দক্ষিণ আফ্রিকাকে হুশিয়ার করলেন ডব্লিউএইচও
jugantor
দক্ষিণ আফ্রিকাকে হুশিয়ার করলেন ডব্লিউএইচও

  শওকত বিন আশরাফ, দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে  

২২ জুলাই ২০২০, ২০:১১:৩২  |  অনলাইন সংস্করণ

দক্ষিণ আফ্রিকায় করোনাভাইরাস সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় দেশটিতে মহামারী প্রতিরোধে আরও সর্তক নজরদারি ও চিকিৎসা ব্যবস্হা বাড়ানোর জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গনাইজেশন।

দক্ষিণ আফ্রিকায় সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়ে বর্তমানে বিশ্বে ৫ম স্থানে উঠে আসায় ডব্লিউএইচও আশংকা ও উদ্বেগ উৎকণ্ঠা প্রকাশ করে বলেছে, দক্ষিণ আফ্রিকার সরকার যদি লকডাউন আইন আরও কঠিন এবং নজরদারি বৃদ্ধি না করে তাহলে মহামারী ভয়াবহ আকার ধারণ করবে।

ডব্লিউএইচও বলেছে, মহাদেশের অন্যান্য দেশ বোতসোয়ানা, কেনিয়া, নামিবিয়া, জাম্বিয়া এবং জিম্বাবুয়ে, লেসোথোতেও গত সপ্তাহের তুলনায় চলতি সপ্তাহে উল্লেখযোগ্য হারে সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে। তাই দক্ষিণ আফ্রিকার আরও বেশি সর্তক না আগামীতে কঠিন পরিস্থিতি হবে।

ডব্লিউএইচওর বিশেষজ্ঞ মাইক রায়ান একটি সংবাদ সম্মেলনে সোমবার এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, আফ্রিকা মহাদেশের মধ্যে সবচেয়ে সংক্রমণের শীর্ষে রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা।

এমন কি আশপাশের দেশগুলোতেও সংক্রমণ খুবই নগণ্য। দক্ষিণ আফ্রিকা দুর্ভাগ্যক্রমে ইউরোপ আমেরিকার পূর্বসূরি হতে পারে, আফ্রিকার অন্য অংশগুলোতে কি ঘটবে সে সম্পর্কে দক্ষিণ আফ্রিকা একটি সতর্কতা হতে পারে। সুতরাং আমি মনে করি এটি কেবল দক্ষিণ আফ্রিকার জন্য হুমকি নয়, গোটা আফ্রিকার জন্য হুমকি। সুতরাং দক্ষিণ আফ্রিকাকে আরও বেশি সর্তক এবং সব বিষয়ে আরও গুরুত্বের সঙ্গে কাজ করতে হবে।
 

দক্ষিণ আফ্রিকাকে হুশিয়ার করলেন ডব্লিউএইচও

 শওকত বিন আশরাফ, দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে 
২২ জুলাই ২০২০, ০৮:১১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

দক্ষিণ আফ্রিকায় করোনাভাইরাস সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় দেশটিতে মহামারী প্রতিরোধে আরও সর্তক নজরদারি ও চিকিৎসা ব্যবস্হা বাড়ানোর জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গনাইজেশন।

দক্ষিণ আফ্রিকায় সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়ে বর্তমানে বিশ্বে ৫ম স্থানে উঠে আসায় ডব্লিউএইচও আশংকা ও উদ্বেগ উৎকণ্ঠা প্রকাশ করে বলেছে, দক্ষিণ আফ্রিকার সরকার যদি লকডাউন আইন আরও কঠিন এবং নজরদারি বৃদ্ধি না করে তাহলে মহামারী ভয়াবহ আকার ধারণ করবে।

ডব্লিউএইচও বলেছে, মহাদেশের অন্যান্য দেশ বোতসোয়ানা, কেনিয়া, নামিবিয়া, জাম্বিয়া এবং জিম্বাবুয়ে, লেসোথোতেও গত সপ্তাহের তুলনায় চলতি সপ্তাহে উল্লেখযোগ্য হারে সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে। তাই দক্ষিণ আফ্রিকার আরও বেশি সর্তক না আগামীতে কঠিন পরিস্থিতি হবে।

ডব্লিউএইচওর বিশেষজ্ঞ মাইক রায়ান একটি সংবাদ সম্মেলনে সোমবার এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, আফ্রিকা মহাদেশের মধ্যে সবচেয়ে সংক্রমণের শীর্ষে রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা।

এমন কি আশপাশের দেশগুলোতেও সংক্রমণ খুবই নগণ্য। দক্ষিণ আফ্রিকা দুর্ভাগ্যক্রমে ইউরোপ আমেরিকার পূর্বসূরি হতে পারে, আফ্রিকার অন্য অংশগুলোতে কি ঘটবে সে সম্পর্কে দক্ষিণ আফ্রিকা একটি সতর্কতা হতে পারে। সুতরাং আমি মনে করি এটি কেবল দক্ষিণ আফ্রিকার জন্য হুমকি নয়, গোটা আফ্রিকার জন্য হুমকি। সুতরাং দক্ষিণ আফ্রিকাকে আরও বেশি সর্তক এবং সব বিষয়ে আরও গুরুত্বের সঙ্গে কাজ করতে হবে।