনিক ভারতের ইতিহাসের ওপর জওহরলাল নেহেরুতে পিএইচডি করছেন সিরাজুল। ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি থেকে কম্পিউটার বিজ্ঞানে স্নাতক করেন তিনি।

ঘটনাপ্রবাহ : ভারতে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল বিতর্ক

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

 
×