বরফে পরিণত কাশ্মীরের ডাল লেক, ৩০ বছরে শীতলতম রাত
jugantor
বরফে পরিণত কাশ্মীরের ডাল লেক, ৩০ বছরে শীতলতম রাত

  অনলাইন ডেস্ক  

১৪ জানুয়ারি ২০২১, ২০:০৫:০৬  |  অনলাইন সংস্করণ

কাশ্মীর

কাশ্মীর শ্রীনগরে ৩০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে মারাত্মক শৈত্য প্রবাহ বয়ে যাওয়ায় অঞ্চলটির মূল শহর আগের রাতে প্রত্যক্ষ করেছে ৩০ বছরের মধ্যে শীতলতম রাত। এদিন শৈত্য প্রবাহের কারণে উপত্যকাটির ঐতিহ্যবাহী ডাল লেক বরফে পরিণত হয়।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১৯৯১ সালে শ্রীনগরে তাপমাত্রা মাইনাস ১১.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে পৌঁছায়। আর বুধবার রাতে সেখানকার তাপমাত্রা নেমে যায় মাইনাস ৮.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।

এর আগে এ উপত্যকায় ১৮৯৩ সালে শ্রীনগরের তাপমাত্রা মাইনাস ১৪.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে আসে। এছাড়া ১৯৯৫ সালে একবার সেখানকার তাপমাত্রা মাইনাস ১১.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নামে।

ভিডিওতে দেখা গেছে, বরফ হওয়া ডাল লেকে ক্রিকেট খেলছে কয়েক তরুণ। এছাড়া বরফের মধ্যে নৌকা চালাতে দেখা যাচ্ছে এক বৃদ্ধ ও তরুণকে। তারা বরফ কেটে নৌকা চালানোর চেষ্টা করছেন।

বৃহস্পতিবার শ্রীনগরের ডাল লেক বরফে পরিণত হওয়ার পাশাপাশি উপত্যকার বাকি অংশেও বয়ে যাচ্ছে তীব্র শৈত্য প্রবাহ।

এদিকে উত্তর কাশ্মিরের কুপওয়ারায় মাইনাস ৬.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে। আর কোকারনাগে রেকর্ড হয়েছে ১০.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

তীব্র শীতের কারণে সেখানে সরবরাহ লাইন বরফে পরিণত হওয়ায় বিঘ্নিত হচ্ছে পানি সরবরাহ। উপত্যকার বিভিন্ন সড়কে জমে যাচ্ছে বরফের স্তর। ফলে গাড়ি চালাতে গিয়ে সমস্যায় পড়ছেন চালকরা।

বরফে পরিণত কাশ্মীরের ডাল লেক, ৩০ বছরে শীতলতম রাত

 অনলাইন ডেস্ক 
১৪ জানুয়ারি ২০২১, ০৮:০৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
কাশ্মীর
ডাল লেক। ছবি: এনডিটিভি

কাশ্মীর শ্রীনগরে ৩০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে মারাত্মক শৈত্য প্রবাহ বয়ে যাওয়ায় অঞ্চলটির মূল শহর আগের রাতে প্রত্যক্ষ করেছে ৩০ বছরের মধ্যে শীতলতম রাত।  এদিন শৈত্য প্রবাহের কারণে উপত্যকাটির ঐতিহ্যবাহী ডাল লেক বরফে পরিণত হয়।  

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১৯৯১ সালে শ্রীনগরে তাপমাত্রা মাইনাস ১১.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে পৌঁছায়। আর বুধবার রাতে সেখানকার তাপমাত্রা নেমে যায় মাইনাস ৮.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। 

এর আগে এ উপত্যকায় ১৮৯৩ সালে শ্রীনগরের তাপমাত্রা মাইনাস ১৪.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে আসে। এছাড়া ১৯৯৫ সালে একবার সেখানকার তাপমাত্রা মাইনাস ১১.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নামে।

ভিডিওতে দেখা গেছে, বরফ হওয়া ডাল লেকে ক্রিকেট খেলছে কয়েক তরুণ। এছাড়া বরফের মধ্যে নৌকা চালাতে দেখা যাচ্ছে এক বৃদ্ধ ও তরুণকে। তারা বরফ কেটে নৌকা চালানোর চেষ্টা করছেন। 

বৃহস্পতিবার শ্রীনগরের ডাল লেক বরফে পরিণত হওয়ার পাশাপাশি উপত্যকার বাকি অংশেও বয়ে যাচ্ছে তীব্র শৈত্য প্রবাহ। 

এদিকে উত্তর কাশ্মিরের কুপওয়ারায় মাইনাস ৬.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে। আর কোকারনাগে রেকর্ড হয়েছে ১০.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

তীব্র শীতের কারণে সেখানে সরবরাহ লাইন বরফে পরিণত হওয়ায় বিঘ্নিত হচ্ছে পানি সরবরাহ। উপত্যকার বিভিন্ন সড়কে জমে যাচ্ছে বরফের স্তর। ফলে গাড়ি চালাতে গিয়ে সমস্যায় পড়ছেন চালকরা।