‘করোনার মাঝে আইপিএল আয়োজন ভুল নয়’
jugantor
‘করোনার মাঝে আইপিএল আয়োজন ভুল নয়’

  স্পোর্টস ডেস্ক  

০৭ মে ২০২১, ১২:০৩:৩৫  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারত যখন করোনায় মৃত্যুপুরী, তখন দিল্লি, চেন্নাইয়ে চলছিল আইপিএল উৎসব।

টাকার অভাবে যেখানে অক্সিজেনের সিলিন্ডার না কিনতে পেরে লাশ পড়ছিল, সেখানে চিপকে, মোতেরা, দিল্লির মাঠে উড়ছিল কাঁড়ি কাঁড়ি টাকা।

বিষয়টিকে মানবিকতার চরম স্খলন আখ্যা দিয়ে অনেকেই আইপিএল বন্ধের দাবি জানান। তা ছাড়া নামিদামি খেলোয়াড়দের আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কার বিষয়টি জানানো হয়।

কিন্তু এসব বিষয়কে পাত্তা না দিয়ে বায়ো বাবল সুরক্ষার ভরসায় ঠিকই আইপিএল চালিয়ে যাচ্ছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। বিশ্বব্যাপী সমালোচনাকে কানে তুলছিলেন না বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলী।

অবশেষে করোনার থাবায় আইপিএল বন্ধ করতেই হলো বিসিসিআইকে। তবু সমালোচনার তীক্ষ্ন তীরে বিদ্ধ হচ্ছেন বিসিসিআই ও আইপিএলের কর্মকর্তারা।

এমন মহামারির ছোবলে মৃত্যুপুরীতে পরিণত ভারতে আইপিএল আয়োজন কি সঠিক সিদ্ধান্ত ছিল? - প্রশ্ন থেকেই যায়।

এর জবাবে সৌরভ গাঙ্গুলীর দাবি, মহামারির মাঝে আইপিএল আয়োজন ভুল ছিল না।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সৌরভ বলেন, ‘না, ভুল ছিল না। আমরা যখন সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম, তখন আক্রান্তের সংখ্যা এখনকার কাছাকাছিও ছিল না। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ আমরা সফলভাবে করতে পেরেছিলাম। ফেব্রুয়ারিতে ভারতের কোভিড পরিস্থিতি তেমন কিছু ছিল না। গত তিন সপ্তাহে এই হার আকাশ ছুঁয়েছে, এর আগে কিছুই ছিল না। আরব আমিরাতে করা নিয়ে আলোচনা হয়েছিল আমাদের, পরে ভারতেই করার সিদ্ধান্ত নিই।’

তবু তো করোনার হানায় আইপিএল বন্ধ করতেই হলো। বিষয়টি নিয়ে আরও সতর্ক থাকা উচিত ছিল না?

সৌরভের জবাব, ‘আমি যতদূর জানতে পেরেছি— বায়ো বাবল ভাঙার কোনো ঘটনা ঘটেনি আইপিএলে। তবু আক্রান্ত হয়েছে। কীভাবে এতজন আক্রান্ত হলো, তা বলা কঠিন। শুধু আইপিএলেই নয়, ভারতে কীভাবে এত এত লোক আক্রান্ত হচ্ছে, সেটিও বলা কঠিন। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগেও অনেকে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। সারা পৃথিবীতেই এটিকে নিয়ন্ত্রণে রাখা যাচ্ছে না। এর মধ্যেই চলতে হচ্ছে।’

‘করোনার মাঝে আইপিএল আয়োজন ভুল নয়’

 স্পোর্টস ডেস্ক 
০৭ মে ২০২১, ১২:০৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ভারত যখন করোনায় মৃত্যুপুরী, তখন দিল্লি, চেন্নাইয়ে চলছিল আইপিএল উৎসব। 

টাকার অভাবে যেখানে অক্সিজেনের সিলিন্ডার না কিনতে পেরে লাশ পড়ছিল, সেখানে চিপকে, মোতেরা, দিল্লির মাঠে উড়ছিল কাঁড়ি কাঁড়ি টাকা।

বিষয়টিকে মানবিকতার চরম স্খলন আখ্যা দিয়ে অনেকেই আইপিএল বন্ধের দাবি জানান। তা ছাড়া নামিদামি খেলোয়াড়দের আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কার বিষয়টি জানানো হয়।

কিন্তু এসব বিষয়কে পাত্তা না দিয়ে বায়ো বাবল সুরক্ষার ভরসায় ঠিকই আইপিএল চালিয়ে যাচ্ছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। বিশ্বব্যাপী সমালোচনাকে কানে তুলছিলেন না বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলী।

অবশেষে করোনার থাবায় আইপিএল বন্ধ করতেই হলো বিসিসিআইকে। তবু সমালোচনার তীক্ষ্ন তীরে বিদ্ধ হচ্ছেন  বিসিসিআই ও আইপিএলের কর্মকর্তারা।

এমন মহামারির ছোবলে মৃত্যুপুরীতে পরিণত ভারতে আইপিএল আয়োজন কি সঠিক সিদ্ধান্ত ছিল? - প্রশ্ন থেকেই যায়।

এর জবাবে সৌরভ গাঙ্গুলীর দাবি, মহামারির মাঝে আইপিএল আয়োজন ভুল ছিল না।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সৌরভ বলেন, ‘না, ভুল ছিল না। আমরা যখন সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম, তখন আক্রান্তের সংখ্যা এখনকার কাছাকাছিও ছিল না। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ আমরা সফলভাবে করতে পেরেছিলাম। ফেব্রুয়ারিতে ভারতের কোভিড পরিস্থিতি তেমন কিছু ছিল না। গত তিন সপ্তাহে এই হার আকাশ ছুঁয়েছে, এর আগে কিছুই ছিল না। আরব আমিরাতে করা নিয়ে আলোচনা হয়েছিল আমাদের, পরে ভারতেই করার সিদ্ধান্ত নিই।’

তবু তো করোনার হানায় আইপিএল বন্ধ করতেই হলো। বিষয়টি নিয়ে আরও সতর্ক থাকা উচিত ছিল না?

সৌরভের জবাব, ‘আমি যতদূর জানতে পেরেছি— বায়ো বাবল ভাঙার কোনো ঘটনা ঘটেনি আইপিএলে। তবু আক্রান্ত হয়েছে। কীভাবে এতজন আক্রান্ত হলো, তা বলা কঠিন। শুধু আইপিএলেই নয়, ভারতে কীভাবে এত এত লোক আক্রান্ত হচ্ছে, সেটিও বলা কঠিন। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগেও অনেকে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। সারা পৃথিবীতেই এটিকে নিয়ন্ত্রণে রাখা যাচ্ছে না। এর মধ্যেই চলতে হচ্ছে।’

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : আইপিএল-২০২১