মুক্তি পেয়ে বাড়ি ফিরলেন সুদানের প্রধানমন্ত্রী
jugantor
মুক্তি পেয়ে বাড়ি ফিরলেন সুদানের প্রধানমন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক  

২৭ অক্টোবর ২০২১, ১৮:০৩:১৮  |  অনলাইন সংস্করণ

সুদান

সামরিক অভ্যুত্থানে ক্ষমতাচ্যুত সুদানের প্রধানমন্ত্রী আব্দাল্লাহ হামদককে মুক্তি দিয়েছে সেনাবাহিনী। আটকের এক দিন পর সেনা প্রহরায় তিনি বাড়ি ফিরেছেন।

তবে কী শর্তে তাকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে সেটা জানা যায়নি। এছাড়া সোমবার অভ্যুত্থানের পর যেসব বেসামরিক সরকারি কর্মকর্তাকে আটক করা হয়েছিল; তারা এখনও মুক্তি পাননি, তাদের কোথায় আটকে রাখা হয়েছে সেটিও জানা যায়নি।

গত সোমবার সেনাবাহিনীর জেনারেল আব্দেল ফাত্তাহ আল-বুরহান অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতা দখলে নেন।

এর পর মঙ্গলবার দেশটির গণতন্ত্রকামী বিক্ষোভকারীরা সামরিক অভ্যুত্থানের বিরোধিতায় রাস্তা অবরোধ করে রাজধানী খার্তুমে বিক্ষোভ করেন। এ সময় টায়ার ও কাঠে আগুন দিয়ে বিক্ষোভ করেন তারা। দেশটিতে সামরিক অভ্যুত্থানের পর গণতন্ত্রকামীদের বিক্ষোভে গুলিতে এখন পর্যন্ত অন্তত ১০ জনের প্রাণ গেছে।

গতকাল এক সংবাদ সম্মেলনে আল-বুরহান দাবি করেন, দেশে গৃহযুদ্ধ ছড়িয়ে পড়া ঠেকাতে সেনাবাহিনী অন্তর্বর্তীকালীন সরকারকে হটিয়ে ক্ষমতা দখলে নিয়েছে। তার দাবি, ক্ষমতাচ্যুত প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদককে নিরাপত্তার জন্য সামরিক বাহিনীর জেনারেলদের বাড়িতে রাখা হয়েছিল।

সংবাদ সম্মেলনে জেনারেল আবদেল ফাত্তাহ আল-বুরহান বলেন, গত সপ্তাহে আমরা যেটা প্রত্যক্ষ করেছি, তাতে আসলে দেশ গৃহযুদ্ধের দিকেই এগিয়ে যাচ্ছিল। প্রধানমন্ত্রী তার নিজের বাড়িতেই ছিলেন। কিন্তু আমাদের আশঙ্কা ছিল, এতে তার ক্ষতি হতে পারে।

মুক্তি পেয়ে বাড়ি ফিরলেন সুদানের প্রধানমন্ত্রী

 অনলাইন ডেস্ক 
২৭ অক্টোবর ২০২১, ০৬:০৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
সুদান
সুদানের প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদাক

সামরিক অভ্যুত্থানে ক্ষমতাচ্যুত সুদানের প্রধানমন্ত্রী আব্দাল্লাহ হামদককে মুক্তি দিয়েছে সেনাবাহিনী। আটকের এক দিন পর সেনা প্রহরায় তিনি বাড়ি ফিরেছেন।

তবে কী শর্তে তাকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে সেটা জানা যায়নি। এছাড়া সোমবার অভ্যুত্থানের পর যেসব বেসামরিক সরকারি কর্মকর্তাকে আটক করা হয়েছিল; তারা এখনও মুক্তি পাননি, তাদের কোথায় আটকে রাখা হয়েছে সেটিও জানা যায়নি।

গত সোমবার সেনাবাহিনীর জেনারেল আব্দেল ফাত্তাহ আল-বুরহান অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতা দখলে নেন।

এর পর মঙ্গলবার দেশটির গণতন্ত্রকামী বিক্ষোভকারীরা সামরিক অভ্যুত্থানের বিরোধিতায় রাস্তা অবরোধ করে রাজধানী খার্তুমে বিক্ষোভ করেন। এ সময় টায়ার ও কাঠে আগুন দিয়ে বিক্ষোভ করেন তারা। দেশটিতে সামরিক অভ্যুত্থানের পর গণতন্ত্রকামীদের বিক্ষোভে গুলিতে এখন পর্যন্ত অন্তত ১০ জনের প্রাণ গেছে।

গতকাল এক সংবাদ সম্মেলনে আল-বুরহান দাবি করেন, দেশে গৃহযুদ্ধ ছড়িয়ে পড়া ঠেকাতে সেনাবাহিনী  অন্তর্বর্তীকালীন সরকারকে হটিয়ে ক্ষমতা দখলে নিয়েছে। তার দাবি, ক্ষমতাচ্যুত প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদককে নিরাপত্তার জন্য সামরিক বাহিনীর জেনারেলদের বাড়িতে রাখা হয়েছিল।

সংবাদ সম্মেলনে জেনারেল আবদেল ফাত্তাহ আল-বুরহান বলেন, গত সপ্তাহে আমরা যেটা প্রত্যক্ষ করেছি, তাতে আসলে দেশ গৃহযুদ্ধের দিকেই এগিয়ে যাচ্ছিল। প্রধানমন্ত্রী তার নিজের বাড়িতেই ছিলেন। কিন্তু আমাদের আশঙ্কা ছিল, এতে তার ক্ষতি হতে পারে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন