খাবারের খোঁজে দেয়াল ভেঙে রান্নাঘরে হাতি (ভিডিও)
jugantor
খাবারের খোঁজে দেয়াল ভেঙে রান্নাঘরে হাতি (ভিডিও)

  অনলাইন ডেস্ক  

২৪ জুন ২০২১, ০২:২১:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

ঘরে একটা হাতির জায়গা দেওয়া আক্ষরিক অর্থেই সহজ নয়। তাই এই বিশাল অযাচিত অথিতিকে নিজের রান্নাঘরে বেড়াতে আসতে দেখে ভীষণ অবাক হয়েছেন থাইল্যান্ডের এক নারী। আর বুনচুয়ে নামের ওই হাতিটি কিন্তু দরজা দিয়ে নয়, ঢুকেছে রান্নাঘরের দেয়াল ভেঙে!

থাইল্যান্ডের হুয়া হিন জেলার এক গ্রামে এই ঘটনা ঘটে বলে বুধবার জিনিউজ এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

রাতচাদাওয়ান পুয়েংপাসপ্পান নামের ওই নারীর ভোরের দিকে হঠাৎ জোরে দেয়াল ভাঙার শব্দে ঘুম ভেঙে যায়। ভীষণ অবাক হয়ে তিনি দেখেন বুনচুয়ে তার দেয়াল ভেঙে রান্নাঘরের ভেতরে শুঁড় দিয়ে হাঁড়ি-কড়াই ওলট-পালট করে খাবার খুঁজছে।

তবে হাতিটির এভাবে ঘোরাঘুরি আর লোকের বাড়িতে হানা দেওয়ার ঘটনা এবারই প্রথম নয়। স্থানীয় প্রতিবেদন অনুযায়ী থাইল্যান্ডের কায়েং ক্রচান জাতীয় উদ্যানের বাসিন্দা বুনচুয়ে এর আগেও এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়েছে।

এ ব্যাপারে জাতীয় উদ্যানের তত্ত্বাবধায়ক ইতথিপন থাইমনকল সংবাদ মধ্যমকে জানান, তারা (হাতি) প্রায়ই ঘুরতে বের হয়। খাবারের গন্ধ পেলে প্রায়ই স্থানীয় বাজারে হানা দেয় বলে জানান তিনি।

তবে এভাবে হাতি স্বভাবজাত প্রকৃতি বদলে খাবারের খোঁজে মানুষের দারস্থ হওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন হান্টার কলেজের মনোবিজ্ঞানের সহকারী অধ্যাপক ড. জোশুয়া প্লোতনিক।

প্রাকৃতিক উৎস থেকে খাবার না পেয়ে হাতিরা লোকালয়ে আসতে বাধ্য হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

খাবারের খোঁজে দেয়াল ভেঙে রান্নাঘরে হাতি (ভিডিও)

 অনলাইন ডেস্ক 
২৪ জুন ২০২১, ০২:২১ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ঘরে একটা হাতির জায়গা দেওয়া আক্ষরিক অর্থেই সহজ নয়। তাই এই বিশাল অযাচিত অথিতিকে নিজের রান্নাঘরে বেড়াতে আসতে দেখে ভীষণ অবাক হয়েছেন থাইল্যান্ডের এক নারী। আর বুনচুয়ে নামের ওই হাতিটি কিন্তু দরজা দিয়ে নয়, ঢুকেছে রান্নাঘরের দেয়াল ভেঙে!

থাইল্যান্ডের হুয়া হিন জেলার এক গ্রামে এই ঘটনা ঘটে বলে  বুধবার জিনিউজ এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

রাতচাদাওয়ান পুয়েংপাসপ্পান নামের ওই নারীর ভোরের দিকে হঠাৎ জোরে দেয়াল ভাঙার শব্দে ঘুম ভেঙে যায়। ভীষণ অবাক হয়ে তিনি দেখেন বুনচুয়ে তার দেয়াল ভেঙে রান্নাঘরের ভেতরে শুঁড় দিয়ে হাঁড়ি-কড়াই ওলট-পালট করে খাবার খুঁজছে।

তবে হাতিটির এভাবে ঘোরাঘুরি আর লোকের বাড়িতে হানা দেওয়ার ঘটনা এবারই প্রথম নয়। স্থানীয় প্রতিবেদন অনুযায়ী থাইল্যান্ডের কায়েং ক্রচান জাতীয় উদ্যানের বাসিন্দা বুনচুয়ে এর আগেও এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়েছে।

এ ব্যাপারে জাতীয় উদ্যানের তত্ত্বাবধায়ক ইতথিপন থাইমনকল সংবাদ মধ্যমকে জানান,  তারা (হাতি) প্রায়ই ঘুরতে বের হয়। খাবারের গন্ধ পেলে প্রায়ই স্থানীয় বাজারে হানা দেয় বলে জানান তিনি।

তবে এভাবে হাতি স্বভাবজাত প্রকৃতি বদলে খাবারের খোঁজে মানুষের দারস্থ হওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন হান্টার কলেজের মনোবিজ্ঞানের সহকারী অধ্যাপক ড. জোশুয়া প্লোতনিক।

প্রাকৃতিক উৎস থেকে খাবার না পেয়ে হাতিরা লোকালয়ে আসতে বাধ্য হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন