ফিলিস্তিনিদের বেলুনকে ক্ষেপণাস্ত্রের মতো ভয় পায় ইসরাইলিরা
jugantor
ফিলিস্তিনিদের বেলুনকে ক্ষেপণাস্ত্রের মতো ভয় পায় ইসরাইলিরা

  অনলাইন ডেস্ক  

১৮ জুন ২০২১, ০৪:৪০:৩৭  |  অনলাইন সংস্করণ

অবরুদ্ধ গাজা থেকে ইহুদিবাদীদের উপশহরগুলো লক্ষ্য করে উড়ানো আগুনে বেলুনকে ক্ষেপণাস্ত্রের মতোই ভয় পায় ইসরাইলিরা।

ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে ইসরাইলের অব্যাহত বর্বরতা ও গাজার ওপর অবরোধের প্রতিবাদে এসব আগুনে বেলুন পাঠাচ্ছে ফিলিস্তিনিরা। খবর আরাবি ২১ এর।

গত দুই দিনে ফিলিস্তিনিদের আগুনে বেলুনের কারণে ইসরাইলের ২৪টি স্থানে আগুন লেগেছে। এর ফলে দখলদারদের কৃষিজমিরও ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

গাজা উপত্যকার আশেপাশে গড়ে ওঠা ইহুদিবাদী উপশহরগুলোর বাসিন্দারা স্বীকার করেছেন, আগুনের বেলুনগুলোর ঝুঁকি ক্ষেপণাস্ত্রের চেয়ে কোনো অংশেই কম নয়। কোনো কোনো ক্ষেত্রে এটি আরও বেশি ক্ষতিকর।

আগুনে বেলুনগুলো ইহুদিবাদীদের মধ্যে এতটাই আতঙ্ক তৈরি করেছে যে, দখলদার প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেটও প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। ক্ষেপণাস্ত্রের মোকাবেলায় যে প্রতিক্রিয়া দেখানো হয় এ ক্ষেত্রেও সে ধরণের প্রতিক্রিয়া দেখাতে সোনবাহিনীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

ইহুদিবাদী আগ্রাসন ও নিপীড়নের প্রতিক্রিয়ায় গাজা থেকে এ ধরণের বেলুন পাঠাচ্ছেন সাধারণ ফিলিস্তিনিরা।

১১ দিনের যুদ্ধ শেষে গত ২১ মে ইহুদিবাদী ইসরাইল এবং গাজাভিত্তিক ইসলামি প্রতিরোধ সংগঠন হামাসের মধ্যে যুদ্ধবিরতি কার্যকর হয়।

এরপর গত মঙ্গলবার দখলদার ইসরাইলের উগ্রপন্থী ইহুদিবাদীরা পবিত্র বায়তুল মুকাদ্দাস শহরে উসকানিমূলক পতাকা মিছিল করে। এ নিয়েও ফিলিস্তিনি জনগণ ও ইহুদিবাদীদের মধ্যে টানটান উত্তেজনা সৃষ্টি হয়।

ফিলিস্তিনিদের বেলুনকে ক্ষেপণাস্ত্রের মতো ভয় পায় ইসরাইলিরা

 অনলাইন ডেস্ক 
১৮ জুন ২০২১, ০৪:৪০ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

অবরুদ্ধ গাজা থেকে ইহুদিবাদীদের উপশহরগুলো লক্ষ্য করে উড়ানো আগুনে বেলুনকে ক্ষেপণাস্ত্রের মতোই ভয় পায় ইসরাইলিরা।

ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে ইসরাইলের অব্যাহত বর্বরতা ও গাজার ওপর অবরোধের প্রতিবাদে এসব আগুনে বেলুন পাঠাচ্ছে ফিলিস্তিনিরা। খবর আরাবি ২১ এর।

গত দুই দিনে ফিলিস্তিনিদের আগুনে বেলুনের কারণে ইসরাইলের ২৪টি স্থানে আগুন লেগেছে। এর ফলে দখলদারদের কৃষিজমিরও ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

গাজা উপত্যকার আশেপাশে গড়ে ওঠা ইহুদিবাদী উপশহরগুলোর বাসিন্দারা স্বীকার করেছেন, আগুনের বেলুনগুলোর ঝুঁকি ক্ষেপণাস্ত্রের চেয়ে কোনো অংশেই কম নয়। কোনো কোনো ক্ষেত্রে এটি আরও বেশি ক্ষতিকর।

আগুনে বেলুনগুলো ইহুদিবাদীদের মধ্যে এতটাই আতঙ্ক তৈরি করেছে যে, দখলদার প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেটও প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। ক্ষেপণাস্ত্রের মোকাবেলায় যে প্রতিক্রিয়া দেখানো হয় এ ক্ষেত্রেও সে ধরণের প্রতিক্রিয়া দেখাতে সোনবাহিনীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

ইহুদিবাদী আগ্রাসন ও নিপীড়নের প্রতিক্রিয়ায় গাজা থেকে এ ধরণের বেলুন পাঠাচ্ছেন সাধারণ ফিলিস্তিনিরা।

১১ দিনের যুদ্ধ শেষে গত ২১ মে ইহুদিবাদী ইসরাইল এবং গাজাভিত্তিক ইসলামি প্রতিরোধ সংগঠন হামাসের মধ্যে যুদ্ধবিরতি কার্যকর হয়।

এরপর গত মঙ্গলবার দখলদার ইসরাইলের উগ্রপন্থী ইহুদিবাদীরা পবিত্র বায়তুল মুকাদ্দাস শহরে উসকানিমূলক পতাকা মিছিল করে। এ নিয়েও ফিলিস্তিনি জনগণ ও ইহুদিবাদীদের মধ্যে টানটান উত্তেজনা সৃষ্টি হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ফিলিস্তিনিদের ঘরে ফেরার বিক্ষোভ