পোপের সফরের পর ইরাকে গুম-হত্যা বেড়েছে
jugantor
পোপের সফরের পর ইরাকে গুম-হত্যা বেড়েছে

  অনলাইন ডেস্ক  

২০ মার্চ ২০২১, ১৩:২০:০৯  |  অনলাইন সংস্করণ

শান্তির বার্তা নিয়ে সম্প্রতি পোপ ফ্রান্সিসের ইরাক সফর করার পর থেকে দেশটিতে আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে গেছে গুম, অপহরণ ও হত্যাকাণ্ডের মতো অপরাধ।

এ মাসের প্রথম সপ্তাহে প্রথমবারের মতো ইরাকের মাটিতে পা রাখেন ক্যাথলিক খ্রিষ্টানদের সর্বোচ্চ ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস। খবর আরব নিউজের।

২০১৩ সালে পোপ হিসেবে অভিষিক্ত হওয়ার পর এটিই তার সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ সফর। তিনি বলেন, দীর্ঘদিন ধরে দেশটিকে দুর্ভোগের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে। যে কারণে দায়িত্বের তাড়ায় তিনি এই প্রতীকী সফর করেছেন।

বিভিন্ন শিয়া সংগঠন এবং আইএস জঙ্গিগোষ্ঠী পোপের সফরের পরই তাদের হামলা বাড়িয়ে দেয়।

৮৪ বছর বয়সী এই পোপের সফরের আগে ইরাকে মার্কিন সেনাদের অবস্থান করা বিমানঘাঁটিতে রকেট নিক্ষেপ ও আত্মঘাতী হামলার ঘটনা ঘটেছে।

করোনাভাইরাস মহামারির কারণে দীর্ঘদিন কোনো সফরে বের হননি তিনি। ২০১৯ সালের নভেম্বরের পর ইতালির বাইরে তিনি সম্প্রতি মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটিতে সফরে যান।

এই সফরে জনসমক্ষে দেওয়া প্রথম ভাষণে তিনি বলেন, অবশ্যই সহিংসতা, উগ্রপন্থা, সংঘাত ও অসহিষ্ণুতার অবসান ঘটাতে হবে। ইরাকের নাগরিক হিসেবে পূর্ণ অধিকার, স্বাধীনতা ও দায়িত্বশীলতার সঙ্গে জনজীবনে খ্রিষ্টানদের আরও ভূমিকা রাখতে তিনি আহ্বান জানান।

পোপের সফরের পর ইরাকে গুম-হত্যা বেড়েছে

 অনলাইন ডেস্ক 
২০ মার্চ ২০২১, ০১:২০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

শান্তির বার্তা নিয়ে সম্প্রতি পোপ ফ্রান্সিসের ইরাক সফর করার পর থেকে দেশটিতে আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে গেছে গুম, অপহরণ ও হত্যাকাণ্ডের মতো অপরাধ।  

এ মাসের প্রথম সপ্তাহে প্রথমবারের মতো ইরাকের মাটিতে পা রাখেন ক্যাথলিক খ্রিষ্টানদের সর্বোচ্চ ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস। খবর আরব নিউজের।

২০১৩ সালে পোপ হিসেবে অভিষিক্ত হওয়ার পর এটিই তার সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ সফর। তিনি বলেন, দীর্ঘদিন ধরে দেশটিকে দুর্ভোগের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে। যে কারণে দায়িত্বের তাড়ায় তিনি এই প্রতীকী সফর করেছেন।

বিভিন্ন শিয়া সংগঠন এবং আইএস জঙ্গিগোষ্ঠী পোপের সফরের পরই তাদের হামলা বাড়িয়ে দেয়।

৮৪ বছর বয়সী এই পোপের সফরের আগে ইরাকে মার্কিন সেনাদের অবস্থান করা বিমানঘাঁটিতে রকেট নিক্ষেপ ও আত্মঘাতী হামলার ঘটনা ঘটেছে।

করোনাভাইরাস মহামারির কারণে দীর্ঘদিন কোনো সফরে বের হননি তিনি। ২০১৯ সালের নভেম্বরের পর ইতালির বাইরে তিনি সম্প্রতি মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটিতে সফরে যান।

এই সফরে জনসমক্ষে দেওয়া প্রথম ভাষণে তিনি বলেন, অবশ্যই সহিংসতা, উগ্রপন্থা, সংঘাত ও অসহিষ্ণুতার অবসান ঘটাতে হবে। ইরাকের নাগরিক হিসেবে পূর্ণ অধিকার, স্বাধীনতা ও দায়িত্বশীলতার সঙ্গে জনজীবনে খ্রিষ্টানদের আরও ভূমিকা রাখতে তিনি আহ্বান জানান।  

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ইরাকে মার্কিন-ইরান ছায়াযুদ্ধ

আরও খবর