সিরিয়ায় জঙ্গিদের পৃষ্ঠপোষক আমেরিকা: আসাদ
jugantor
সিরিয়ায় জঙ্গিদের পৃষ্ঠপোষক আমেরিকা: আসাদ

  অনলাইন ডেস্ক  

১৩ আগস্ট ২০২০, ১২:৫৩:৪৫  |  অনলাইন সংস্করণ

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ বলেছেন, মার্কিন সরকার নিজের অশুভ স্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য মধ্যপ্রাচ্যে সন্ত্রাসীদের লেলিয়ে দিয়েছে এবং সিরিয়ায় জঙ্গিদের পৃষ্ঠপোষকতা করছে।

সিরিয়ার নবনির্বাচিত পার্লামেন্টের উদ্বোধনী অধিবেশনে বুধবার ভাষণ দিতে গিয়ে তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, মধ্যপ্রাচ্যে আমেরিকার সন্ত্রাসীদের প্রয়োজন, যাদের শীর্ষে রয়েছে আইএস। খবর আলজাজিরা ও আনাদোলুর।


বিশ্বের ইতিহাসের সবচেয়ে বর্বর সন্ত্রাসীগোষ্ঠী আইএসের উত্থান হয় ২০১৪ সালে। ওই বছর মার্কিনিরা সিরিয়া ও তার প্রতিবেশী দেশ ইরাকের বিস্তীর্ণ অঞ্চল আইএসকে দখল করে দেয়।

এর তিন বছর পর সিরিয়া ও তার মিত্ররা এই জঘন্য সন্ত্রাসীগোষ্ঠীকে পরাজিত করে। আমেরিকা ও তার আঞ্চলিক মিত্ররা প্রেসিডেন্ট আসাদকে ক্ষমতাচ্যুত করার লক্ষ্যে আইএসকে লেলিয়ে দিয়েছিল।

প্রেসিডেন্ট আসাদ তার ভাষণে আরও বলেন, সম্প্রতি আমেরিকা দামেস্কের ওপর যে নিষেধাজ্ঞা চাপিয়ে দিয়েছে, তার উদ্দেশ্য সন্ত্রাসীদের সমর্থন করা।

গত ১৭ জুন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সিরিয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ সংক্রান্ত ‘সিজার’ আইনে স্বাক্ষর করেন। ওই আইনে বলা হয়েছে, পৃথিবীর যে কোনো প্রান্তের যে কোনো মানুষ সিরিয়ার অর্থনৈতিক কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করলেই তার বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হবে। 

তবে প্রেসিডেন্ট আসাদ বলেন, নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে তার সরকারের নীতিতে পরিবর্তন আনা যাবে না।
 

সিরিয়ায় জঙ্গিদের পৃষ্ঠপোষক আমেরিকা: আসাদ

 অনলাইন ডেস্ক 
১৩ আগস্ট ২০২০, ১২:৫৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ বলেছেন, মার্কিন সরকার নিজের অশুভ স্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য মধ্যপ্রাচ্যে সন্ত্রাসীদের লেলিয়ে দিয়েছে এবং সিরিয়ায় জঙ্গিদের পৃষ্ঠপোষকতা করছে।

সিরিয়ার নবনির্বাচিত পার্লামেন্টের উদ্বোধনী অধিবেশনে বুধবার ভাষণ দিতে গিয়ে তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, মধ্যপ্রাচ্যে আমেরিকার সন্ত্রাসীদের প্রয়োজন, যাদের শীর্ষে রয়েছে আইএস। খবর আলজাজিরা ও আনাদোলুর।


বিশ্বের ইতিহাসের সবচেয়ে বর্বর সন্ত্রাসীগোষ্ঠী আইএসের উত্থান হয় ২০১৪ সালে। ওই বছর মার্কিনিরা সিরিয়া ও তার প্রতিবেশী দেশ ইরাকের বিস্তীর্ণ অঞ্চল আইএসকে দখল করে দেয়।

এর তিন বছর পর সিরিয়া ও তার মিত্ররা এই জঘন্য সন্ত্রাসীগোষ্ঠীকে পরাজিত করে। আমেরিকা ও তার আঞ্চলিক মিত্ররা প্রেসিডেন্ট আসাদকে ক্ষমতাচ্যুত করার লক্ষ্যে আইএসকে লেলিয়ে দিয়েছিল।

প্রেসিডেন্ট আসাদ তার ভাষণে আরও বলেন, সম্প্রতি আমেরিকা দামেস্কের ওপর যে নিষেধাজ্ঞা চাপিয়ে দিয়েছে, তার উদ্দেশ্য সন্ত্রাসীদের সমর্থন করা।

গত ১৭ জুন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সিরিয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ সংক্রান্ত ‘সিজার’ আইনে স্বাক্ষর করেন। ওই আইনে বলা হয়েছে, পৃথিবীর যে কোনো প্রান্তের যে কোনো মানুষ সিরিয়ার অর্থনৈতিক কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করলেই তার বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হবে।

তবে প্রেসিডেন্ট আসাদ বলেন, নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে তার সরকারের নীতিতে পরিবর্তন আনা যাবে না।

 

ঘটনাপ্রবাহ : সিরিয়া যুদ্ধ