কুয়েতে নতুন আইন অনুমোদন, বিপাকে ৮ লাখ ভারতীয়

  অনলাইন ডেস্ক ০৭ জুলাই ২০২০, ১৩:১১:৫০ | অনলাইন সংস্করণ

কুয়েতে ভারতীয় দূতাবাস। ফাইল ছবি

অভিবাসীর সংখ্যা কমাতে নতুন আইন করতে যাচ্ছে কুয়েত। সম্প্রতি দেশটির ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলি কমিটি একটি সংরক্ষণ বিলের খসড়ায় অনুমোদন দিয়েছে। বিলটি আইন হিসেবে পাস হলে কুয়েত ছাড়তে হবে অন্তত ৮ লাখ ভারতীয়কে।

কুয়েতের স্থানীয় গণমাধ্যমের বরাতে এ তথ্য জানিয়েছে কলকাতার আনন্দবাজার পত্রিকা।

ওই বিলের বিলের প্রস্তাব অনুযায়ী, দেশের মোট জনসংখ্যার মাত্র ১৫ শতাংশ ভারতীয় কুয়েতে থাকতে পারবেন। অন্যান্যদের ছাড়তে হবে কুয়েত। তবে দেশটির নতুন আইনে শুধু ভারতীয় না অন্যান্য দেশের প্রবাসীদেরও কুয়েত ছাড়তে হবে।

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের কারণে দেশটিতে তেলের ব্যবসায় ধস নেমেছে। সেইসঙ্গে দেশটিতে প্রবাসীদের মধ্যে করোনার সংক্রমণ হু হু করে বাড়ছে।

এই পরিস্থিতিতে গত মাসেই কুয়েতের প্রধানমন্ত্রী শেখ সাবা আল খালিদ আল সাবা প্রবাসীদের পরিমাণ ৭০ থেকে ৩০ শতাংশে নামিয়ে আনার প্রস্তাব দেন।

কুয়েতের জনসংখ্যা ৪৩ লক্ষের কাছাকাছি। তার মধ্যে মাত্র ১৩ লক্ষ দেশের নাগরিক। বাকি ৩০ লক্ষই প্রবাসী! প্রবাসীদের মধ্যে সবচেয়ে বড় অংশ হলো ভারতীয়েরা।

কুয়েতে ভারতীয় দূতাবাস জানিয়েছে, অন্তত ২৮ হাজার ভারতীয় এখানে সরকারি চাকরি করেন। তবে তাদের বাইরে একটা বড় অংশ বেসরকারি ক্ষেত্রেও কর্মরত। দেশের ২৩টি ভারতীয় স্কুলে ৬০ হাজার ভারতীয় ছাত্রছাত্রী পড়াশোনা করে।

কুয়েতে ৪৯ হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত। তাদের একটা বড় অংশ বিদেশি শ্রমিক।

কুয়েত ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির স্পিকার মারজুক আল-ঘানেমের বলেন, কুয়েতের ৩০ লাখ প্রবাসীর মধ্যে ১০ লাখেরও বেশি নিরক্ষর। শ্রমিকের কাজ করতে এসেছেন। ডাক্তার বা দক্ষ কর্মচারীদের আমরা জায়গা দিতে পারি। কিন্তু এত বিপুল অদক্ষ কর্মচারীর প্রয়োজন নেই আমাদের দেশে।

ঘটনাপ্রবাহ : ছড়িয়ে পড়ছে করোনাভাইরাস

আরও

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত