কানাডায় এবার মসজিদে ইসলামবিদ্বেষীদের হামলা
jugantor
কানাডায় এবার মসজিদে ইসলামবিদ্বেষীদের হামলা

  অনলাইন ডেস্ক  

২০ জুলাই ২০২১, ১৭:৪৭:০৫  |  অনলাইন সংস্করণ

কানাডার ক্যামব্রিজ এলাকায় ইসলামবিদ্বেষীরা একটি মসজিদে ভয়াবহ হামলা চালিয়েছে।

এতে হাতাহতের কোনো ঘটনা না ঘটলেও মসজিদটির ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। খবর আরব নিউজ ও সিবিসি নিউজের।

শান্তির দেশ হিসেবে পরিচিত কানাডায় এ ধরণের ঘৃণা সন্ত্রাস ও ধর্মীয় উগ্রবাদীদের সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা বেড়ে চলছে।

বাইতুল করিম নামে কানাডার ওই মসজিদের হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও লুটপাট করেছে বলে বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে দেশটির আহমেদিয়া মুসলিম জামাত নামে একটি ইসলামি সংগঠন জানিয়েছে।

কানাডার আহমেদিয়া মুসলিম জামাতের প্রেসিডেন্ট লাল খান মালিক ওই বিবৃতিতে বলেছেন, মসজিদে এ ধরণের হামলায় আমরা শঙ্কিত।

মসজিদ হলো শান্তির প্রতীক। এখান থেকে শান্তির বাণী প্রচার করা করা। কিন্তু এখানেও হামলা চালাচ্ছে ইসলামবিদ্বেষী অপশক্তি।

এটাকে কাপুরুষোচিত হামলা বলে তিনি উল্লেখ করেন। এটি সংস্কার করতে কয়েক লাখ ডলার প্রয়োজন বলে তিনি জানান।

এমন সময় মসজিদে এ হামলার ঘটনা ঘটলো, যখন ইসলামভীতি দূর করতে কানাডায় সর্ব ধর্মীয় সম্মেলনের প্রস্তুতি চলছিল।

গত বুধবার যোহর নামাজের সময় ওই মসজিদে ইসলামবিদ্বেষীরা হামলা চালিয়ে ব্যাপক ক্ষতিসাধন এবং লুটপাট করে।

দুই মাস আগেও এক ধর্মবিদ্বেষী গাড়ি চালক মুসলিম একটি পরিবারের ৪ সদস্যকে ট্রাক চাপা দিয়ে হত্যা করে।

পরে সেই ঘাতক পুলিশের কাছে শিকারও করে যে, তাদের পোশাক দেখে তার মনে হয়েছিল এরা সবাই মুসলিম- এ কারণেই তাদের গাড়ি চাপা দিয়ে হত্যা করে ওই বর্ণবাদী শ্বেতাঙ্গ যুবক।

কানাডায় এবার মসজিদে ইসলামবিদ্বেষীদের হামলা

 অনলাইন ডেস্ক 
২০ জুলাই ২০২১, ০৫:৪৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কানাডার ক্যামব্রিজ এলাকায় ইসলামবিদ্বেষীরা একটি মসজিদে ভয়াবহ হামলা চালিয়েছে।

এতে হাতাহতের কোনো ঘটনা না ঘটলেও মসজিদটির ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। খবর আরব নিউজ ও সিবিসি নিউজের।

শান্তির দেশ হিসেবে পরিচিত কানাডায় এ ধরণের ঘৃণা সন্ত্রাস ও ধর্মীয় উগ্রবাদীদের সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা বেড়ে চলছে।

বাইতুল করিম নামে কানাডার ওই মসজিদের হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও লুটপাট করেছে বলে বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে দেশটির আহমেদিয়া মুসলিম জামাত নামে একটি ইসলামি সংগঠন জানিয়েছে।   

কানাডার আহমেদিয়া মুসলিম জামাতের প্রেসিডেন্ট লাল খান মালিক ওই বিবৃতিতে বলেছেন, মসজিদে এ ধরণের হামলায় আমরা শঙ্কিত।

মসজিদ হলো শান্তির প্রতীক। এখান থেকে শান্তির বাণী প্রচার করা করা। কিন্তু এখানেও হামলা চালাচ্ছে ইসলামবিদ্বেষী অপশক্তি।

এটাকে কাপুরুষোচিত হামলা বলে তিনি উল্লেখ করেন। এটি সংস্কার করতে কয়েক লাখ ডলার প্রয়োজন বলে তিনি জানান।

এমন সময় মসজিদে এ হামলার ঘটনা ঘটলো, যখন ইসলামভীতি দূর করতে কানাডায় সর্ব ধর্মীয় সম্মেলনের প্রস্তুতি চলছিল।

গত বুধবার যোহর নামাজের সময় ওই মসজিদে ইসলামবিদ্বেষীরা হামলা চালিয়ে ব্যাপক ক্ষতিসাধন এবং লুটপাট করে।

দুই মাস আগেও এক ধর্মবিদ্বেষী গাড়ি চালক মুসলিম একটি পরিবারের ৪ সদস্যকে ট্রাক চাপা দিয়ে হত্যা করে।

পরে সেই ঘাতক পুলিশের কাছে শিকারও করে যে, তাদের পোশাক দেখে তার মনে হয়েছিল এরা সবাই মুসলিম- এ কারণেই তাদের গাড়ি চাপা দিয়ে হত্যা করে ওই বর্ণবাদী শ্বেতাঙ্গ যুবক। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন