সরকারি বাহিনীর সঙ্গে হুতিদের তুমুল লড়াই, নিহত ১৪০
jugantor
সরকারি বাহিনীর সঙ্গে হুতিদের তুমুল লড়াই, নিহত ১৪০

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:১২:৫৯  |  অনলাইন সংস্করণ

সরকারি বাহিনীর সঙ্গে হুতিদের তুমুল লড়াই, নিহত ১৪০

ইয়েমেনের সেনাবাহিনী ও দেশটির সশস্ত্র হুতি বিদ্রোহীদের মধ্যে কয়েকদিনের সংঘাতে ১৪০ জনের বেশি নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

চলতি সপ্তাহে দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় মারিব শহর এ হতাহতের ঘটনা ঘটে বলে শুক্রবার ইয়েমেনের সরকারি বাহিনী এবং স্বাস্থ্য দফতরের বরাতে ডন এ খবর জানিয়েছে।

খবরে বলা হয়, গত চারদিনের সংঘর্ষে সরকারি বাহিনীর অনুগত প্রায় ৪৭ সেনা প্রাণ হারান। উভয়পক্ষের যুদ্ধে ইরান সমর্থিত ৯৩ হুতি বিদ্রোহীও নিহত হন। সরকারি বাহিনীর বিমান হামলায় তারা নিহত হয়েছেন বলে দাবি করা হয়েছে।

তেলসমৃদ্ধ অঞ্চল মারিবের আধিপত্য নিয়ন্ত্রণ রাখতে সরকারি বাহিনী ও হুতি গোষ্ঠী দীর্ঘদিন ধরেই লড়াই চালিয়ে আসছে। যদিও হুতি বিদ্রোহীদের পক্ষ তাদের সদস্য হতাহতের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়নি।

ইরানি মদদপুষ্ট হুতি বিদ্রোহীরা ২০১৪ সালে ইয়েমেনের রাজধানী সানা দখল করার পর দেশটির সৌদি সমর্থিত প্রেসিডেন্ট আব্দে রাব্বি মানসুর হাদিকে ক্ষমতাচ্যুত করে। পরে আব্দে রাব্বি মানসুর দেশ ছেড়ে পালিয়ে সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে চলে যান।

এরপর ইয়েমেনের গৃহযুদ্ধে হস্তক্ষেপ করে সৌদি সামরিক জোট। প্রতিশোধ নিতে কয়েকদিন পরপরই সৌদি শহরগুলোতে একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন হামলা করে ইরানের মিত্র হুতিরা।

সরকারি বাহিনীর সঙ্গে হুতিদের তুমুল লড়াই, নিহত ১৪০

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:১২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
সরকারি বাহিনীর সঙ্গে হুতিদের তুমুল লড়াই, নিহত ১৪০
ফাইল ছবি

ইয়েমেনের সেনাবাহিনী ও দেশটির সশস্ত্র হুতি বিদ্রোহীদের মধ্যে কয়েকদিনের সংঘাতে ১৪০ জনের বেশি নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। 

চলতি সপ্তাহে দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় মারিব শহর এ হতাহতের ঘটনা ঘটে বলে শুক্রবার ইয়েমেনের সরকারি বাহিনী এবং স্বাস্থ্য দফতরের বরাতে ডন এ খবর জানিয়েছে। 

খবরে বলা হয়, গত চারদিনের সংঘর্ষে সরকারি বাহিনীর অনুগত প্রায় ৪৭ সেনা প্রাণ হারান। উভয়পক্ষের যুদ্ধে ইরান সমর্থিত ৯৩ হুতি বিদ্রোহীও নিহত হন। সরকারি বাহিনীর বিমান হামলায় তারা নিহত হয়েছেন বলে দাবি করা হয়েছে। 

তেলসমৃদ্ধ অঞ্চল মারিবের আধিপত্য নিয়ন্ত্রণ রাখতে সরকারি বাহিনী ও হুতি গোষ্ঠী দীর্ঘদিন ধরেই লড়াই চালিয়ে আসছে। যদিও হুতি বিদ্রোহীদের পক্ষ তাদের সদস্য হতাহতের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়নি।

ইরানি মদদপুষ্ট হুতি বিদ্রোহীরা ২০১৪ সালে ইয়েমেনের রাজধানী সানা দখল করার পর দেশটির সৌদি সমর্থিত প্রেসিডেন্ট আব্দে রাব্বি মানসুর হাদিকে ক্ষমতাচ্যুত করে। পরে আব্দে রাব্বি মানসুর দেশ ছেড়ে পালিয়ে সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে চলে যান।

এরপর ইয়েমেনের গৃহযুদ্ধে হস্তক্ষেপ করে সৌদি সামরিক জোট। প্রতিশোধ নিতে কয়েকদিন পরপরই সৌদি শহরগুলোতে একের পর এক ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন হামলা করে ইরানের মিত্র হুতিরা।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : ইয়ামেনে সংঘাত