ইসরাইলকে খুশি করতে নতুন বাণিজ্য কৌশলে বাহরাইন!
jugantor
ইসরাইলকে খুশি করতে নতুন বাণিজ্য কৌশলে বাহরাইন!

  অনলাইন ডেস্ক  

১৩ অক্টোবর ২০২০, ২১:৫৯:০৩  |  অনলাইন সংস্করণ

ইসরাইল ও বাহরাইন

ইসরাইলের সঙ্গে সমুদ্রপথে সরাসরি বাণিজ্য বাড়াতে তৎপর হয়েছে বাহরাইন। ইহুদি রাষ্ট্র তেল আবিবের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণের পরই বাণিজ্য বাড়াতে পরিকল্পনা নেয় এ ক্ষুদ্র আরব রাষ্ট্রটি।

মঙ্গলবার ইসরাইলি ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের বরাত দিয়ে তুর্কি সংবাদমাধ্যম ইয়েনি শাফাকের প্রতিবেদনে জানানো হয়, প্রথম বাহরাইনি কার্গো জাহাজ খলিফা বিন সালমান বন্দর থেকে হাফিয়া বন্দরে উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে।

ব্যক্তিগত শিপিং কোম্পানি এমএসসি ইসরাইলের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এডিন সিমকিন জানিয়েছেন, বাহরাইনের কর্মকর্তারা সমুদ্রপথে যোগাযোগ বৃদ্ধিতে ইসরাইলের সহযোগিতার জন্য আগ্রহ দেখাচ্ছেন।

ইসরাইলি ওই সংবাদ মাধ্যমটির বরাত দিয়ে বলা হয়, তেল আবিবের পক্ষ থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাত, সৌদি আরব এবং জর্ডানের সঙ্গে হাফিয়া বন্দরের রেলপথ সংযোগ নির্মাণের জন্য আলোচনা করা হয়েছে।

তবে এ বিষয়ে বাহরাইনের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

এদিকে সোমবার প্রথম আমিরাতি পণ্যবাহী জাহাজ লোহা, অগ্নিনির্বাপক ব্যবস্থা এবং ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী নিয়ে ইসরাইলের হাফিয়া বন্দরে পৌঁছেছে।

ইসরাইলকে খুশি করতে নতুন বাণিজ্য কৌশলে বাহরাইন!

 অনলাইন ডেস্ক 
১৩ অক্টোবর ২০২০, ০৯:৫৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ইসরাইল ও বাহরাইন
ফাইল ছবি

 ইসরাইলের সঙ্গে সমুদ্রপথে সরাসরি বাণিজ্য বাড়াতে তৎপর হয়েছে বাহরাইন। ইহুদি রাষ্ট্র তেল আবিবের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণের পরই বাণিজ্য বাড়াতে পরিকল্পনা নেয় এ ক্ষুদ্র আরব রাষ্ট্রটি।  

মঙ্গলবার ইসরাইলি ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের বরাত দিয়ে তুর্কি সংবাদমাধ্যম ইয়েনি শাফাকের প্রতিবেদনে জানানো হয়,  প্রথম বাহরাইনি কার্গো জাহাজ খলিফা বিন সালমান বন্দর থেকে হাফিয়া বন্দরে উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে।  

ব্যক্তিগত শিপিং কোম্পানি এমএসসি ইসরাইলের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এডিন সিমকিন জানিয়েছেন, বাহরাইনের কর্মকর্তারা সমুদ্রপথে যোগাযোগ বৃদ্ধিতে ইসরাইলের সহযোগিতার জন্য আগ্রহ দেখাচ্ছেন।

ইসরাইলি ওই সংবাদ মাধ্যমটির বরাত দিয়ে বলা হয়, তেল আবিবের পক্ষ থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাত, সৌদি আরব এবং জর্ডানের সঙ্গে হাফিয়া বন্দরের রেলপথ সংযোগ নির্মাণের জন্য আলোচনা করা হয়েছে।  

তবে এ বিষয়ে বাহরাইনের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

এদিকে সোমবার প্রথম আমিরাতি পণ্যবাহী জাহাজ লোহা, অগ্নিনির্বাপক ব্যবস্থা এবং ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী নিয়ে ইসরাইলের হাফিয়া বন্দরে পৌঁছেছে।

 

ঘটনাপ্রবাহ : আরব আমিরাত-ইসরাইল সম্পর্ক