১০ দিন পর শুরু হবে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার
jugantor
১০ দিন পর শুরু হবে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৩ মার্চ ২০২০, ১৪:৪৯:১৮  |  অনলাইন সংস্করণ

তালেবানের সঙ্গে স্বাক্ষরিত চুক্তির ভিত্তিতে আগামী ১০ দিন পর আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের কাজ শুরু হবে।

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী মার্ক এসপার সোমবার রাতে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন। তিনি আফগানিস্তানে মোতায়েন মার্কিন বাহিনীর কমান্ডারকে সেনা প্রত্যাহারের প্রাথমিক কাজ শুরু করারও নির্দেশ দিয়েছেন। খবর রয়টার্সের।

এসপার বলেন, আমেরিকা প্রথমে আফগানিস্তানে মোতায়েন সেনা সংখ্যা ৮ হাজার ৬০০ জনে নামিয়ে আনবে। এর পর আফগানিস্তানের নিরাপত্তা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে বিশেষ করে তালেবানের পক্ষ থেকে কোনো সহিংসতা হয় কিনা তা দেখার পর বাকি সেনা প্রত্যাহারের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে ওয়াশিংটন।

প্রায় এক বছরের আলোচনা শেষে গত শনিবার আফগানিস্তানের তালেবানের সঙ্গে শান্তিচুক্তি সই করে আমেরিকা। কাতারের রাজধানী দোহায় অনুষ্ঠিত শান্তিচুক্তিতে আমেরিকার পক্ষে সই করেন বিশেষ মার্কিন প্রতিনিধি জালমাই খালিলজাদ ও তালেবানের অন্যতম উপপ্রধান মোল্লা গনি বারাদার।

১০ দিন পর শুরু হবে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৩ মার্চ ২০২০, ০২:৪৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

তালেবানের সঙ্গে স্বাক্ষরিত চুক্তির ভিত্তিতে আগামী ১০ দিন পর আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের কাজ শুরু হবে।

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী মার্ক এসপার সোমবার রাতে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন। তিনি আফগানিস্তানে মোতায়েন মার্কিন বাহিনীর কমান্ডারকে সেনা প্রত্যাহারের প্রাথমিক কাজ শুরু করারও নির্দেশ দিয়েছেন। খবর রয়টার্সের।

এসপার বলেন, আমেরিকা প্রথমে আফগানিস্তানে মোতায়েন সেনা সংখ্যা ৮ হাজার ৬০০ জনে নামিয়ে আনবে। এর পর আফগানিস্তানের নিরাপত্তা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে বিশেষ করে তালেবানের পক্ষ থেকে কোনো সহিংসতা হয় কিনা তা দেখার পর বাকি সেনা প্রত্যাহারের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে ওয়াশিংটন।

প্রায় এক বছরের আলোচনা শেষে গত শনিবার আফগানিস্তানের তালেবানের সঙ্গে শান্তিচুক্তি সই করে আমেরিকা। কাতারের রাজধানী দোহায় অনুষ্ঠিত শান্তিচুক্তিতে আমেরিকার পক্ষে সই করেন বিশেষ মার্কিন প্রতিনিধি জালমাই খালিলজাদ ও তালেবানের অন্যতম উপপ্রধান মোল্লা গনি বারাদার।

 

ঘটনাপ্রবাহ : মার্কিন-তালেবান শান্তি আলোচনা

আরও খবর