পুতিনের সঙ্গে বৈঠকের আগে কঠোর হুশিয়ারি বাইডেনের
jugantor
পুতিনের সঙ্গে বৈঠকের আগে কঠোর হুশিয়ারি বাইডেনের

  অনলাইন ডেস্ক  

১০ জুন ২০২১, ২২:৩৪:১৮  |  অনলাইন সংস্করণ

বাইডেন ও পুতিন

পুতিনের সঙ্গে বৈঠকের আগে রাশিয়াকে কঠোর হুশিয়ারি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

রাশিয়াকে সতর্ক করে তিনি বলেছেন যে, ‘আমরা রাশিয়ার সঙ্গে সংঘাত চাই না। আমরা চাই একটি স্থিতিশীল ও প্রতিশ্র“তিশীল সম্পর্ক। তবে এ বিষয়ে আমার বক্তব্য পরিষ্কার- রাশিয়ার সরকার যদি কোনো ক্ষতিকর কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে থাকে তাহলে যুক্তরাষ্ট্র এর একটি বিস্তৃত ও অর্থপূর্ণ উপায়ে জবাব দেবে। রাশিয়া যদি ক্ষতিকর কোনো কাজে যুক্ত হয় তাহলে তাদের ‘কঠোর পরিণতির’ মুখোমুখি হতে হবে।

স্থানীয় সময় বুধবার ব্রিটেন পৌঁছে মিলডেনহল বিমানঘাঁটিতে প্রায় এক হাজার বিমানসেনা ও তাদের পরিবারের সদস্যদের সামনে এক ভাষণে এসব কথা বলেন বাইডেন।খবর বিবিসির।

আগামী ১৩ জুন বাইডেন উইন্ডসর ক্যাসলে ব্রিটিশ রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। এরপ জি-৭ নেতাদের বৈঠকে যোগ দেবেন। স্থানীয় সময় শুক্রবার (বাংলাদেশ সময় শনিবার) ব্রিটেনের পর্যটন শহর কর্নওয়ালের কারবিস বে’তে শুরু হওয়ার কথা রয়েছে। এই সফরের সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য সূচিটি হচ্ছে আগামী সপ্তাহে জেনেভায় রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে শীর্ষ বৈঠক।

প্রসঙ্গত, প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর এটাই বাইডেনের প্রথম বিদেশ সফর। সফরের আগেই বাইডেন স্পষ্ট করেই বলেছেন, ট্রাম্প প্রশাসনের অধীনে ইউরোপের গণতান্ত্রিক যেসব মিত্র দেশের সঙ্গে সম্পর্ক টানাপোড়েন ছিল, তাদের সঙ্গে সম্পর্ক জোরদার করাই তার মূল উদ্দেশ্য। আট দিনের এই সফরে বুধবার ব্রিটেন পৌঁছান তিনি।

পুতিনের সঙ্গে বৈঠকের আগে কঠোর হুশিয়ারি বাইডেনের

 অনলাইন ডেস্ক 
১০ জুন ২০২১, ১০:৩৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বাইডেন ও পুতিন
ফাইল ছবি

পুতিনের সঙ্গে বৈঠকের আগে রাশিয়াকে কঠোর হুশিয়ারি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

রাশিয়াকে সতর্ক করে তিনি বলেছেন যে, ‘আমরা রাশিয়ার সঙ্গে সংঘাত চাই না। আমরা চাই একটি স্থিতিশীল ও প্রতিশ্র“তিশীল সম্পর্ক। তবে এ বিষয়ে আমার বক্তব্য পরিষ্কার- রাশিয়ার সরকার যদি কোনো ক্ষতিকর কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে থাকে তাহলে যুক্তরাষ্ট্র এর একটি বিস্তৃত ও অর্থপূর্ণ উপায়ে জবাব দেবে। রাশিয়া যদি ক্ষতিকর কোনো কাজে যুক্ত হয় তাহলে তাদের ‘কঠোর পরিণতির’ মুখোমুখি হতে হবে। 

স্থানীয় সময় বুধবার ব্রিটেন পৌঁছে মিলডেনহল বিমানঘাঁটিতে প্রায় এক হাজার বিমানসেনা ও তাদের পরিবারের সদস্যদের সামনে এক ভাষণে এসব কথা বলেন বাইডেন। খবর বিবিসির। 

আগামী ১৩ জুন বাইডেন উইন্ডসর ক্যাসলে ব্রিটিশ রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। এরপ জি-৭ নেতাদের বৈঠকে যোগ দেবেন। স্থানীয় সময় শুক্রবার (বাংলাদেশ সময় শনিবার) ব্রিটেনের পর্যটন শহর কর্নওয়ালের কারবিস বে’তে শুরু হওয়ার কথা রয়েছে। এই সফরের সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য সূচিটি হচ্ছে আগামী সপ্তাহে জেনেভায় রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে শীর্ষ বৈঠক। 

প্রসঙ্গত, প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর এটাই বাইডেনের প্রথম বিদেশ সফর। সফরের আগেই বাইডেন স্পষ্ট করেই বলেছেন, ট্রাম্প প্রশাসনের অধীনে ইউরোপের গণতান্ত্রিক যেসব মিত্র দেশের সঙ্গে সম্পর্ক টানাপোড়েন ছিল, তাদের সঙ্গে সম্পর্ক জোরদার করাই তার মূল উদ্দেশ্য। আট দিনের এই সফরে বুধবার ব্রিটেন পৌঁছান তিনি। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন