অভ্যুত্থানচেষ্টায় জড়িতরা জাতীয় সংকটের সুযোগ নিয়েছে: সুদানের প্রধানমন্ত্রী
jugantor
অভ্যুত্থানচেষ্টায় জড়িতরা জাতীয় সংকটের সুযোগ নিয়েছে: সুদানের প্রধানমন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক  

২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৯:১২:০৩  |  অনলাইন সংস্করণ

সুদানে একটি অভ্যুত্থানচেষ্টা ব্যর্থ করে দিয়েছে ক্ষমতাসীন সরকার। একই সঙ্গে অভ্যুত্থানচেষ্টার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদক।

কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আলজাজিরা এ তথ্য জানায়।

মঙ্গলবার সুদানের রাজধানী খার্তুমে আবদাল্লাহ হামদক বলেন, ব্যর্থ অভ্যুত্থানচেষ্টায় সামরিক এবং বেসামরিক লোকজন জড়িত ছিল। প্রথমবারের মতো, এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করা হয়েছে।

সুদানের প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, যাদের গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের এ অভ্যুত্থানচেষ্টার উদ্দেশ্য সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। প্রকৃতপক্ষে কী ঘটেছে তা তদন্ত করার জন্য একটি বিশেষ কমিটি কাজ করছে।

হামদক বলেন, এটি অন্তর্বর্তী সরকারের বিরুদ্ধে পূর্বের ষড়যন্ত্রের অংশ। তারা বিভিন্ন শহরের বন্দর এবং সড়ক বন্ধ করে দিয়ে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি করে সুবিধা আদায়ের চেষ্টা করেছিল। তারা জাতীয় সংকটের সুযোগ নিয়েছে এবং এই ক্রান্তিকালে আমাদের এগিয়ে যাওয়ার পথে বাধা সৃষ্টির চেষ্টা করেছে।

এ দিকে সুদানের তথ্যমন্ত্রী হামজা বালৌল বলেন, কর্তৃপক্ষ অভ্যুত্থানচেষ্টার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করেছে। গ্রেফাতারদের মধ্যে সামরিক ও বেসামরিক লোকজন রয়েছে।

সামরিক অভ্যুত্থানে সুদানের প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বশির ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর ২০১৯ সাল থেকে বেসামরিক ও সামরিক বাহিনীর প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে গঠিত সরকার দেশটি শাসন করছে।

অভ্যুত্থানচেষ্টায় জড়িতরা জাতীয় সংকটের সুযোগ নিয়েছে: সুদানের প্রধানমন্ত্রী

 অনলাইন ডেস্ক 
২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:১২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

সুদানে একটি অভ্যুত্থানচেষ্টা ব্যর্থ করে দিয়েছে ক্ষমতাসীন সরকার। একই সঙ্গে অভ্যুত্থানচেষ্টার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদক।

কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আলজাজিরা এ তথ্য জানায়।

মঙ্গলবার সুদানের রাজধানী খার্তুমে আবদাল্লাহ হামদক বলেন, ব্যর্থ অভ্যুত্থানচেষ্টায় সামরিক এবং বেসামরিক লোকজন জড়িত ছিল। প্রথমবারের মতো, এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করা হয়েছে।

সুদানের প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, যাদের গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের এ অভ্যুত্থানচেষ্টার উদ্দেশ্য সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। প্রকৃতপক্ষে কী ঘটেছে তা তদন্ত করার জন্য একটি বিশেষ কমিটি কাজ করছে।

হামদক বলেন, এটি অন্তর্বর্তী সরকারের বিরুদ্ধে পূর্বের ষড়যন্ত্রের অংশ। তারা বিভিন্ন শহরের বন্দর এবং সড়ক বন্ধ করে দিয়ে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি করে সুবিধা আদায়ের চেষ্টা করেছিল। তারা জাতীয় সংকটের সুযোগ নিয়েছে এবং এই ক্রান্তিকালে আমাদের এগিয়ে যাওয়ার পথে বাধা সৃষ্টির চেষ্টা করেছে।

এ দিকে সুদানের তথ্যমন্ত্রী হামজা বালৌল বলেন, কর্তৃপক্ষ অভ্যুত্থানচেষ্টার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করেছে। গ্রেফাতারদের মধ্যে সামরিক ও বেসামরিক লোকজন রয়েছে।

সামরিক অভ্যুত্থানে সুদানের প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বশির ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর ২০১৯ সাল থেকে বেসামরিক ও সামরিক বাহিনীর প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে গঠিত সরকার দেশটি শাসন করছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন