মধ্যপ্রাচ্যে প্রথম পরমাণু স্থাপনা চালু করল আমিরাত 
jugantor
মধ্যপ্রাচ্যে প্রথম পরমাণু স্থাপনা চালু করল আমিরাত 

  অনলাইন ডেস্ক  

০২ আগস্ট ২০২০, ২০:১১:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর মধ্যে সর্ব প্রথম পরমাণু স্থাপনা চালু করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

তেলসমৃদ্ধএ দেশটি শনিবার ঘোষণা করেছে, তারা বারাকা পরমাণু বিদ্যুৎস্থাপনা চালু করেছে।আরব বিশ্বে এটি প্রথম পরমাণু বিদ্যুৎ স্থাপনা।খবর আল জাজিরার।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের বারাকা পরমাণু বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রথম পরমাণু চুল্লি সফলতার সঙ্গে চালু হয়েছে বলে টুইটার পোস্টে জানিয়েছেন আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা- আইএইএতে নিযুক্ত সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রতিনিধি হামাদ আলকাবি।

টুইটার পোস্টে তিনি বলেন, নতুন ধরনের পরিষ্কার জ্বালানি পাওয়ার ক্ষেত্রে জাতির জন্য এটি একটি ঐতিহাসিক মাইলফলক।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রধানমন্ত্রী এবং দুবাইয়ের শাসক শেখ মোহাম্মদ বিন রশিদ আল-মাখতুম অন্য এক টুইটার বার্তায় বলেন, বারাকা বিদ্যুৎ স্থাপনার কাজ সফলতা সঙ্গে শেষ হয়েছে। জ্বালানি এবং টেকসই উন্নয়নের ক্ষেত্রে ঐতিহাসিক এই অর্জনের জন্য তিনি সংশ্লিষ্ট সবাইকে অভিনন্দন জানান।

বারাকা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের চুল্লিতে গত ফেব্রুয়ারিতে পরমাণু রড ভরার কাজ শুরু করেছিল আমিরাত।

মধ্যপ্রাচ্যে প্রথম পরমাণু স্থাপনা চালু করল আমিরাত 

 অনলাইন ডেস্ক 
০২ আগস্ট ২০২০, ০৮:১১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর মধ্যে সর্ব প্রথম পরমাণু স্থাপনা চালু করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

তেলসমৃদ্ধ এ দেশটি শনিবার ঘোষণা করেছে, তারা বারাকা পরমাণু বিদ্যুৎস্থাপনা চালু করেছে।আরব বিশ্বে এটি প্রথম পরমাণু বিদ্যুৎ স্থাপনা।খবর আল জাজিরার।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের বারাকা পরমাণু বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রথম পরমাণু চুল্লি সফলতার সঙ্গে চালু হয়েছে বলে টুইটার পোস্টে জানিয়েছেন আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা- আইএইএতে নিযুক্ত সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রতিনিধি হামাদ আলকাবি।

টুইটার পোস্টে তিনি বলেন, নতুন ধরনের পরিষ্কার জ্বালানি পাওয়ার ক্ষেত্রে জাতির জন্য এটি একটি ঐতিহাসিক মাইলফলক।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রধানমন্ত্রী এবং দুবাইয়ের শাসক শেখ মোহাম্মদ বিন রশিদ আল-মাখতুম অন্য এক টুইটার বার্তায় বলেন, বারাকা বিদ্যুৎ স্থাপনার কাজ সফলতা সঙ্গে শেষ হয়েছে। জ্বালানি এবং টেকসই উন্নয়নের ক্ষেত্রে ঐতিহাসিক এই অর্জনের জন্য তিনি সংশ্লিষ্ট সবাইকে অভিনন্দন জানান।

বারাকা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের চুল্লিতে গত ফেব্রুয়ারিতে পরমাণু রড ভরার কাজ শুরু করেছিল আমিরাত।