বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে মঙ্গলের বুকে নামল চীনা মহাকাশযান
jugantor
বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে মঙ্গলের বুকে নামল চীনা মহাকাশযান

  যুগান্তর ডেস্ক  

১৫ মে ২০২১, ১৩:৫৫:৩৩  |  অনলাইন সংস্করণ

বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে মঙ্গলের বুকে নামল চীনা মহাকাশযান

মঙ্গল গ্রহে সফলভাবে মহাকাশযান অবতরণ করিয়েছে চীন। বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে চীন মঙ্গলে কোনো রোভার অবতরণ করাতে সফল হল।

শনিবার সকালে চীনের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে বলে বিবিসি জানিয়েছে।

খবরে বলা হয়, স্থানীয় সময় শনিবার সকাল ৭টা ১৮ মিনিটে লাল গ্রহটির বুকে অবতরণ করে ঝুরং। এরপর সোলার প্যানেলগুলো খুলে পৃথিবীতে সংকেত পাঠাতে প্রায় ১৭ মিনিট সময় নেয় রোবটটি।

ঝুরং নামের ছয় চাকার রোবটটি একটি সুরক্ষা ক্যাপসুল, একটি প্যারাসুট ও একটি রকেট প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে সফলভাবে মঙ্গলের বুকে অবতরণ করে। এটি মঙ্গলের উত্তর গোলার্ধে অনুসন্ধান চালাবে।

বিবিসি জানিয়েছে, এখন সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে অন্তত ৯০টি মঙ্গলীয় দিবস সেখানে অবস্থান করবে ঝুরং। এই দীর্ঘ সময়ে নানা নমুনা সংগ্রহ করবে ওই রোভার। এটি খতিয়ে মঙ্গলপৃষ্ঠের গঠন দেখবে। বরফের সন্ধান করবে। যদি কোনো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নজরে আসে তবে সেটিকে বিশেষভাবে পর্যবেক্ষণও করবে ঝুরং।

এর আগে কেবল যুক্তরাষ্ট্র মঙ্গলে মহাকাশযান পাঠাতে পেরেছে। মঙ্গলে অবতরণের মতো কঠিন কাজ সফলভাবে সম্পন্ন করায় চীনা নভোযানের এই কীর্তিকে গুরুত্বপূর্ণ অর্জন হিসেবে দেখা হচ্ছে।


বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে মঙ্গলের বুকে নামল চীনা মহাকাশযান

 যুগান্তর ডেস্ক 
১৫ মে ২০২১, ০১:৫৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে মঙ্গলের বুকে নামল চীনা মহাকাশযান
ছবি: বিবিসি

মঙ্গল গ্রহে সফলভাবে মহাকাশযান অবতরণ করিয়েছে চীন। বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ হিসেবে চীন মঙ্গলে কোনো রোভার অবতরণ করাতে সফল হল।

শনিবার সকালে চীনের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে বলে বিবিসি জানিয়েছে।

খবরে বলা হয়, স্থানীয় সময় শনিবার সকাল ৭টা ১৮ মিনিটে লাল গ্রহটির বুকে অবতরণ করে ঝুরং। এরপর সোলার প্যানেলগুলো খুলে পৃথিবীতে সংকেত পাঠাতে প্রায় ১৭ মিনিট সময় নেয় রোবটটি। 

ঝুরং নামের ছয় চাকার রোবটটি একটি সুরক্ষা ক্যাপসুল, একটি প্যারাসুট ও একটি রকেট প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে সফলভাবে মঙ্গলের বুকে অবতরণ করে। এটি মঙ্গলের উত্তর গোলার্ধে অনুসন্ধান চালাবে।

বিবিসি জানিয়েছে, এখন সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে অন্তত ৯০টি মঙ্গলীয় দিবস সেখানে অবস্থান করবে ঝুরং। এই দীর্ঘ সময়ে নানা নমুনা সংগ্রহ করবে ওই রোভার। এটি খতিয়ে মঙ্গলপৃষ্ঠের গঠন দেখবে। বরফের সন্ধান করবে। যদি কোনো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নজরে আসে তবে সেটিকে বিশেষভাবে পর্যবেক্ষণও করবে ঝুরং।

এর আগে কেবল যুক্তরাষ্ট্র মঙ্গলে মহাকাশযান পাঠাতে পেরেছে। মঙ্গলে অবতরণের মতো কঠিন কাজ সফলভাবে সম্পন্ন করায় চীনা নভোযানের এই কীর্তিকে গুরুত্বপূর্ণ অর্জন হিসেবে দেখা হচ্ছে।


 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন