জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তার হুমকি হলে দাঁতভাঙা জবাব দেবে ইরান
jugantor
জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তার হুমকি হলে দাঁতভাঙা জবাব দেবে ইরান

  যুগান্তর ডেস্ক  

২২ নভেম্বর ২০২০, ১৯:২৭:৫৮  |  অনলাইন সংস্করণ

জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তার হুমকি হলে দাঁতভাঙা জবাব দেবে ইরান

হোয়াইট হাউজে যে ব্যক্তিই বসুক না কেন ইরানি জাতির অধিকারের প্রতি সম্মান দেখানো ছাড়া তার সামনে ভিন্ন কোনো পথ নেই বলে হুশিয়ার করে দিয়েছে ইরান।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবযাদেহ বলেছেন, ইরান নিজের নিরাপত্তা ইস্যুতে কারো সঙ্গে আপোষ করবে না।

ইরানের কাছে জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। যেখানেই জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তা হুমকির মুখে পড়বে সেখানেই দাঁতভাঙা জবাব দেয়া হবে।

রোববার তেহরানে এক সংবাদ সম্মেলনে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র এসব কথা বলেন। খবর ইরনার।

যুক্তরাষ্ট্রের সর্বোচ্চ চাপ প্রয়োগের নীতি ব্যর্থতায় পরিণত হয়েছে মন্তব্য করে খাতিবযাদেহ আরও বলেন, মার্কিন সরকার তার ব্যর্থ নীতি আর অব্যাহত রাখতে পারবে না।

এর আগে ইরান জানিয়েছিল, নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আরোপিত নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করলে তারা নিজ থেকেই পরমাণু চুক্তির অঙ্গীকারে ফিরে আসবে।

তেহরানে সরকার পরিচালিত ইরান ডেইলিতে প্রকাশিত এক মন্তব্যে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মদ জাভেদ জারিফ বলেছেন, কোনো আলোচনা ও শর্ত ছাড়াই ইরান নিজ থেকেই পরমাণু চুক্তির অঙ্গীকারে ফিরে আসবে।

জারিফ বাইডেনকে পররাষ্ট্র বিষয়ে অভিজ্ঞ এবং তাকে ৩০ বছর ধরে চেনেন উল্লেখ করে বলেন, হোয়াইট হাউসে আসার পর বাইডেন তিনটি নির্বাহী আদেশের মাধ্যমে সব নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে পারেন।

বাইডেন প্রশাসন তাই করলে ইরান শিগগিরই পরমাণু চুক্তিতে ফিরবে বলে তিনি জানান।

জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তার হুমকি হলে দাঁতভাঙা জবাব দেবে ইরান

 যুগান্তর ডেস্ক 
২২ নভেম্বর ২০২০, ০৭:২৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তার হুমকি হলে দাঁতভাঙা জবাব দেবে ইরান
ছবি: আনাদোলু এজেন্সি

হোয়াইট হাউজে যে ব্যক্তিই বসুক না কেন ইরানি জাতির অধিকারের প্রতি সম্মান দেখানো ছাড়া তার সামনে ভিন্ন কোনো পথ নেই বলে হুশিয়ার করে দিয়েছে ইরান। 

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবযাদেহ বলেছেন, ইরান নিজের নিরাপত্তা ইস্যুতে কারো সঙ্গে আপোষ করবে না। 

ইরানের কাছে জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। যেখানেই জাতীয় স্বার্থ ও নিরাপত্তা হুমকির মুখে পড়বে সেখানেই দাঁতভাঙা জবাব দেয়া হবে।

রোববার তেহরানে এক সংবাদ সম্মেলনে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র এসব কথা বলেন। খবর ইরনার। 

যুক্তরাষ্ট্রের সর্বোচ্চ চাপ প্রয়োগের নীতি ব্যর্থতায় পরিণত হয়েছে মন্তব্য করে খাতিবযাদেহ আরও বলেন, মার্কিন সরকার তার ব্যর্থ নীতি আর অব্যাহত রাখতে পারবে না।

এর আগে ইরান জানিয়েছিল, নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আরোপিত নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করলে তারা নিজ থেকেই পরমাণু চুক্তির অঙ্গীকারে ফিরে আসবে। 

তেহরানে সরকার পরিচালিত ইরান ডেইলিতে প্রকাশিত এক মন্তব্যে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মদ জাভেদ জারিফ বলেছেন, কোনো আলোচনা ও শর্ত ছাড়াই ইরান নিজ থেকেই পরমাণু চুক্তির অঙ্গীকারে ফিরে আসবে।

জারিফ বাইডেনকে পররাষ্ট্র বিষয়ে অভিজ্ঞ এবং তাকে ৩০ বছর ধরে চেনেন উল্লেখ করে বলেন, হোয়াইট হাউসে আসার পর বাইডেন তিনটি নির্বাহী আদেশের মাধ্যমে সব নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে পারেন।

বাইডেন প্রশাসন তাই করলে ইরান শিগগিরই পরমাণু চুক্তিতে ফিরবে বলে তিনি জানান।

 
আরও খবর