পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে মাত্র কয়েক মাস লাগবে ইরানের: ব্লিঙ্কেন
jugantor
পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে মাত্র কয়েক মাস লাগবে ইরানের: ব্লিঙ্কেন

  অনলাইন ডেস্ক  

০২ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১০:৪৫:২৬  |  অনলাইন সংস্করণ

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্থনি ব্লিঙ্কেন দাবি করেছেন, মাত্র কয়েক মাসেই পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে সক্ষম ইরান। এ কারণে আবারও তার দেশকে ইরানের পরমাণু সমঝোতায় ফিরিয়ে আনার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

এনবিসি টেলিভিশনকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ব্লিঙ্কেন এ সব কথা বলেন। তিনি বলেন, ইরান যদি পরমাণু সমঝোতায় দেয়া প্রতিশ্রুতিতে ফিরে আসে তবে ওয়াশিংটনও একই কাজ করতে প্রস্তুত রয়েছে।

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দাবি করেন, একটি পরমাণু বোমা তৈরির প্রয়োজনীয় উপাদান উৎপাদন করা থেকে ইরান মাত্র কয়েক মাস দূরে রয়েছে। খবর এনবিসির।

আমেরিকার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এমন সময় এ দাবি করলেন যখন ইরান শুরু থেকেই পরমাণু অস্ত্র তৈরির চেষ্টা চালানোর অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে এসেছে।

ইরান বহুবার বলেছে, বেসামরিক কাজে ব্যবহার করার উদ্দেশ্যে সেদেশের পরমাণু কর্মসূচি পরিচালিত হচ্ছে। আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থাও অনেকবার ইরানের এ বক্তব্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছে।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার শাসনামলে ইরানের সঙ্গে আরও পাঁচ দেশকে সঙ্গে নিয়ে পরমাণু সমঝোতা সই করে আমেরিকা।

কিন্তু পরবর্তী প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ২০১৮ সালের মে মাসে সে সমঝোতা থেকে বেআইনিভাবে আমেরিকাকে বের করে নেন।

বর্তমান প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন নির্বাচনি প্রচারের সময় ওই সমঝোতায় ফিরে আসার প্রতিশ্রুতি দিলেও এখন ইরানের জন্য ভিত্তিহীন পূর্বশর্ত আরোপ করার চেষ্টা করছেন।

পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে মাত্র কয়েক মাস লাগবে ইরানের: ব্লিঙ্কেন

 অনলাইন ডেস্ক 
০২ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১০:৪৫ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্থনি ব্লিঙ্কেন দাবি করেছেন, মাত্র কয়েক মাসেই পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে সক্ষম ইরান। এ কারণে আবারও তার দেশকে ইরানের পরমাণু সমঝোতায় ফিরিয়ে আনার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

এনবিসি টেলিভিশনকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ব্লিঙ্কেন এ সব কথা বলেন।  তিনি বলেন, ইরান যদি পরমাণু সমঝোতায় দেয়া প্রতিশ্রুতিতে ফিরে আসে তবে ওয়াশিংটনও একই কাজ করতে প্রস্তুত রয়েছে।

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দাবি করেন, একটি পরমাণু বোমা তৈরির প্রয়োজনীয় উপাদান উৎপাদন করা থেকে ইরান মাত্র কয়েক মাস দূরে রয়েছে। খবর এনবিসির।

আমেরিকার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এমন সময় এ দাবি করলেন যখন ইরান শুরু থেকেই পরমাণু অস্ত্র তৈরির চেষ্টা চালানোর অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে এসেছে।

ইরান বহুবার বলেছে, বেসামরিক কাজে ব্যবহার করার উদ্দেশ্যে সেদেশের পরমাণু কর্মসূচি পরিচালিত হচ্ছে। আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থাও অনেকবার ইরানের এ বক্তব্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছে।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার শাসনামলে ইরানের সঙ্গে আরও পাঁচ দেশকে সঙ্গে নিয়ে পরমাণু সমঝোতা সই করে আমেরিকা।

কিন্তু পরবর্তী প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ২০১৮ সালের মে মাসে সে সমঝোতা থেকে বেআইনিভাবে আমেরিকাকে বের করে নেন।

বর্তমান প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন নির্বাচনি প্রচারের সময় ওই সমঝোতায় ফিরে আসার প্রতিশ্রুতি দিলেও এখন ইরানের জন্য ভিত্তিহীন পূর্বশর্ত আরোপ করার চেষ্টা করছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ইরাকে মার্কিন-ইরান ছায়াযুদ্ধ

১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২১