নিঃসঙ্গতা থেকে আত্মহত্যা ঠেকাতে জাপানে মন্ত্রী নিয়োগ
jugantor
নিঃসঙ্গতা থেকে আত্মহত্যা ঠেকাতে জাপানে মন্ত্রী নিয়োগ

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৩:০৭:২০  |  অনলাইন সংস্করণ

নিঃসঙ্গতা থেকে আত্মহত্যা ঠেকাতে জাপানে মন্ত্রী নিয়োগ

করোনাভাইরাসে ঘরবন্দি মানুষের নিঃসঙ্গতা বাড়তে থাকায় তাদের মধ্যে যেন আত্মহত্যা প্রবণতা ভর না করে, সে জন্য এ বিষয়ে একজন মন্ত্রী নিয়োগ দিয়েছে জাপান। গত ১১ বছরের মধ্যে গত বছর করোনাকালে দেশটিতে রেকর্ডসংখ্যক মানুষ আত্মহত্যা করে।

এমতাবস্থায় চলতি মাসের শুরুতে দেশটির আঞ্চলিক অর্থনীতি পুনরুজ্জীবনের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী তেৎসুশি সাকামোতোকে একাকীত্ব বা নিঃসঙ্গতাবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়। জাপান টাইমসের বরাত দিয়ে এই খবর দিয়েছে টাইমস অব ইন্ডিয়া।

করোনাভাইরাসের দিনগুলোতে জাপানে মানসিক স্বাস্থ্যব্যবস্থা ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। করোনার মৃত্যুর তুলনায় যেটি প্রায় ১০ গুণ বেশি।

২০২০ সালে এক বছরে যে সংখ্যক আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে, তা গত ১১ বছরের রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে।

নতুন দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রীকে তাই জনসাধারণের নিঃসঙ্গতা কাটিয়ে ওঠার উপায় খুঁজে বের করতে বলা হয়েছে। এর আগে ২০১৮ সালে যুক্তরাজ্যে একাকিত্ব মন্ত্রী নিয়োগ দেওয়া হয়।

অতিরিক্ত দায়িত্ব পাওয়ার পর এক সংবাদ সম্মেলনে জাপানের একাকীত্ব মন্ত্রী সাকামোতো বলেন, মানুষ সংকটকালীন অবস্থায় আগের চেয়ে অনেক বেশি অসহায় বোধ করছেন। ফলে সাহায্য যাদের প্রয়োজন, তাদের দিকে সাহায্যের হাত প্রসারিত করে পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হবে।

নতুন মন্ত্রীর উদ্দেশে জাপানের প্রধানমন্ত্রী সুগা বলেছেন, বিশেষ করে নারীরা নিঃসঙ্গতায় ভুগছেন এবং আত্মহত্যার হার বৃদ্ধি পাচ্ছে। আমি চাই আপনি বিষয়টি পরীক্ষা করে দেখুন এবং একটি বিস্তৃত কৌশল বের করে আনুন।

জাপানে আত্মহত্যার হার অন্য অনেক দেশের তুলনায় এমনিতেই বেশি। মহামারি শুরুর পর এই প্রবণতা আরও বেড়েছে।


নিঃসঙ্গতা থেকে আত্মহত্যা ঠেকাতে জাপানে মন্ত্রী নিয়োগ

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০১:০৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
নিঃসঙ্গতা থেকে আত্মহত্যা ঠেকাতে জাপানে মন্ত্রী নিয়োগ
ছবি: সংগৃহীত

করোনাভাইরাসে ঘরবন্দি মানুষের নিঃসঙ্গতা বাড়তে থাকায় তাদের মধ্যে যেন আত্মহত্যা প্রবণতা ভর না করে, সে জন্য এ বিষয়ে একজন মন্ত্রী নিয়োগ দিয়েছে জাপান।  গত ১১ বছরের মধ্যে গত বছর করোনাকালে দেশটিতে রেকর্ডসংখ্যক মানুষ  আত্মহত্যা করে।

এমতাবস্থায় চলতি মাসের শুরুতে দেশটির আঞ্চলিক অর্থনীতি পুনরুজ্জীবনের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী তেৎসুশি সাকামোতোকে একাকীত্ব বা নিঃসঙ্গতাবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়।  জাপান টাইমসের বরাত দিয়ে এই খবর দিয়েছে টাইমস অব ইন্ডিয়া।

করোনাভাইরাসের দিনগুলোতে জাপানে মানসিক স্বাস্থ্যব্যবস্থা ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে।  করোনার মৃত্যুর তুলনায় যেটি প্রায় ১০ গুণ বেশি। 

২০২০ সালে এক বছরে যে সংখ্যক আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে, তা গত ১১ বছরের রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে।

নতুন দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রীকে তাই জনসাধারণের নিঃসঙ্গতা কাটিয়ে ওঠার উপায় খুঁজে বের করতে বলা হয়েছে।  এর আগে ২০১৮ সালে যুক্তরাজ্যে একাকিত্ব মন্ত্রী নিয়োগ দেওয়া হয়। 

অতিরিক্ত দায়িত্ব পাওয়ার পর এক সংবাদ সম্মেলনে জাপানের একাকীত্ব মন্ত্রী সাকামোতো বলেন, মানুষ সংকটকালীন অবস্থায় আগের চেয়ে অনেক বেশি অসহায় বোধ করছেন। ফলে সাহায্য যাদের প্রয়োজন, তাদের দিকে সাহায্যের হাত প্রসারিত করে পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হবে।  

নতুন মন্ত্রীর উদ্দেশে জাপানের প্রধানমন্ত্রী সুগা বলেছেন, বিশেষ করে নারীরা নিঃসঙ্গতায় ভুগছেন এবং আত্মহত্যার হার বৃদ্ধি পাচ্ছে। আমি চাই আপনি বিষয়টি পরীক্ষা করে দেখুন এবং একটি বিস্তৃত কৌশল বের করে আনুন।

জাপানে আত্মহত্যার হার অন্য অনেক দেশের তুলনায় এমনিতেই বেশি। মহামারি শুরুর পর এই প্রবণতা আরও বেড়েছে।


 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন