সীমান্তে হত্যাকাণ্ডকে দুঃখজনক বললেন জয়শঙ্কর
jugantor
সীমান্তে হত্যাকাণ্ডকে দুঃখজনক বললেন জয়শঙ্কর

  অনলাইন ডেস্ক  

০৪ মার্চ ২০২১, ১৫:৪৬:৪৩  |  অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে সংঘটিত হত্যাকাণ্ডের প্রকৃত কারণ অনুসন্ধান ও সমস্যার বাস্তব সমাধানে কাজ করার কথা বলেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর।

তিনি বলেন, আমরা বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেছি। আমরা একমত হয়েছি, প্রতিটি হত্যাকাণ্ডই দুঃখজনক। কিন্তু আমরা নিজেদের প্রশ্ন করেছি, সমস্যার মূল কারণ কি? এবং এটি হচ্ছে অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড।

তিনি বলেন, আমাদের দুপক্ষের লক্ষ্য হওয়া উচিত অপরাধবিহীন সীমান্ত, যাতে করে হত্যাকাণ্ড না হয়। আমার ধারণা—আমরা দুপক্ষ এই সমস্যার সমাধান করতে পারব।

ঢাকায় পৌঁছানোর পর বৃহস্পতিবার সকালে পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠক করেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। পরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কথাকে উদ্ধৃত করে তিনি বলেন, কানেক্টিভিটি হচ্ছে উৎপাদনশীলতা। যদি আমরা বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে কানেক্টিভিটি ঠিক রাখতে পারি, তবে এই অঞ্চলের সামগ্রিক ভূ-অর্থনীতিতে পরিবর্তন আসবে। এ ক্ষেত্রে বঙ্গোপসাগর খুব কার্যকর। আমরা দুপক্ষই বিশ্বাস করি এটি করা সম্ভব।’

অভিন্ন নদীর পানি বণ্টন নিয়ে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, পানি নিয়ে ভারত সরকারের অবস্থানের কোনো পরিবর্তন হয়নি। এটি নিয়ে আলোচনা হয়েছে। শিগগিরই পানি সচিব পর্যায়ের বৈঠক হবে।

জয়শঙ্কর বলেন আরও বলেন, সফরের অনেকগুলো উদ্দেশ্য রয়েছে- প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সফর উপলক্ষ্যে আমি এসেছি। করোনার প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার পর, এটি হবে তার প্রথম বিদেশ সফর।

সীমান্তে হত্যাকাণ্ডকে দুঃখজনক বললেন জয়শঙ্কর

 অনলাইন ডেস্ক 
০৪ মার্চ ২০২১, ০৩:৪৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে সংঘটিত হত্যাকাণ্ডের প্রকৃত কারণ অনুসন্ধান ও সমস্যার বাস্তব সমাধানে কাজ করার কথা বলেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর।

তিনি বলেন, আমরা বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেছি। আমরা একমত হয়েছি, প্রতিটি হত্যাকাণ্ডই দুঃখজনক। কিন্তু আমরা নিজেদের প্রশ্ন করেছি, সমস্যার মূল কারণ কি? এবং এটি হচ্ছে অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড।

তিনি বলেন, আমাদের দুপক্ষের লক্ষ্য হওয়া উচিত অপরাধবিহীন সীমান্ত, যাতে করে হত্যাকাণ্ড না হয়। আমার ধারণা—আমরা দুপক্ষ এই সমস্যার সমাধান করতে পারব।

ঢাকায় পৌঁছানোর পর বৃহস্পতিবার সকালে পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠক করেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। পরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কথাকে উদ্ধৃত করে তিনি বলেন, কানেক্টিভিটি হচ্ছে উৎপাদনশীলতা। যদি আমরা বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে কানেক্টিভিটি ঠিক রাখতে পারি, তবে এই অঞ্চলের সামগ্রিক ভূ-অর্থনীতিতে পরিবর্তন আসবে। এ ক্ষেত্রে বঙ্গোপসাগর খুব কার্যকর। আমরা দুপক্ষই বিশ্বাস করি এটি করা সম্ভব।’

অভিন্ন নদীর পানি বণ্টন নিয়ে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, পানি নিয়ে ভারত সরকারের অবস্থানের কোনো পরিবর্তন হয়নি। এটি নিয়ে আলোচনা হয়েছে। শিগগিরই পানি সচিব পর্যায়ের বৈঠক হবে।

জয়শঙ্কর বলেন আরও বলেন, সফরের অনেকগুলো উদ্দেশ্য রয়েছে- প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সফর উপলক্ষ্যে আমি এসেছি। করোনার প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার পর, এটি হবে তার প্রথম বিদেশ সফর।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন