বিজেপি এবার হারছেই, মমতার হুঙ্কার
jugantor
বিজেপি এবার হারছেই, মমতার হুঙ্কার

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৪ এপ্রিল ২০২১, ২২:১৫:৩৭  |  অনলাইন সংস্করণ

বিজেপি এবার হারছেই, মমতার হুঙ্কার

পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনে এবার পুরো হেরে গেছে বিজেপি। এমনকি বহু কেন্দ্রে তাদের জামানতও বাজেয়াপ্ত হবে।

নির্বাচন শেষ না হতেই রোববার হুগলির জনসভায় বিজেপি হারছে বলে জোর হুঙ্কার ছাড়েন তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জি। সেই সঙ্গে বিজেপির সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের গোপন আঁতাতেরও অভিযোগ করেন ঘুরিয়ে।

বলেন, কমিশনকে কাজে লাগিয়ে পুলিশ বদল করা হচ্ছে, এজেন্টের নিয়মও শিথিল করা হয়েছে।

বিজেপির উদ্দেশে এদিন আরও বলেন, ‘দু-দফায় ৫০টি আসনে জিতে গিয়েছে বলে যতই দাবি করুক, বিজেপি এবার হারছেই। মিথ্যা দাবি করে জিততে পারবে না। বিজেপি দু-দফা ভোটের পর যে স্বপ্ন দেখছে, সেই স্বপ্ন কোনো দিনও পূরণ হবে না। আগে মোট ৫০টি আসন জিতে দেখাও, তারপর দাবি করো।’

তার অভিযোগ, নির্বাচনে কোনো নিয়ম মানা হচ্ছে না। বিজেপি চায় মানুষ ভোট না দিক। তাই তারা নিয়মের ধার ধারছে না। বিজেপির অঙ্গুলিহেলনে এজেন্টের নিয়ম শিথিল করেছে কমিশন। বুথে এজেন্ট না পেয়ে বিধানসভা ক্ষেত্রের যে কোনো বুথ থেকে এজেন্ট এনে বসানোর নিয়ম করেছে কমিশন।

মমতা আরও বলেন, বিজেপির কথায় কেউ কেউ দালালি করছেন। আমার আবেদন কেউ বিক্রি হয়ে যাবেন না। বিক্রি হওয়ার চেষ্টাও করবেন না। বিক্রি হলে আমি ঠিক ধরে ফেলব। প্রতিদিন পুলিশ অফিসার বদল করা হচ্ছে কমিশনকে দিয়ে। অফিসার বদলালেই সব হয়ে যাবে?

যেসব অফিসার রয়েছেন তারা কি খারাপ? প্রশ্ন তোলেন মমতা। দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আক্রমণ করে মমতা বলেন, মোদিরা আসবে, ভাঁওতা দেবে, তারপর পালিয়ে যাবে। সবকিছু বিক্রি করে দিচ্ছে। আগে দিল্লি সামলান।

আমার রাজ্যের সরকারকে নির্দেশ দেওয়ার কোনো অধিকার নেই আপনার। অথচ নির্বাচন চলাকালীন আমার অফিসারদের নির্দেশ দিচ্ছেন।

বিজেপি এবার হারছেই, মমতার হুঙ্কার

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৪ এপ্রিল ২০২১, ১০:১৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বিজেপি এবার হারছেই, মমতার হুঙ্কার
ছবি: আনন্দবাজার পত্রিকা

পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনে এবার পুরো হেরে গেছে বিজেপি। এমনকি বহু কেন্দ্রে তাদের জামানতও বাজেয়াপ্ত হবে। 

নির্বাচন শেষ না হতেই রোববার হুগলির জনসভায় বিজেপি হারছে বলে জোর হুঙ্কার ছাড়েন তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জি।  সেই সঙ্গে বিজেপির সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের গোপন আঁতাতেরও অভিযোগ করেন ঘুরিয়ে। 

বলেন, কমিশনকে কাজে লাগিয়ে পুলিশ বদল করা হচ্ছে, এজেন্টের নিয়মও শিথিল করা হয়েছে। 

বিজেপির উদ্দেশে এদিন আরও বলেন, ‘দু-দফায় ৫০টি আসনে জিতে গিয়েছে বলে যতই দাবি করুক, বিজেপি এবার হারছেই। মিথ্যা দাবি করে জিততে পারবে না। বিজেপি দু-দফা ভোটের পর যে স্বপ্ন দেখছে, সেই স্বপ্ন কোনো দিনও পূরণ হবে না। আগে মোট ৫০টি আসন জিতে দেখাও, তারপর দাবি করো।’ 

তার অভিযোগ, নির্বাচনে কোনো নিয়ম মানা হচ্ছে না। বিজেপি চায় মানুষ ভোট না দিক। তাই তারা নিয়মের ধার ধারছে না। বিজেপির অঙ্গুলিহেলনে এজেন্টের নিয়ম শিথিল করেছে কমিশন। বুথে এজেন্ট না পেয়ে বিধানসভা ক্ষেত্রের যে কোনো বুথ থেকে এজেন্ট এনে বসানোর নিয়ম করেছে কমিশন। 

মমতা আরও বলেন, বিজেপির কথায় কেউ কেউ দালালি করছেন। আমার আবেদন কেউ বিক্রি হয়ে যাবেন না। বিক্রি হওয়ার চেষ্টাও করবেন না। বিক্রি হলে আমি ঠিক ধরে ফেলব। প্রতিদিন পুলিশ অফিসার বদল করা হচ্ছে কমিশনকে দিয়ে। অফিসার বদলালেই সব হয়ে যাবে? 

যেসব অফিসার রয়েছেন তারা কি খারাপ? প্রশ্ন তোলেন মমতা। দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আক্রমণ করে মমতা বলেন, মোদিরা আসবে, ভাঁওতা দেবে, তারপর পালিয়ে যাবে। সবকিছু বিক্রি করে দিচ্ছে। আগে দিল্লি সামলান। 

আমার রাজ্যের সরকারকে নির্দেশ দেওয়ার কোনো অধিকার নেই আপনার। অথচ নির্বাচন চলাকালীন আমার অফিসারদের নির্দেশ দিচ্ছেন। 
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : পশ্চিমবঙ্গ নির্বাচন ২০২১