হিজবুল্লাহ নিয়ে ভয়ঙ্কর তথ্য দিল ইসরাইলি সেনা কর্মকর্তা
jugantor
হিজবুল্লাহ নিয়ে ভয়ঙ্কর তথ্য দিল ইসরাইলি সেনা কর্মকর্তা

  অনলাইন ডেস্ক  

১৯ অক্টোবর ২০২১, ২০:২৪:৩৯  |  অনলাইন সংস্করণ

২০০৬ সালে হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে লেবাননে ১ হাজার ২০০'র বেশি মানুষ নিহত হয়

গত মে মাসে গাজায় ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাসের সঙ্গে ১১ দিনের যুদ্ধে ইসরাইলকে প্রায় সাড়ে ৪ হাজার রকেট মোকাবিলা করতে হয়েছিল। তবে লেবাননের সশস্ত্র সংগঠন হিজবুল্লার সঙ্গে যুদ্ধে জড়ালে ইহুদি রাষ্ট্র ইসরাইলকে প্রতিদিন অন্তত ২ হাজার রকেট মোকাবেলা করতে হবে।

ইসরাইলি সেনাবাহিনীর এক শীর্ষ কর্মকর্তা এমন মন্তব্য করেছেন বলে খবর প্রকাশ করেছে এএফপি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইসরাইল হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে জড়াতে চায় না। তবে একবার জড়িয়ে গেলে ইরান সমর্থিত হিজবুল্লাহর ছোড়া দৈনিক ২ হাজার রকেট মোকাবেলা প্রস্তুত।

ইসরারাইল দাবি করেছে, তাদের আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা আয়রন ডোমের মাধ্যমে ৯০ শতাংশ রকেট ধ্বংস করা যায়।

ইসরাইলি সেনাবাহিনীর হোম ফ্রন্ট কমান্ডের প্রধান ইউরি গর্ডিন বলেন, গত মে মাসে ইসরাইলে ৪০০’র বেশি রকেট ঢুকেছে। তেল আবিব ও আশদদের মতো শহরে এত বেশি রকেট ইসরাইলের ইতিহাসে আগে কখনো দেখা যায়নি।'

ইউরি গর্ডিন আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেন, হিজবুল্লার সঙ্গে সংঘাতে জড়ালে প্রতিদিন লেবানন থেকে দৈনিক ২ হাজারের বেশি রকেট ইসরাইলে ছোড়া হবে। প্রতিদিন আমাদের ১৫শ থেকে ২ হাজার রকেট মোকাবেলা করতে হবে।

২০০৬ সালে হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে লেবাননে ১ হাজার ২০০'র বেশি মানুষ নিহত হয়। তাদের অধিকাংশই বেসামরিক নাগরিক। অন্যদিকে, ইসরায়েলে নিহত হয়১৬০ জন। তাদের অধিকাংশ সেনা সদস্য। এই যুদ্ধকে সতর্কবার্তা হিসেবে গ্রহণ করে ইসরাইলের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা সংস্থা হোম ফ্রন্ট কমান্ড। এরপর দেশটির ২৫০টি শহরে আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা গড়ে তোলে সংস্থাটি।

হিজবুল্লাহ নিয়ে ভয়ঙ্কর তথ্য দিল ইসরাইলি সেনা কর্মকর্তা

 অনলাইন ডেস্ক 
১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৮:২৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
২০০৬ সালে হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে লেবাননে ১ হাজার ২০০'র বেশি মানুষ নিহত হয়
২০০৬ সালে হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে লেবাননে ১ হাজার ২০০'র বেশি মানুষ নিহত হয়

গত মে মাসে গাজায় ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাসের সঙ্গে ১১ দিনের যুদ্ধে ইসরাইলকে প্রায় সাড়ে ৪ হাজার রকেট মোকাবিলা করতে হয়েছিল। তবে লেবাননের সশস্ত্র সংগঠন হিজবুল্লার সঙ্গে যুদ্ধে জড়ালে ইহুদি রাষ্ট্র ইসরাইলকে প্রতিদিন অন্তত ২ হাজার রকেট মোকাবেলা করতে হবে।

ইসরাইলি সেনাবাহিনীর এক শীর্ষ কর্মকর্তা এমন মন্তব্য করেছেন বলে খবর প্রকাশ করেছে এএফপি। 

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইসরাইল হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে জড়াতে চায় না। তবে একবার জড়িয়ে গেলে ইরান সমর্থিত হিজবুল্লাহর ছোড়া দৈনিক ২ হাজার রকেট মোকাবেলা প্রস্তুত।

ইসরারাইল দাবি করেছে, তাদের আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা আয়রন ডোমের মাধ্যমে ৯০ শতাংশ রকেট ধ্বংস করা যায়।

ইসরাইলি সেনাবাহিনীর হোম ফ্রন্ট কমান্ডের প্রধান ইউরি গর্ডিন বলেন, গত মে মাসে ইসরাইলে ৪০০’র বেশি রকেট ঢুকেছে।  তেল আবিব ও আশদদের মতো শহরে এত বেশি রকেট ইসরাইলের ইতিহাসে আগে কখনো দেখা যায়নি।'

ইউরি গর্ডিন আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেন, হিজবুল্লার সঙ্গে সংঘাতে জড়ালে প্রতিদিন লেবানন থেকে দৈনিক ২ হাজারের বেশি রকেট ইসরাইলে ছোড়া হবে।  প্রতিদিন আমাদের ১৫শ থেকে ২ হাজার রকেট মোকাবেলা করতে হবে। 

২০০৬ সালে হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধে লেবাননে ১ হাজার ২০০'র বেশি মানুষ নিহত হয়। তাদের অধিকাংশই বেসামরিক নাগরিক। অন্যদিকে, ইসরায়েলে নিহত হয় ১৬০ জন। তাদের অধিকাংশ সেনা সদস্য। এই যুদ্ধকে সতর্কবার্তা হিসেবে গ্রহণ করে ইসরাইলের অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা সংস্থা হোম ফ্রন্ট কমান্ড। এরপর দেশটির ২৫০টি শহরে আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা গড়ে তোলে সংস্থাটি।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন