ভারত সফর বাতিল করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী
jugantor
ভারত সফর বাতিল করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৫ জানুয়ারি ২০২১, ২০:১৪:১১  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারত সফর বাতিল করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

নতুন ধরনের করোনাভাইরাসের বিস্তারের কারণে ভারত সফর বাতিল করেছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকতে পারবেন না তিনি।

হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, সফর বাতিলের কথা জানিয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে কথা বলেছেন বরিস। এ জন্য দুঃখপ্রকাশ করেছেন তিনি।

ডাউনিং স্ট্রিটের মুখপাত্র বলেন, প্রধানমন্ত্রী মোদির সঙ্গে কথা বলেছেন বরিস। চলতি মাসের শেষের দিকে ভারতে সফরে যেতে পারবেন না বলে দুঃখপ্রকাশ করেছেন তিনি।

করোনাভাইরাসের বিস্তারের কারণে যুক্তরাজ্যজুড়ে আবারও লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে বলে জানান মুখপাত্র।

তিনি জানান, গতরাতে আবারও লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। দ্রুত হারে নতুন প্রজাতির করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে। এমন পরিস্থিতিতে অভ্যন্তরীণ পরিস্থিতির ওপর নজর রাখতে ব্রিটেনে থাকতে চান জনসন। যা অত্যন্ত ব্রিটেনের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

২৬ জানুয়ারি ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছিলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী।

ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর বলেছিলেন, প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে বরিস জনসনের উপস্থিতি নতুন যুগ এবং ভারত-যুক্তরাজ্য সম্পর্কের নতুন পর্যায়ের প্রতীক হয়ে উঠবে।

নির্ধারিত ওই সফরে দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলা নিয়ে আলোচনার কথা ছিল।

ভারত সফর বাতিল করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৫ জানুয়ারি ২০২১, ০৮:১৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ভারত সফর বাতিল করলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী
ছবি: সংগৃহীত

নতুন ধরনের করোনাভাইরাসের বিস্তারের কারণে ভারত সফর বাতিল করেছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন। ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকতে পারবেন না তিনি।  

হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, সফর বাতিলের কথা জানিয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে কথা বলেছেন বরিস। এ জন্য দুঃখপ্রকাশ করেছেন তিনি। 

ডাউনিং স্ট্রিটের মুখপাত্র বলেন, প্রধানমন্ত্রী মোদির সঙ্গে কথা বলেছেন বরিস। চলতি মাসের শেষের দিকে ভারতে সফরে যেতে পারবেন না বলে দুঃখপ্রকাশ করেছেন তিনি।

করোনাভাইরাসের বিস্তারের কারণে যুক্তরাজ্যজুড়ে আবারও লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে বলে জানান মুখপাত্র। 

তিনি জানান, গতরাতে আবারও লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। দ্রুত হারে নতুন প্রজাতির করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে। এমন পরিস্থিতিতে অভ্যন্তরীণ পরিস্থিতির ওপর নজর রাখতে ব্রিটেনে থাকতে চান জনসন। যা অত্যন্ত ব্রিটেনের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

২৬ জানুয়ারি ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার আমন্ত্রণ গ্রহণ করেছিলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী। 

ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর বলেছিলেন, প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে বরিস জনসনের উপস্থিতি নতুন যুগ এবং ভারত-যুক্তরাজ্য সম্পর্কের নতুন পর্যায়ের প্রতীক হয়ে উঠবে।

নির্ধারিত ওই সফরে দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলা নিয়ে আলোচনার কথা ছিল।