সৌদি রিয়ালে কাশ্মীরের মানচিত্র নিয়ে ক্ষুব্ধ ভারত
jugantor
সৌদি রিয়ালে কাশ্মীরের মানচিত্র নিয়ে ক্ষুব্ধ ভারত

  অনলাইন ডেস্ক  

৩১ অক্টোবর ২০২০, ১০:৫৯:৫৪  |  অনলাইন সংস্করণ

সৌদি রিয়ালে কাশ্মীরের মানচিত্র নিয়ে ক্ষুব্ধ ভারত

উন্নত ও উন্নয়নশীল দেশ-অঞ্চলসমূহের জোট গ্রুপ অব টুয়েন্টির সভাপতিত্বের স্মারক হিসেবে ২০ রিয়ালের একটি নতুন নোট চালু করেছে সৌদি আরব। যাতে অধিকৃত কাশ্মীরকে ভারত ও পাকিস্তান থেকে আলাদা একটি স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে দেখানো হচ্ছে।

মিডল ইস্ট আইয়ের খবরে বলা হয়েছে, সৌদি আরবের মুদ্রা কর্তৃপক্ষ গত সপ্তাহে এই ব্যাংকনোট প্রকাশ করেছে। এতে একপাশে বাদশাহ সালমানের ছবি, সৌদি জি২০ সম্মেলনের লোগো এবং অপরপাশে শৈল্পিকভাবে আঁকা একটি বৈশ্বিক মানচিত্র ছাপা হয়েছে।

এতে জম্মু ও কাশ্মীরকে ভারত থেকে আলাদা একটি অঞ্চল হিসেবে দেখানো হয়েছে। এ ঘটনায় ভারত ক্ষোভ প্রকাশ করলেও কাশ্মীরিসহ অন্যরা আনন্দ প্রকাশ করেছেন।

দাতব্য সংস্থা ওয়ার্ল্ড কাশ্মীর অ্যাওয়ারনেসের প্রধান গুলাম নবী মীর বলেন, কাশ্মীরিরা এই মানচিত্রকে স্বাগত জানিয়েছে। এছাড়া যারা কাশ্মীরি জনগণের প্রতি সহানুভূতি সম্পন্ন, তারাও খুশি হয়েছেন।

তিনি বলেন, কাশ্মীরের সঙ্গে সংহতি দেখিয়েছে সৌদি আরব। এতে আমরা খুশি। আমাদের প্রত্যাশা, তারা এই অবস্থান থেকে সরে যাবেন না। কাশ্মীরে দখলদারিত্ব ও উপনিবেশ স্থাপন করেছে ভারত।

কাশ্মীর প্রসঙ্গে সৌদি আরবই প্রথম এমন কোনো পদক্ষেপ নিয়েছে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

তবে ভুলভাবে উপস্থাপন ও বিকৃতির অভিযোগ তুলে ভারতীয় সরকারের মুখপাত্র অনুরাগ শ্রীভাস্তভা বলেন, এই ব্যাংকনোট নিয়ে ভারত মারাত্মক উদ্বেগ জানিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সৌদি ব্যাংকনোটে ভারতের বাহ্যিক ভূখণ্ডগত সীমানাকে ভুলভাবে তুলে ধরা হয়েছে বলে আমরা ধরে নিচ্ছি। এ প্রসঙ্গে জরুরি সংশোধনমূলক পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে সৌদি আরবকে।


সৌদি রিয়ালে কাশ্মীরের মানচিত্র নিয়ে ক্ষুব্ধ ভারত

 অনলাইন ডেস্ক 
৩১ অক্টোবর ২০২০, ১০:৫৯ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ
সৌদি রিয়ালে কাশ্মীরের মানচিত্র নিয়ে ক্ষুব্ধ ভারত
ছবি: মিডল ইস্ট আইয়ের

উন্নত ও উন্নয়নশীল দেশ-অঞ্চলসমূহের জোট গ্রুপ অব টুয়েন্টির সভাপতিত্বের স্মারক হিসেবে ২০ রিয়ালের একটি নতুন নোট চালু করেছে সৌদি আরব। যাতে অধিকৃত কাশ্মীরকে ভারত ও পাকিস্তান থেকে আলাদা একটি স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে দেখানো হচ্ছে।

মিডল ইস্ট আইয়ের খবরে বলা হয়েছে, সৌদি আরবের মুদ্রা কর্তৃপক্ষ গত সপ্তাহে এই ব্যাংকনোট প্রকাশ করেছে। এতে একপাশে বাদশাহ সালমানের ছবি, সৌদি জি২০ সম্মেলনের লোগো এবং অপরপাশে শৈল্পিকভাবে আঁকা একটি বৈশ্বিক মানচিত্র ছাপা হয়েছে।

এতে জম্মু ও কাশ্মীরকে ভারত থেকে আলাদা একটি অঞ্চল হিসেবে দেখানো হয়েছে। এ ঘটনায় ভারত ক্ষোভ প্রকাশ করলেও কাশ্মীরিসহ অন্যরা আনন্দ প্রকাশ করেছেন।

দাতব্য সংস্থা ওয়ার্ল্ড কাশ্মীর অ্যাওয়ারনেসের প্রধান গুলাম নবী মীর বলেন, কাশ্মীরিরা এই মানচিত্রকে স্বাগত জানিয়েছে। এছাড়া যারা কাশ্মীরি জনগণের প্রতি সহানুভূতি সম্পন্ন, তারাও খুশি হয়েছেন।

তিনি বলেন, কাশ্মীরের সঙ্গে সংহতি দেখিয়েছে সৌদি আরব। এতে আমরা খুশি। আমাদের প্রত্যাশা, তারা এই অবস্থান থেকে সরে যাবেন না। কাশ্মীরে দখলদারিত্ব ও উপনিবেশ স্থাপন করেছে ভারত।

কাশ্মীর প্রসঙ্গে সৌদি আরবই প্রথম এমন কোনো পদক্ষেপ নিয়েছে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

তবে ভুলভাবে উপস্থাপন ও বিকৃতির অভিযোগ তুলে ভারতীয় সরকারের মুখপাত্র অনুরাগ শ্রীভাস্তভা বলেন, এই ব্যাংকনোট নিয়ে ভারত মারাত্মক উদ্বেগ জানিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সৌদি ব্যাংকনোটে ভারতের বাহ্যিক ভূখণ্ডগত সীমানাকে ভুলভাবে তুলে ধরা হয়েছে বলে আমরা ধরে নিচ্ছি। এ প্রসঙ্গে জরুরি সংশোধনমূলক পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে সৌদি আরবকে।


 

 

ঘটনাপ্রবাহ : কাশ্মীর সংকট