ভয়াবহ তুষারঝড়ের কবলে স্পেন
jugantor
ভয়াবহ তুষারঝড়ের কবলে স্পেন

  অনলাইন ডেস্ক  

১০ জানুয়ারি ২০২১, ১৯:৫৩:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

তুষার ঝড়

ভয়াবহ তুষারঝড়ের কবলে পড়েছে স্পেন। শনিবার মধ্যস্পেনে আঘাত হেনেছিল স্টর্ম ফিলোমেনা নামের ঝড়টি। কয়েক দশকের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ ঝড় ছিল এটি। ঝড়টির তাণ্ডবে এখন পর্যন্ত চারজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

তুষারঝড়ের কারণে দেশটিতে সড়ক, রেলপথ ও ফ্লাইট চলাচল বাধার সম্মুখীন হয়। দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ফার্নান্দো গ্র্যান্ডে-মার্লাস্কা বলেছেন, গত ৫০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে তীব্র ঝড়ের মুখোমুখি হয়েছে।

বিবিসি জানিয়েছে, তুষারপাতে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা মাদ্রিদ। পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আট ইঞ্চি বরফ দেখতে পাওয়া যাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

শুক্রবার বিকাল থেকে মাদ্রিদে তুষার ঝড় শুরু হয়। এ সময় সড়কে যানবহন চলছিল। সেগুলো রাজধানীর কাছেই দাঁড় করানো হয়।

বারাজাস বিমানবন্দর বন্ধের পাশাপাশি অনেক সড়ক বন্ধ করে দেওয়া হয়। এছাড়া মাদ্রিদের সঙ্গে সব ট্রেন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়।

আবহাওয়াবিদরা সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, আগামী কয়েক দিন তাপমাত্রা মাইনাস ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নামতে পারে। এই পরিস্থিতিতে তুষার বরফে রূপান্তরিত হতে পারে ও ক্ষতিগ্রস্ত গাছ পড়ে যেতে পারে।

রোববার যোগাযোগমন্ত্রী হোসে লুইস আবালস জানিয়েছেন, মধ্যস্পেনের প্রায় ২০ হাজার কিলোমিটার সড়ক ঝড়ের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ওই সব এলাকায় আটকে পড়া মানুষদের জন্য সরকার খাদ্য ও করোনার টিকা পাঠাবে।

ভয়াবহ তুষারঝড়ের কবলে স্পেন

 অনলাইন ডেস্ক 
১০ জানুয়ারি ২০২১, ০৭:৫৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
তুষার ঝড়
ছবি: বিবিসি

ভয়াবহ তুষারঝড়ের কবলে পড়েছে স্পেন। শনিবার মধ্যস্পেনে আঘাত হেনেছিল স্টর্ম ফিলোমেনা নামের ঝড়টি। কয়েক দশকের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ ঝড় ছিল এটি। ঝড়টির তাণ্ডবে এখন পর্যন্ত চারজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

তুষারঝড়ের কারণে দেশটিতে সড়ক, রেলপথ ও ফ্লাইট চলাচল বাধার সম্মুখীন হয়। দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ফার্নান্দো গ্র্যান্ডে-মার্লাস্কা বলেছেন, গত ৫০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে তীব্র ঝড়ের মুখোমুখি হয়েছে। 

বিবিসি জানিয়েছে, তুষারপাতে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা মাদ্রিদ। পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আট ইঞ্চি বরফ দেখতে পাওয়া যাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। 

শুক্রবার বিকাল থেকে মাদ্রিদে তুষার ঝড় শুরু হয়। এ সময় সড়কে যানবহন চলছিল। সেগুলো রাজধানীর কাছেই দাঁড় করানো হয়।  

বারাজাস বিমানবন্দর বন্ধের পাশাপাশি অনেক সড়ক বন্ধ করে দেওয়া হয়। এছাড়া মাদ্রিদের সঙ্গে সব ট্রেন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। 

আবহাওয়াবিদরা সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন,  আগামী কয়েক দিন তাপমাত্রা মাইনাস ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নামতে পারে। এই পরিস্থিতিতে তুষার বরফে রূপান্তরিত হতে পারে ও ক্ষতিগ্রস্ত গাছ পড়ে যেতে পারে।

রোববার যোগাযোগমন্ত্রী হোসে লুইস আবালস জানিয়েছেন, মধ্যস্পেনের প্রায় ২০ হাজার কিলোমিটার সড়ক ঝড়ের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ওই সব এলাকায় আটকে পড়া মানুষদের জন্য সরকার খাদ্য ও করোনার টিকা পাঠাবে।