ইসলামাবাদে আলোচিত সেই মন্দিরের নির্মাণ কাজ স্থগিত
jugantor
ইসলামাবাদে আলোচিত সেই মন্দিরের নির্মাণ কাজ স্থগিত

  অনলাইন ডেস্ক  

০৪ জুলাই ২০২০, ২২:০৫:৩৭  |  অনলাইন সংস্করণ

ইসলামাবাদে আলোচিত সেই মন্দিরের নির্মাণ কাজ স্থগিত

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে হিন্দু সম্প্রদায়ের জন্য নির্মাণাধীন আলোচিত সেই মন্দিরের কাজ স্থগিত করে দিয়েছে দেশটির সরকার।

শনিবার ইসলামাবাদের স্থানীয় প্রতিষ্ঠান ‘রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ’ (সিডিএ)-এর পক্ষ থেকে জানানো হয়, মন্দিরটি সরকারের নির্ধারিত অবকাঠামোতে নির্মাণ করা হচ্ছিল না। তাই সিডিএ কর্তৃপক্ষ এর কাজ সাময়িক সময়ের জন্য স্থগিত করে দিয়েছে। খবর জিয়ো নিউজ উর্দুর।

সরকারের মাস্টার প্ল্যান অনুযায়ী অবকাঠামোর অনুমোদন ব্যতীত শহরের কোনো ভবন নির্মাণ করার বৈধতা নেই বলে জানিয়েছেন সিডিএ’র মুখপাত্র।

প্রসঙ্গত, মন্দিরটি সরকারি জমি ও সরকারি অর্থায়নে নির্মিত হচ্ছে বলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে খবর ছড়িয়ে পড়েছে।

জানা যায়, ইসলামাবাদে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় ইমরান খান সরকার ২০১৩ ফুট জায়গাজুড়ে মন্দির নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেয় এবং এর জন্য ১০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে। ইসলামাবাদে এটিই হবে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রথম মন্দির।

যদিও পাকিস্তানের ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে ইতিপূর্বে জানানো হয়েছে, সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের উপাসনালয়ের সংস্কারকাজে সহায়তা করলেও নতুন ভবন নির্মাণ করে দেয়া ধর্ম মন্ত্রণালয়ের কাজ নয়।

পাকিস্তানের প্রসিদ্ধ আলেম মুফতি মুহাম্মদ তাকি উসমানী এবং দেশটির চাঁদ দেখা কমিটির চেয়ারম্যান মাওলানা মুনিবুর রহমানসহ দেশটির একাধিক শীর্ষ আলেম বলেছেন, মুসলিম সরকারের পক্ষ থেকে অমুসলিম সম্প্রদায়ের উপাসনালয়ের সংস্কারকাজে সহায়তা করা বৈধ থাকলেও সরকারি জমিতে ও সরকারি অর্থায়নে অমুসলিম সম্প্রদায়ের জন্য নতুন করে উপাসনালয় নির্মাণ করে দেয়া বৈধ নয়। ইসলাম এ কাজ সমর্থন করে না।

জিয়ো নিউজ উর্দু অবলম্বনে- মুহাম্মদ বিন ওয়াহিদ

ইসলামাবাদে আলোচিত সেই মন্দিরের নির্মাণ কাজ স্থগিত

 অনলাইন ডেস্ক 
০৪ জুলাই ২০২০, ১০:০৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ইসলামাবাদে আলোচিত সেই মন্দিরের নির্মাণ কাজ স্থগিত
ছবি: জিয়ো নিউজ

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে হিন্দু সম্প্রদায়ের জন্য নির্মাণাধীন আলোচিত সেই মন্দিরের কাজ স্থগিত করে দিয়েছে দেশটির সরকার। 

শনিবার ইসলামাবাদের স্থানীয় প্রতিষ্ঠান ‘রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ’ (সিডিএ)-এর পক্ষ থেকে জানানো হয়, মন্দিরটি সরকারের নির্ধারিত অবকাঠামোতে নির্মাণ করা হচ্ছিল না। তাই সিডিএ কর্তৃপক্ষ এর কাজ সাময়িক সময়ের জন্য স্থগিত করে দিয়েছে। খবর জিয়ো নিউজ উর্দুর। 

সরকারের মাস্টার প্ল্যান অনুযায়ী অবকাঠামোর অনুমোদন ব্যতীত শহরের কোনো ভবন নির্মাণ করার বৈধতা নেই বলে জানিয়েছেন সিডিএ’র মুখপাত্র। 

প্রসঙ্গত, মন্দিরটি সরকারি জমি ও সরকারি অর্থায়নে নির্মিত হচ্ছে বলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে খবর ছড়িয়ে পড়েছে। 

জানা যায়, ইসলামাবাদে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় ইমরান খান সরকার ২০১৩ ফুট জায়গাজুড়ে মন্দির নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেয় এবং এর জন্য ১০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছে। ইসলামাবাদে এটিই হবে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রথম মন্দির। 

যদিও পাকিস্তানের ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে ইতিপূর্বে জানানো হয়েছে, সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের উপাসনালয়ের সংস্কারকাজে সহায়তা করলেও নতুন ভবন নির্মাণ করে দেয়া ধর্ম মন্ত্রণালয়ের কাজ নয়। 

পাকিস্তানের প্রসিদ্ধ আলেম মুফতি মুহাম্মদ তাকি উসমানী এবং দেশটির চাঁদ দেখা কমিটির চেয়ারম্যান মাওলানা মুনিবুর রহমানসহ দেশটির একাধিক শীর্ষ আলেম বলেছেন, মুসলিম সরকারের পক্ষ থেকে অমুসলিম সম্প্রদায়ের উপাসনালয়ের সংস্কারকাজে সহায়তা করা বৈধ থাকলেও সরকারি জমিতে ও সরকারি অর্থায়নে অমুসলিম সম্প্রদায়ের জন্য নতুন করে উপাসনালয় নির্মাণ করে দেয়া বৈধ নয়। ইসলাম এ কাজ সমর্থন করে না।

 

জিয়ো নিউজ উর্দু অবলম্বনে- মুহাম্মদ বিন ওয়াহিদ

 
আরও খবর