ইরান-রাশিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক শক্তিশালী করছে তালেবান
jugantor
ইরান-রাশিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক শক্তিশালী করছে তালেবান

  অনলাইন ডেস্ক  

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:০৩:১৪  |  অনলাইন সংস্করণ

ইরান ও রাশিয়ার সঙ্গে আফগানিস্তানের দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক দৃঢ় করার কথা জানিয়েছে তালেবান।

শুক্রবার কাবুলে এক সংবাদ সম্মেলনে তালেবান মুখপাত্র জবিহউল্লাহ মুজাহিদ এ কথা বলেছেন।

তিনি বলেছেন, ইরানের সঙ্গে তালেবানের নেতৃত্বাধীন আফগানিস্তানের অন্তর্বর্তী সরকারের কোনো মতবিরোধ নেই এবং তেহরানের সঙ্গে সম্পর্ক আরও দৃঢ় করতে চায় কাবুল।

জবিহউল্লাহ মুজাহিদ তালেবান মুখপাত্রের পাশাপাশি বর্তমান আফগান সরকারের তথ্য ও সংস্কৃতি বিষয়ক উপমন্ত্রী পদেও দায়িত্ব পালন করছেন।

তিনি বলেন, তালেবানের নেতৃত্বাধীন সরকার রাশিয়ার সঙ্গে সর্বোচ্চ পর্যায়ের সম্পর্ক প্রতিষ্ঠা করতে চায়।

রাশিয়া জাতিসংঘের সঙ্গে মধ্যস্থতা করে তালেবান গোষ্ঠীর ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞাগুলো প্রত্যাহার করার ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করতে পারে বলেও তিনি আশা প্রকাশ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে উগ্র জঙ্গি গোষ্ঠী দায়েশ (আইএস) নিয়েও কথা বলেন জবিহউল্লাহ। তিনি দাবি করেন, আফগানিস্তানে আইএসের সামান্য কিছু সন্ত্রাসী রয়েছে এবং তাদেরকে খুঁজে বের করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের কাজ চলছে।

মুজাহিদ বলেন, আমেরিকা আফগানিস্তানের মাটিতে আর কোনো হামলা চালাবে না বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

তালেবান গত ১৫ আগস্ট আফগানিস্তানের ক্ষমতা গ্রহণ করে। আর এর মাধ্যমে দেশটিতে আমেরিকার ২০ বছরের সামরিক উপস্থিতির চরম অপমানজনক অবসান ঘটে।

ইরান-রাশিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক শক্তিশালী করছে তালেবান

 অনলাইন ডেস্ক 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:০৩ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইরান ও রাশিয়ার সঙ্গে আফগানিস্তানের দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক দৃঢ় করার কথা জানিয়েছে তালেবান।

শুক্রবার কাবুলে এক সংবাদ সম্মেলনে তালেবান মুখপাত্র জবিহউল্লাহ মুজাহিদ এ কথা বলেছেন।

তিনি বলেছেন, ইরানের সঙ্গে তালেবানের নেতৃত্বাধীন আফগানিস্তানের অন্তর্বর্তী সরকারের কোনো মতবিরোধ নেই এবং তেহরানের সঙ্গে সম্পর্ক আরও দৃঢ় করতে চায় কাবুল।

জবিহউল্লাহ মুজাহিদ তালেবান মুখপাত্রের পাশাপাশি বর্তমান আফগান সরকারের তথ্য ও সংস্কৃতি বিষয়ক উপমন্ত্রী পদেও দায়িত্ব পালন করছেন।

তিনি বলেন, তালেবানের নেতৃত্বাধীন সরকার রাশিয়ার সঙ্গে সর্বোচ্চ পর্যায়ের সম্পর্ক প্রতিষ্ঠা করতে চায়।

রাশিয়া জাতিসংঘের সঙ্গে মধ্যস্থতা করে তালেবান গোষ্ঠীর ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞাগুলো প্রত্যাহার করার ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করতে পারে বলেও তিনি আশা প্রকাশ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে উগ্র জঙ্গি গোষ্ঠী দায়েশ (আইএস) নিয়েও কথা বলেন জবিহউল্লাহ। তিনি দাবি করেন, আফগানিস্তানে আইএসের সামান্য কিছু সন্ত্রাসী রয়েছে এবং তাদেরকে খুঁজে বের করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের কাজ চলছে।

মুজাহিদ বলেন, আমেরিকা আফগানিস্তানের মাটিতে আর কোনো হামলা চালাবে না বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

তালেবান গত ১৫ আগস্ট আফগানিস্তানের ক্ষমতা গ্রহণ করে। আর এর মাধ্যমে দেশটিতে আমেরিকার ২০ বছরের সামরিক উপস্থিতির চরম অপমানজনক অবসান ঘটে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : আফগানিস্তানে তালেবানের পুনরুত্থান