ব্রিটিশ সরকারের স্বীকৃতি পেলেন বাংলাদেশি চিকিৎসক তাসনিম জারা
jugantor
ব্রিটিশ সরকারের স্বীকৃতি পেলেন বাংলাদেশি চিকিৎসক তাসনিম জারা

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৩ জুন ২০২১, ২০:০২:০৫  |  অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশি চিকিৎসক তাসনিম জারা’কে ‘ভ্যাক্সিন লুমিনারি’ হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে ব্রিটিশ সরকার। তিনি ইংল্যান্ডে জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা খাতে (এনএইচএস) কর্মরত।

জি-৭ গ্লোবাল ভ্যাক্সিন কনফিডেন্স সামিটে বুধবার এই স্বীকৃতি দেওয়া হয়। জি-৭ প্রেসিডেন্সিতে ব্রিটিশ সরকার প্রথমবারের মতো এ ধরনের ইভেন্ট আহ্বান করে। এতে টিকার বিষয়ে আস্থা গড়ে তোলা এবং তা রক্ষায় সরকারি এবং বেসরকারি পর্যায়ে বিশ্বজুড়ে যেসব বিশেষজ্ঞ কাজ করছেন তাদেরকে একত্রিত করা হয়।
ডা. তাসনিম জারা ইউনিভার্সিটি অব অক্সফোর্ডে একজন পোস্টগ্রাজুয়েট শিক্ষার্থী।

এক প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, ‘যদিও আমাকে ব্রিটেনের পক্ষ থেকে বিশ্ব মানচিত্রে তুলে ধরা হয়েছে, তবু আমি বাংলাদেশ ও ভারতের মানুষদের বেশি সেবা দিয়েছি। একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে আমাকে ভ্যাক্সিন লুমিনারি হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার ফলে এই প্লাটফর্মে বিশ্বের অন্য অংশের প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে আমি গর্বিত।’
ওই সামিটে ব্রিটিশ সরকার এবং পিপলস পিকচারের অংশগ্রহণে সৃষ্ট একটি ফটো মোজাইক ‘দ্য লুমিনারিস’ শিরোনামে অবমুক্ত করা হয়।

ভিডিও এবং ছবি ব্যবহার করে সেখানে ‘ভ্যাক্সিন লুমিনারিস’কে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। ‘ভ্যাক্সিন লুমিনারিস’ হলেন সেসব ব্যক্তি যারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করে টিকার পক্ষে আস্থা তৈরিতে কাজ করেছেন।

ব্রিটিশ সরকারের স্বীকৃতি পেলেন বাংলাদেশি চিকিৎসক তাসনিম জারা

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৩ জুন ২০২১, ০৮:০২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশি চিকিৎসক তাসনিম জারা’কে ‘ভ্যাক্সিন লুমিনারি’ হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে ব্রিটিশ সরকার। তিনি ইংল্যান্ডে জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা খাতে (এনএইচএস) কর্মরত।

জি-৭ গ্লোবাল ভ্যাক্সিন কনফিডেন্স সামিটে বুধবার এই স্বীকৃতি দেওয়া হয়। জি-৭ প্রেসিডেন্সিতে ব্রিটিশ সরকার প্রথমবারের মতো এ ধরনের ইভেন্ট আহ্বান করে। এতে টিকার বিষয়ে আস্থা গড়ে তোলা এবং তা রক্ষায় সরকারি এবং বেসরকারি পর্যায়ে বিশ্বজুড়ে যেসব বিশেষজ্ঞ কাজ করছেন তাদেরকে একত্রিত করা হয়। 
ডা. তাসনিম জারা ইউনিভার্সিটি অব অক্সফোর্ডে একজন পোস্টগ্রাজুয়েট শিক্ষার্থী। 

এক প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, ‘যদিও আমাকে ব্রিটেনের পক্ষ থেকে বিশ্ব মানচিত্রে তুলে ধরা হয়েছে, তবু আমি বাংলাদেশ ও ভারতের মানুষদের বেশি সেবা দিয়েছি। একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে আমাকে ভ্যাক্সিন লুমিনারি হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার ফলে এই প্লাটফর্মে বিশ্বের অন্য অংশের প্রতিনিধিত্ব করতে পেরে আমি গর্বিত।’
ওই সামিটে ব্রিটিশ সরকার এবং পিপলস পিকচারের অংশগ্রহণে সৃষ্ট একটি ফটো মোজাইক ‘দ্য লুমিনারিস’ শিরোনামে অবমুক্ত করা হয়।

ভিডিও এবং ছবি ব্যবহার করে সেখানে ‘ভ্যাক্সিন লুমিনারিস’কে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। ‘ভ্যাক্সিন লুমিনারিস’ হলেন সেসব ব্যক্তি যারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করে টিকার পক্ষে আস্থা তৈরিতে কাজ করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন