পুনরুদ্ধার পরিকল্পনার খসড়া করেছে মালয়েশিয়া
jugantor
পুনরুদ্ধার পরিকল্পনার খসড়া করেছে মালয়েশিয়া

  আহমাদুল কবির, মালয়েশিয়া থেকে  

১৪ জুন ২০২১, ২২:২০:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

মহামারি থেকে বেরিয়ে আসার পরিকল্পনা করছে মালয়েশিয়া। এ বিষয়ে জাতীয় পুনরুদ্ধার পরিকল্পনার (প্রস্থান পরিকল্পনা) একটি খসড়া তৈরি করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী তানশ্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন।

চলমান কোভিড-১৯ পরিচালন, অর্থনীতি, টিকাদান কর্মসূচি ইত্যাদির শর্তাদিসহ যে সকল প্রস্তুতি হয়েছে তার ওপর ভিত্তি করে এই পরিকল্পনাটি জাতীয় সুরক্ষা কাউন্সিলে (এমকেএন) আগামী সপ্তাহে উপস্থাপিত হবে।

১৩ জুন রোববার জোহর পিপলস হাউজিং প্রজেক্ট (পিপিআর), বান্দর তুন রাজাকের মোবাইল টিকা কেন্দ্র (পিপিভি) পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন ফেডারেল টেরিটরিজ মন্ত্রী তান শ্রী আনুয়ার মুসা।

কয়েকজন মূলমন্ত্রী ইতিমধ্যে খসড়াটি উপস্থাপনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন। খসড়াটি পরিমার্জন করেই জাতীয় সুরক্ষা কাউন্সিলে উত্থাপন করা হবে বলে একটি সূত্রে জানা গেছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, চলমান সমস্যা থেকে বেরিয়ে আসতে এখন একটি প্রস্থান কৌশল বা জাতীয় পুনরুদ্ধার পরিকল্পনা নির্ধারণের সময় এসেছে। তবে সমস্ত পক্ষের সহযোগিতা এবং সমর্থনের ওপর নির্ভর করে এটি একটি বড় চ্যালেঞ্জ। মুহিউদ্দিন বলেন, স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা যাতে ভেঙ্গে না যায় তা নিশ্চিত করতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়কে (এমওএইচ) স্বাস্থ্যসেবা পরিচালনায় সহায়তা করতে হবে। হাসপাতাল, বিছানার সুবিধা, ভেন্টিলেটর, হাসপাতালের কর্মীরা অবশ্যই পর্যাপ্ত হতে হবে। এ সব বাস্তবায়ন করছে সরকার।

পুনরুদ্ধার পরিকল্পনার খসড়া করেছে মালয়েশিয়া

 আহমাদুল কবির, মালয়েশিয়া থেকে 
১৪ জুন ২০২১, ১০:২০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মহামারি থেকে বেরিয়ে আসার পরিকল্পনা করছে মালয়েশিয়া। এ বিষয়ে জাতীয় পুনরুদ্ধার পরিকল্পনার (প্রস্থান পরিকল্পনা) একটি খসড়া তৈরি করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী তানশ্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন।

চলমান কোভিড-১৯ পরিচালন, অর্থনীতি, টিকাদান কর্মসূচি ইত্যাদির শর্তাদিসহ যে সকল প্রস্তুতি হয়েছে তার ওপর ভিত্তি করে এই পরিকল্পনাটি জাতীয় সুরক্ষা কাউন্সিলে (এমকেএন) আগামী সপ্তাহে উপস্থাপিত হবে।

১৩ জুন রোববার জোহর পিপলস হাউজিং প্রজেক্ট (পিপিআর), বান্দর তুন রাজাকের মোবাইল টিকা কেন্দ্র (পিপিভি) পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন ফেডারেল টেরিটরিজ মন্ত্রী তান শ্রী আনুয়ার মুসা।

কয়েকজন মূলমন্ত্রী ইতিমধ্যে খসড়াটি উপস্থাপনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন। খসড়াটি পরিমার্জন করেই জাতীয় সুরক্ষা কাউন্সিলে উত্থাপন করা হবে বলে একটি সূত্রে জানা গেছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, চলমান সমস্যা থেকে বেরিয়ে আসতে এখন একটি প্রস্থান কৌশল বা জাতীয় পুনরুদ্ধার পরিকল্পনা নির্ধারণের সময় এসেছে। তবে সমস্ত পক্ষের সহযোগিতা এবং সমর্থনের ওপর নির্ভর করে এটি একটি বড় চ্যালেঞ্জ। মুহিউদ্দিন বলেন, স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা যাতে ভেঙ্গে না যায় তা নিশ্চিত করতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়কে (এমওএইচ) স্বাস্থ্যসেবা পরিচালনায় সহায়তা করতে হবে। হাসপাতাল, বিছানার সুবিধা, ভেন্টিলেটর, হাসপাতালের কর্মীরা অবশ্যই পর্যাপ্ত হতে হবে। এ সব বাস্তবায়ন করছে সরকার।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন