প্রেসিডেন্ট হিসেবে প্রথম সংবাদ সম্মেলন করলেন বাইডেন
jugantor
প্রেসিডেন্ট হিসেবে প্রথম সংবাদ সম্মেলন করলেন বাইডেন

  অনলাইন ডেস্ক  

২৬ মার্চ ২০২১, ১৯:৩৭:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রেসিডেন্ট হিসেবে প্রথম সংবাদ সম্মেলন করলেন বাইডেন

মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর প্রথমবারের মতো আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলন করেছেন জো বাইডেন।

এতে দক্ষিণাঞ্চলীয় সীমান্তে অভিবাসীদের বাড়তি চাপ কীভাবে মোকাবিলা করা হবে তা নিয়ে জোর দিয়েছেন তিনি।

এছাড়া বৃহস্পতিবারের ঘণ্টাব্যাপী সংবাদ সম্মেলনে তিনি বন্দুক হামলা এবং পররাষ্ট্র নীতি নিয়ে কথা বলেন।

বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, সংবাদ সম্মেলনে সবকিছুতে স্বচ্ছ থাকার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেছেন এই ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট।

নিজের প্রথম সংবাদ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট বাইডেন করোনার টিকাদানের লক্ষ্যমাত্রা দ্বিগুণ করার ঘোষণা দিয়েছেন।

নিজের কার্যমেয়াদের প্রথম ১০০ দিনে দশ কোটি ডোজ দেওয়ার কথা বলে আসলেও বৃহস্পতিবার বলেন, শততম দিনের আগেই ২০ কোটি মানুষকে টিকা দেওয়া হবে।

তবে সংবাদ সম্মেলনে ঘুরে ফিরেই আসতে থাকে যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো সীমান্তের অভিবাসন পরিস্থিতি।

যুক্তরাষ্ট্রের সরকারি আটক কেন্দ্রে বর্তমানে ১৭ হাজারের বেশি শিশু রয়েছে। বাইডেনের নীতির কারণে অভিবাসী শিশুদের যুক্তরাষ্ট্রে আগমন বাড়বে কিনা সেই চ্যালেঞ্জও রয়েছে।

প্রেসিডেন্ট হিসেবে প্রথম সংবাদ সম্মেলন করলেন বাইডেন

 অনলাইন ডেস্ক 
২৬ মার্চ ২০২১, ০৭:৩৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
প্রেসিডেন্ট হিসেবে প্রথম সংবাদ সম্মেলন করলেন বাইডেন
মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ছবি: সংগৃহীত

মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর প্রথমবারের মতো আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলন করেছেন জো বাইডেন। 

এতে দক্ষিণাঞ্চলীয় সীমান্তে অভিবাসীদের বাড়তি চাপ কীভাবে মোকাবিলা করা হবে তা নিয়ে জোর দিয়েছেন তিনি।

এছাড়া বৃহস্পতিবারের ঘণ্টাব্যাপী সংবাদ সম্মেলনে তিনি বন্দুক হামলা এবং পররাষ্ট্র নীতি নিয়ে কথা বলেন। 

বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, সংবাদ সম্মেলনে সবকিছুতে স্বচ্ছ থাকার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেছেন এই ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট।

নিজের প্রথম সংবাদ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট বাইডেন করোনার টিকাদানের লক্ষ্যমাত্রা দ্বিগুণ করার ঘোষণা দিয়েছেন।

নিজের কার্যমেয়াদের প্রথম ১০০ দিনে দশ কোটি ডোজ দেওয়ার কথা বলে আসলেও বৃহস্পতিবার বলেন, শততম দিনের আগেই ২০ কোটি মানুষকে টিকা দেওয়া হবে। 

তবে সংবাদ সম্মেলনে ঘুরে ফিরেই আসতে থাকে যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো সীমান্তের অভিবাসন পরিস্থিতি।

যুক্তরাষ্ট্রের সরকারি আটক কেন্দ্রে বর্তমানে ১৭ হাজারের বেশি শিশু রয়েছে। বাইডেনের নীতির কারণে অভিবাসী শিশুদের যুক্তরাষ্ট্রে আগমন বাড়বে কিনা সেই চ্যালেঞ্জও রয়েছে। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন