যুক্তরাষ্ট্রকে সতর্ক করে তাইওয়ান প্রণালীতে সামরিক মহড়া চীনের
jugantor
যুক্তরাষ্ট্রকে সতর্ক করে তাইওয়ান প্রণালীতে সামরিক মহড়া চীনের

  অনলাইন ডেস্ক  

১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৮:৩৬:৪৪  |  অনলাইন সংস্করণ

চীনের সামরিক মহড়া

তাইওয়ান প্রণালীতে সামরিক মহড়া চালিয়েছে চীন।তাইওয়ানে যখন মার্কিন উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তা সফরে গেছেন ঠিক সে সময়ই এই মহড়া দিয়েছে বেইজিং। নিজেদের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করতেই এই মহড়া চালানো হয়েছে বলে দাবি চীনের। খবর বিবিসির।

যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের মধ্যে তীব্র উত্তেজনা চলছে।তাইওয়ানকে ঘিরে দুই দেশেরে সম্পর্ক আগুনে ঘি ঢালার মতো অবস্থা। যুক্তরাষ্ট্রের কূটনীতি তাইওয়ানের পক্ষাবলম্বন করায় উত্তেজনা আরও বেড়েছে।

চীন স্বশাসিত তাইওয়ানকে একটি বিচ্ছিন্ন প্রদেশ হিসেবে মনে করে। তাইপে স্বাধীন হওয়ার চেষ্টা করলে প্রয়োজনে শক্তি প্রয়োগেরও হুমকি দিয়ে রেখেছে তারা।

তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েনের সঙ্গে বৈঠক করতে তিনদিনের সফর তাইপেতে এসেছেন মার্কিন অর্থনীতি বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি কেইথ ক্রাচ। এছাড়া নানা বিষয়ে আলোচনা হওয়ার কথা রয়েছে।

চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বিবৃতিতে জানান, যুক্তরাষ্ট্র-তাইওয়ানের ঘণিষ্ঠ সম্পর্কের কারণে এই অঞ্চলে উত্তেজনা সৃষ্টির মূল কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। যারা আগুন নিয়ে খেলছে তারাই সেই আগুনে পুড়বে বলে আমেরিকাকে ইঙ্গিত করে সতর্ক করেছে বেইজিং।

সাম্প্রতিক মাসগুলোতে তাইওয়ান প্রণালীতে মার্কিন যুদ্ধজাহাজের আনাগোনাও বাড়ছে।

যুক্তরাষ্ট্রকে সতর্ক করে তাইওয়ান প্রণালীতে সামরিক মহড়া চীনের

 অনলাইন ডেস্ক 
১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬:৩৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
চীনের সামরিক মহড়া
চীনের সামরিক মহড়া। ছবি: বিবিসি

তাইওয়ান প্রণালীতে সামরিক মহড়া চালিয়েছে চীন। তাইওয়ানে যখন মার্কিন উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তা সফরে গেছেন ঠিক সে সময়ই এই মহড়া দিয়েছে বেইজিং।  নিজেদের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করতেই এই মহড়া চালানো হয়েছে বলে দাবি চীনের। খবর বিবিসির। 

যুক্তরাষ্ট্র ও  চীনের মধ্যে তীব্র উত্তেজনা চলছে। তাইওয়ানকে ঘিরে দুই দেশেরে সম্পর্ক আগুনে ঘি ঢালার মতো অবস্থা।  যুক্তরাষ্ট্রের কূটনীতি তাইওয়ানের পক্ষাবলম্বন করায় উত্তেজনা আরও বেড়েছে। 

চীন স্বশাসিত তাইওয়ানকে একটি বিচ্ছিন্ন প্রদেশ হিসেবে মনে করে।  তাইপে স্বাধীন হওয়ার চেষ্টা করলে প্রয়োজনে শক্তি প্রয়োগেরও হুমকি দিয়ে রেখেছে তারা।

তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েনের সঙ্গে বৈঠক করতে তিনদিনের সফর তাইপেতে এসেছেন মার্কিন অর্থনীতি বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি কেইথ ক্রাচ। এছাড়া নানা বিষয়ে আলোচনা হওয়ার কথা রয়েছে।

চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বিবৃতিতে জানান, যুক্তরাষ্ট্র-তাইওয়ানের ঘণিষ্ঠ সম্পর্কের কারণে এই অঞ্চলে উত্তেজনা সৃষ্টির মূল কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। যারা আগুন নিয়ে খেলছে তারাই সেই আগুনে পুড়বে বলে আমেরিকাকে ইঙ্গিত করে সতর্ক করেছে বেইজিং।

সাম্প্রতিক মাসগুলোতে তাইওয়ান প্রণালীতে মার্কিন যুদ্ধজাহাজের আনাগোনাও বাড়ছে।